English Version

আজকের চাকরির খবর লাইভ খেলা দেখুন

শোকের মাসে ফেসবুক জুড়ে যেন উৎসবের আমেজ


আবুসিদ্দিক বাদল: এমনি চলতি মাসের আগস্টের ১৪তারিখ দিবাগত রাতে কাক ডাকা ভোরে জাতীর জনক বঙ্গবন্ধুকে স্ব-পরিবারে হত্যা করেছিল একদল ঘাতক। শুধুমাত্র প্রানে বেচে যায় শেখ হাসিনাও শেখ রেহেনা। এসকল ইতিহাস সকলেরই জানা। তারপর অনেক গুলা বছর কেটে যায় তার দল আওয়ামীলীগ ছিল ক্ষমতার বাহিরে।
বর্তমানে ক্ষমতায় রয়েছেন আওয়ামীলীগ , বঙ্গকন্যা শেখ হাসিনা বাংলার শাসন কর্তা, জাতী পেয়েছে বঙ্গবন্ধুর হত্যার বিচার। এসকলও আজ সকলেরই জানা। এদিনটিকে লক্ষ্য করে সাবেক প্রধানমন্ত্রী ও বিএনপির চেয়ারপার্সনের জন্মদিন পালন এ বিষয়টিও কারো অজানা নয়। সব কিছুর পরও পাঠক একবার শেখ হাসিনাও শেখ রেহেনার দিকে তাকিয়ে লক্ষ্য করবেন, এদিনটি আসলে কতটা বিমুর্ষ লাগে তাদের কাছে তা অনুধাবন করতে পারবেন। কিন্তু পাঠক যা বলছিলাম, ডিজিটাল যুগে আমরাও ডিজিটাল হয়ে পড়েছি। ফেসবুকে বঙ্গবন্ধুর রক্তমাখা ছবি,একটি বাণী সাথে জুড়ে দেওয়া হচ্ছে হাসিমাখা নিজের ছবি। কি সুন্দর হাসিমাখা মুখ করে তাকিয়ে রয়েছি,পাশে লিখলাম বঙ্গবন্ধুর প্রতি শ্রদ্ধান্জলী। পাঠক, এটা কি সম্পুর্নই বেমানান নয়?