English Version

আজকের চাকরির খবর লাইভ খেলা দেখুন

সুপ্রিম কোর্টে সরকার ও বিএনপিপন্থীদের উত্তেজনা


বিডিটুডেস ডেস্ক : ষোড়শ সংশোধনী বাতিলের রায় নিয়ে সাবেক প্রধান বিচারপতি এ বি এম খায়রুল হকের বক্তব্য নিয়ে মুখোমুখি সরকারপন্থী ও বিএনপি সমর্থক আইনজীবীরা। এ নিয়ে করা সংবাদ সম্মেলনকে ঘিরে উত্তেজনা ছড়িয়ে পড়ে দুই পক্ষের মধ্যে। পরে অবশ্য তেমন কোনো বিশৃঙ্খলা হয়নি।

আজ বৃহস্পতিবার দুপুরের পর সুপ্রিম কোর্ট আইনজীবী সমিতির মিলনায়তনে সংবাদ সম্মেলন করেন সমিতির সভাপতি বিএনপি নেতা জয়নুল আবেদীন। একই সংবাদ সম্মেলনে উপস্থিত থেকে সমিতির সদস্য আওয়ামী লীগের আইনজীবীরা পাল্টা বক্তব্য দেন। এসময় আইনজীবীদের মধ্যে উত্তেজনা তৈরি হয়।

বিএনপিপন্থীদের দাবি, সংবিধানের ষোড়শ সংশোধনীর অবৈধ ঘোষণা করে দেয়া রায় নিয়ে সমালোচনামূলক মন্তব্য করে সাবেক প্রধান বিচারপতি খায়রুল হক বিচার বিভাগের স্বাধীনতা ও গণতান্ত্রিক শাসন ব্যবস্থার বিরুদ্ধে অবস্থান নিয়েছেন।

বুধবার খায়রুল হক তার সংবাদ সম্মেলনে বলেন, আপিল বিভাগের রায়ে যেসব মন্তব্য করা হয়েছে, সেগুলো অপরিপক্ক। তিনি বলেন, ‘আমরা এতকাল জেনে এসেছি, দিস ইজ পিপলস রিপাবলিক অব বাংলাদেশ, কিন্তু এ রায়ের পরে মনে হচ্ছে, উই আর নো লংগার ইন দি পিপলস রিপাবলিক অব বাংলাদেশ। উই আর রাদার ইন জাজেস রিপাবলিক অব বাংলাদেশ।’

খায়রুল হক বলেন, ‘ষোড়শ সংশোধনীর রায়ের ইস্যুকে বাইপাস করে অপ্রাসঙ্গিক পর্যবেক্ষণ দেয়া হয়েছে। আপিল বিভাগের রায়টি অপরিপক্ক, পূর্বপরিকল্পিত ও অগণতান্ত্রিক। এই পর্যবেক্ষণে মানহানিকর বক্তব্য দেয়া হয়েছে। এই রায়ের মাধ্যমে জুজুর ভয় দেখানো হচ্ছে এবং সংসদ সদস্যদের হেয় করা হয়েছে।’

খায়রুল হকের এসব বক্তব্য সকালে আপিল বিভাগের নজরে আনেন বিএনপিপন্থী আইনজীবীরা। এ সময় প্রধান বিচারপতি সুরেন্দ্র কুমার সিনহা বলেন, এই রায় নিয়ে কোনো রাজনীতি করা যাবে না। তিনি বলেন, ‘আমরা বুঝেশুনে রায় দিয়েছিল। আমরা সরকার বা বিরোধী দল-কারও ট্র্যাপে পড়ব না।’

পরে সুপ্রিম কোর্ট আইনজীবী সমিতির সভাপতি জয়নুল আবেদিন সংবাদ সম্মেলন করে বলেন, ‘বিচারপতি খায়রুল হক বলেছেন, আপিল বিভাগ বিচারের বাইরে গিয়ে মন্তব্য করেছে। তবে বিচারপতি এ বি এম খায়রুল হক মুন সিনেমা হলের অধিগ্রহণ সংক্রান্ত মামলার রায় দিতে গিয়ে উদ্দেশ্যমূলক, পূর্বপরিকল্পিত ও অপ্রাসঙ্গিক ভাবে সংবিধানের পঞ্চম সংশোধনী বাতিল করেছেন। সংবিধানের ত্রয়োদশ সংশোধনীর রায়কেও বিতর্কিত করেছেন তিনি। এ কারণেই বিচারপতি খায়রুল হক ষোড়শ সংশোধনীর রায় বাতিলের পূর্বপরিকল্পনার গন্ধ পাচ্ছেন।’

বিএনপির আইনজীবী নেতা বলেন, ‘আজ আমি দলীয় বক্তব্য দিতে আসিনি, আইনজীবী সমিতির সবার পক্ষে বক্তব্য দিতে এসেছি। ষোড়শ সংশোধনী বাতিলের রায় নিয়ে খায়রুল হক যে বক্তব্য দিয়েছেন তাতে তিনি বিচার বিভাগের স্বাধীনতা ও গণতান্ত্রিক শাসন ব্যবস্থার বিরুদ্ধে অবস্থান নিয়েছেন।’

 

বিডিটুডেস /জেডএইচ /১০আগস্ট’১৭


  • 1.4K
    Shares