English Version

আজকের চাকরির খবর লাইভ খেলা দেখুন

ঘুষ বানিজ্য থামছেই না এস আই মঞ্জুরের


ঝিনাইদহ প্রতিনিধি: ঝিনাইদহে পুলিশের ঘুষ বানিজ্যের অত্যাচারে আতঙ্কে জেলার জনসাধারন। ঝিনাইদহের এই প্রকাশ্য ঘুষ বানিজ্য দেখার কি কেউ নেই ? ঝিনাইদহ সদর থানার সাসপেন্ড এস আই মঞ্জুরের প্রকাশ্য ঘুষ বানিজ্য থামছেই না। দিনের পর দিন তার দাপটে ও অত্যাচারে জেলাবাসীর জনমনে আতঙ্ক সৃষ্টি করেছে।

জানা গেছে, রবিবার (৮জানুয়ারি,১৭) বিকালে ঝিনাইদহ সদর থানার উপশহর পাড়ার বাসিন্দা ভটভটি চালক টুটুলের ছেলে বিপুল (১৬) ও মৃত আঃ রহমানের (চায়ের দোকাদার) ছেলে সাগর কে মটর সাইকেল চুরির সন্দেহে গ্রেফতার করে ঝিনাইদহ সদর থানায় নিয়ে আসে।

পরবর্তিতে এস আই মঞ্জুর ঝিনাইদহ উপশহর পাড়ার সরকার দলীয় নেতা ও সমন্বয়কারী জৈনিক রনীর সাথে যোগাযোগ করতে বলে। অসহায় সাগরের বড় ভাই সাইফুল ও বিপুলের পিতা টুটুল দ্রুত থেকেও দ্রুত রনীর সাথে কথা বললে রনী তাদেরকে ছাড়তে হলে অনেক টাকা লাগবে বলে জানিয়ে দেয়।

এদিকে সাগরের পরিবার ও বিপুলের পরিবার সাংবাদিকদের বলেন, ঝিনাইদহ সদর থানার এস আই মঞ্জুর তাদের কাছে বলেন, দুজনের ছেড়ে দেয়া হবে। তবে টাকা লাগবে এখ লাখ বলে সাফ জানিয়ে দেয়। তারা আরো বলেন, অবশেষে দেন দরবার শেষে ৩৬ হাজার টাকা ঘুষ নিয়ে সন্দেহ ভাজন আসামী দুজন সাগর ও বিপুলকে ছেড়ে দেয়া হয়েছে বলে জানান।

এ ব্যাপারে ঝিনাইদহ সদর থানার ওসি হরেন্দ্রনাথ সরকারের মুঠোফোন বন্ধের কারনে কথাবলা সম্ভব হয়নি। এ ঘটনায় এস আই মঞ্জুর সাংবাদিকদের বলেন, আমি সাসপেন্ড হয়নি শুধু নিস্ক্রিয় ছিলাম। গতকাল থেকে পুনরায় সক্রিয় হয়েছি। উপশহর পাড়া থেকে গতকাল সোমবার সন্দেহ মুলক মটরসাইকেল চুরি চক্রের দুজনকে আটক করেছি ঠিকই তবে জিজ্ঞাসাবাদের পর ছেড়ে দিয়েছি। ঘুষ বানিজ্যের সাথে আমি সম্প্রিক্ত নই।


  • 1.5K
    Shares