English Version

ডায়াবেটিস নিয়ন্ত্রণে বেল পাতা

পোস্ট টি ভালো লাগলে আপনার বন্ধুদের সাথে শেয়ার করুন

বিডিটুডেস ডেস্ক: বেলের স্বাস্থ্য উপকারিতার কথা সবারই জানা।বিশেষ করে গরমের প্রকোপ থেকে বাঁচাতে এই ফল খুবই কার্যকরী। এতে স্বাস্থ্যের জন্য উপকারী ট্যানিন, ক্যালসিয়াম, ফসফরাস, ফাইবার, প্রোটিণ এবং আয়রনের মতো পুষ্টি উপাদান রয়েছে। বেল কোষ্ঠকাঠিন্য, ডায়রিয়া ইত্যাদি রোগ সারাতে বেশ কার্যকরী। বেল ফলের মতো এর পাতা এবং শিকড় সবই উপকারী। বেল ও বেল পাতা খেলে যেসব স্বাস্থ্য উপকারিতা পাওয়া যাবে-

১. বেলে থাকা অ্যান্টি-ফাঙ্গাল, অ্যান্টি-প্যারাসাইট উপাদান হজমের জন্য বেশ উপকারী।

২. বেলের শরবৎ শরীর ঠাণ্ডা করে। প্রচণ্ড গরমে নাক থেকে রক্তপাত হলে এই ফলের শরবৎ ওষুধ হিসেবে খাওয়ানো যায়।

৩. বেল পেট ব্যাথা, গ্যাস, ডায়রিয়া এবং পেট খারাপের সমস্যা থেকেও মুক্তি দেয়। কারও এ ধরনের সমস্যা থাকলে সপ্তাহে ২ থেকে ৩ টি বেল পাতা খেলে উপকার করেন।

৪. বেল ভিটামিন সি-এর ভাল উৎস। ভিটামিন সি-এর অভাবে স্কার্ভি রোগ হয়, বেল পাতার রস খেলে এ ধরনের রোগ থেকে মুক্তি পাওয়া যায়।

৫. ভিটামিন সি-এর পরিপূরক হওয়ায় বেল শরীরের কার্যকারিতা বাড়ায়। কিডনির জন্যও বেল বেশ উপকারী।

৬. বেলে থাকা বিটা-ক্যারোটিন যকৃতকে সুস্থ রাখতে সাহায্য করে।

৭. শরীরের ইনসুলিন এবং গ্লুকোজ লেভেল নিয়ন্ত্রণ করায় বেল পাতার রস ডায়াবেটিসের জন্য উপকারী।

৮. বেল পাতার রস রক্তে কোলেস্টেরলের পরিমাণ কমায়। সেই সঙ্গে নানা রোগ প্রতিরোধ করে।

৯. মধু ও গোল মরিচের সঙ্গে বেল পাতার রস মিশিয়ে খেলে জণ্ডিস দ্রুত ভাল হয়।

১০. বেল পাতার রস উচ্চ রক্তচাপ কমাতে সাহায্য করে। বিডিটুডেস /ডি আই/ ৭ মার্চ, ২০১৯

হেলথ টিপস পেতে সাবস্ক্রাইব করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*

seven − one =