English Version

নেইমার রেফারিকে ধুয়ে দিলেন

পোস্ট টি ভালো লাগলে আপনার বন্ধুদের সাথে শেয়ার করুন

ছবি: অনলাইন

বিডিটুডেস ডেস্ক: পিএসজির বিপক্ষে বিতর্কিত পেনাল্টি দেওয়ায় রেফারিকে ধুয়ে দিলেন নেইমার। ক্রুদ্ধ ব্রাজিল তারকা আক্রমণের তূণ হিসেবে যে ভাষা ব্যবহার করেছেন, সেসবকে আসলে স্রেফ সমালোচনার বন্ধনীতে বাধলে ভুল হবে! নিজের ইনস্টাগ্রামে আপ করা এক পোস্টে পিএসজির ব্রাজিলিয়ান তারকা যা ইচ্ছে তাই ভাষায় গালিগালাজ করেছেন রেফারিকে। সরাসরি প্রশ্ন তুলেছেন রেফারিদের ফুটবল জ্ঞান নিয়েও। নেইমারের এতটা ক্রুদ্ধ হওয়ার কারণটাও স্পষ্টই। গতকাল বুধবার রাতে শেষ ষোলোর দ্বিতীয় লেগে রেফারির ওই বিতর্কিত পেনাল্টির সিদ্ধান্তেই যে কপাল পুড়েছে পিএসজির। শেষ হয়ে গেছে ফরাসি চ্যাম্পিয়নদের চ্যাম্পিয়নস লিগের শিরোপা স্বপ্ন।

ম্যাচের তখন অন্তিত মুহূর্ত। নির্ধারিত ৯০ মিনিটের পর যোগ করা সময়ের চতুর্থ মিনিটের খেলা চলছে। হয়তো আর কয়েক সেকেন্ড পরই রেফারিকে বাজাতে হবে ম্যাচ শেষের লম্বা বাঁশি। ম্যাচের স্কোরকার্ড তখন পিএসজি ১ : ২ ম্যানচেস্টার ইউনাইটেড। এই অবস্থায় ম্যাচ শেষ হয়ে কোয়ার্টার ফাইনালে উঠত নেইমারের পিএসজিই। কারণ প্রথম লেগে ম্যানচেস্টার ইউনাইটেডের মাঠ থেকে ২-০ গোলে জিতে এসেছিল পিএসজি। ফলে দুই লেগ মিলিয়ে ৩-২ অগ্রগামিতায় ফরাসি ক্লাবটিই পেয়ে যেত শেষ আটের টিকিট। পিএসজির সমর্থকেরা কোয়ার্টর ফাইনালে ওঠার আনন্দ-উৎসবে মেতে ওঠার প্রস্তুতি নিয়ে ফেলেছেন। ভিআইপি গ্যালারিতে বসে খেলা দেখা নেইমারও হয়তো মানসিক প্রস্তুতি নিয়েছিলেন উল্লাসে মেতে ওঠার জন্য।

কিন্তু ঠিক তখনই রেফারির ওই বিতর্কিত সিদ্ধান্ত। বল নিয়ে ম্যানইউর খেলোয়াড়েরা ঢুকে পড়ে পিএসজির বক্সে। হয়তো এটাই ছিল ম্যাচে ইউনাইটেডের শেষ আক্রমণ। রেফারির বিতর্কিত সিদ্ধান্তে তাতেই গুঁড়িয়ে গেছে পিএসজির স্বপ্ন। দিওগো দালতের শট পিএসজির ফরাসি ডিফেন্ডার প্রেসনেল কিমপেম্বের বাহুতে লাগে। রিপ্লেতে পরিষ্কার, হেড করার জন্য লাফিয়ে উঠেছিলেন কিমপেম্বে। হাত তার পেছনে ছিল। সুতরাং এটা ইচ্ছাকৃত হ্যান্ডবল ছিল না। কিন্তু রেফারি ভিডিও (ভার, ভিডিও অ্যাসিস্ট্যান্ট রেফারি) দেখেও দিয়ে বসেন পেনাল্টি। সেই পেনাল্টি থেকে গোল করেই বিদায়ের শঙ্কায় কম্পমান ম্যানচেস্টার ইউনাইটেডকে কোয়ার্টার ফাইনালে নিয়ে গেছেন মার্কাস রাশফোর্ড। আর কোয়ার্টার ফাইনালে ওঠার স্বপ্নে বিভোর পিএসজিকে বিদায় নিতে হয় টুর্নামেন্ট থেকে।

রেফারির এই সিদ্ধান্ত কিছুতেই মানতে পারছেন না নেইমার। ক্রুদ্ধ ব্রাজিল তারকা নিজের ইনস্টাগ্রামে রেফারিদের চৌদ্দগোষ্ঠী উদ্ধার করেছেন। ক্ষোভের প্রমাণ হিসেবে কিমপেম্বের ওই হ্যান্ডবলের একটা ছবিও পোস্ট করেছেন। তার নিচে লিখেছেন, ‘এটা কলঙ্কের। উয়েফা এমন ৪ জন মানুষকে (রেফারি, দুই সহকারী রেফারি ও ম্যাচ রেফারি) ম্যাচ পরিচালনার দায়িত্ব দিয়েছে, যারা ফুটবলের রিভিউ (ভার) সম্পর্কে কোনো কিছুই জানে না। জানে না কীভাবে স্লো মোশনে রিভিউ ব্যবহার করা হয়।’ ব্রাজিল তারকা স্পষ্ট ভাষায় জানিয়ে দিয়েছেন, এটা কিছুতেই পেনাল্টি ছিল না, ‘হাত পেছনে থাকলে কীভাবে হ্যান্ডবল হয়? এটা হ্যান্ডবল ছিল না। শেষ বাক্যে তো নেইমার রেফারিদের প্রতিতাবৃত্তি করার গালিও দিয়েছেন!

উল্লেখ্য, চোটের কারণে মাঠের বাইরে ছিটকে পড়া নেইমার এই ম্যাচটিও খেলতে পারেননি। তবে ম্যাচটি পিএসজির স্টেডিয়াম পার্স ডি প্রিন্সেসের ভিআইপি গ্যালারিতে বসেই দেখেছেন তিনি। দেখেছেন রেফারির একটি বিতর্কিত সিদ্ধান্ত কীভাবে কেড়ে নিল তাদের চ্যাম্পিয়নস লিগ শিরোপা স্বপ্ন। বিডিটুডেস /ডি আই/ ৭ মার্চ, ২০১৯

হেলথ টিপস পেতে সাবস্ক্রাইব করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*

ten − six =