১২তম ডিআরএমসি সাইন্স কার্নিভাল English Version

শ্রীপুরে তৃণমূল চাচ্ছে ‘বাঘ বাদলকে’ ভাইস চেয়ারম্যান

পোস্ট টি ভালো লাগলে আপনার বন্ধুদের সাথে শেয়ার করুন

আনোয়ার হোসেন, শ্রীপুর-গাজীপুর: শ্রীপুর উপজেলা ভাইস চেয়ারম্যান হিসেবে তৃণমূল চাচ্ছেন হারুন অর রশিদ বাদল ওরফে বাঘ বাদলকে। নির্বাচনের দুই মাস আগেই উপজেলা জোড়ে চলছে নানা আলোচনা-সমালোচনা। নির্বাচনকে সামনে রেখে শ্রীপুরের তৃণমূল মানুষের দাবি উঠেছে একজন দক্ষ,শিক্ষিত ও ত্যাগী নেতাকে ভাইস চেয়ারম্যান হিসেবে দেখার। পৌরসভার চন্নাপাড়া এলাকার জামিনা বেগম। চাকরী করেন স্থানীয় ইয়াসমিন স্পীনিং মিলে। কথা হয় তার সঙ্গে। তিনি উপজেলা নির্বাচন প্রসঙ্গে বলেন,জানি না কী হয়! তবে আমার বিশ্বাস উপজেলা নির্বাচনে ভাইস চেয়ারম্যান পদে এবার একজন শ্রমিক বান্ধন নেতাকে। যিনি জনগণের সুখ-দুঃখে পাশে থাকবেন। জামিনা বেগমের পাশে থাকা আরেক বৃদ্ধ বলে উঠেন-এবার নির্বাচনে বরমীর বাঘ বাদলে মনোনয়ন দিলে ভালো অবো। সে খুব শিক্ষিত লোক। প্রতিবেদক বাঘ বাদলের নাম শোনে অবাক হন! বলেন,আচ্ছা বাঘ বাদল আবার কে?

খোঁজ নিতে নিতে জানা গেল,বিদেশে উচ্চ শিক্ষা নিয়ে চাকরী না করে দেশের মানুষ আর রাজনীতিকে ভালোবেসে চলে আসেন দেশে। রাজনৈতিক মাঠে দলীয় বড় কোন পদ-পদবী না থাকলেও মানুষের হৃদয়ে ঠিকই স্থান করে নিয়েছেন হারুন অর রশীদ বাদল ওরফে বাঘ বাদল । আসন্ন উপজেলা নির্বাচনে শ্রীপুরের তৃণমূল মানুষ তার হয়ে চষে বেড়াচ্ছেন পুরো উপজেলায় । মানুষের দ্বারে দ্বারে গিয়ে সমর্থন আদায়ের চেষ্টা চালিয়ে যাচ্ছেন অবিরাম । বিজ্ঞান বিভাগে নটরডেম কলেজ থেকে এইচএসসি ও ভারতের মাদ্রাজ বিশ্ববিদ্যালয়ে বিবিএ করা বাদল প্রবাসে ছাত্র রাজনীতির সঙ্গে জড়িয়ে পড়েন। অবশ্য ১৯৮৭ সালে স্কুল পড়–য়া হারুন অর রশীদ বাদল নির্বাচিত হন বরমী ইউনিয়ন ছাত্রলীগের ক্রীড়া বিষয়ক সম্পাদক হিসেবে। আওয়ামী পরিবারে জন্ম নেওয়া বাদল পরবর্তীতে ইউনিয়ন যুবলীগের সভাপতির দায়িত্বও পালন করেন ।

বিএনপি জামাত সরকারের আমলে একাধিক রাজনৈতিক মামলায় নির্যাতনের শিকারও হয়েছেন তিনি। ২০০৯ সালে উপজেলা পরিষদ নির্বাচনে ভাইস চেয়াম্যান পদে বাঘ মার্কায় নির্বাচন করা ও এলাকায় অন্যায়ের বিরুদ্ধে সাহসী নেতৃত্ব দেওয়ায় মানুষ তাকে ‘বাঘ বাদল’ নামে ডাকে। ২০০৯ সালের নির্বাচনে গাজীপুর-৩ আসনের বর্তমান সাংসদ ও ততকালিন উপজেলা চেয়ারম্যান পদে নির্বাচন করা ইকবাল হোসেন সবুজের মাঠ জনপ্রিয়তা দেখে বাদল নিজেও তার হয়ে(সবুজ) মাঠে কাজ শুরু করেন। সবুজের প্রতি আনুগত্য দেখিয়ে নিজের নির্বাচনী প্রচার-প্রচারণা বন্ধ করে কর্মী-সমর্থদের নিয়ে নেমে পড়েন সবুজের প্রচারণায়। হারুন অর রশিদ বাদল বলেন,‘পদ-পদবী বড় কথা নয়। মানুষের ভালোবাসাই বড়। আর তার প্রমাণ এমপি(সবুজ) সাহেব নিজে। হাইকমান্ডে ও সাধারণ মানুষ যদি চান তাহলে আমি অবশ্যই উপজেলা নির্বাচনে ভাইস চেয়ারম্যান পদে লড়তে চাই। বিডিটুডেস/আরএ/১০ জানুয়ারি, ২০১৮

পিএলআইডি রোগে কোমর ব্যথার ব্যায়াম।

পিএলআইডি রোগে কোমর ব্যথার সহজ ব্যায়াম।।লাইক ও শেয়ার করে সাথেই থাকুন।।ডাঃ মোঃ সফিউল্যাহ প্রধানডিপিআরসি হাসপাতাল ও ডায়াগনস্টিক ল্যাব লিঃশেয়ার করে অন্যদের সাহায্য করুন। সাহায্য ও পরামর্শ : ০৯ ৬৬৬ ৭৭ ৪৪ ১১

Posted by Dr.Md.Shafiullah Prodhan on Monday, January 7, 2019

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*

4 × four =