English Version

গুগল থেকে ২ বছরে ছাঁটাই করা হয়েছে ৪৮ জন কর্মীকে শুধু যৌন হেনস্থার অভিযোগে

পোস্ট টি ভালো লাগলে আপনার বন্ধুদের সাথে শেয়ার করুন

বিডিটুডেস ডেস্ক: ‘‌মি টু’‌ নিয়ে যখন গোটা বিশ্ব তোলপাড়, একের পর এক ফাঁস হচ্ছে তাবড় তাবড় ব্যক্তিদের কেচ্ছা। তখন গুগল জানাল, তাঁরা গত দু’‌বছরে যৌন হেনস্থার অভিযোগে ৪৮ জন কর্মীকে বহিষ্কার করেছে। শুধু তাই নয়, এদের মধ্যে ১৩ জন সংস্থার উচ্চপদস্থ কর্মীও রয়েছেন। ছাড় পাননি অ্যান্ডি রুবিনও। যিনি অ্যান্ড্রয়েড অপারেটিং সিস্টেম তৈরির মূল কারিগরদের মধ্যে অন্যতম। সুদূর আমেরিকা থেকে ‘‌মি টু’‌–র ঢেউ এসে ঠেকেছে উপমহাদেশের উপকূলে। যৌন হেনস্থা নিয়ে মুখ খুলেছেন ফিল্মস্টার থেকে সমাজসেবী, বাদ যাননি রাজনৈতিক নেতানেত্রীরাও। এরকম একটা অবস্থায় গুগলের সিইও সুন্দর পিচাই একটি বিবৃতিতে জানান, গত দু’‌বছরে যৌন হেনস্থার অভিযোগে সংস্থার ৪৮ জন কর্মীকে তাঁরা বহিষ্কার করেছেন।

সম্প্রতি আন্তর্জাতিক স্তরের একটি সংবাদপত্রে প্রকাশিত হয়েছে, অ্যান্ডি রুবিনের বিরুদ্ধে যৌন হেনস্থার অভিযোগ প্রমাণিত হওয়ায় তাঁকে বহিষ্কার করেছে গুগল। কিন্তু অন্য একাধিক ক্ষেত্রে এমন অভিযোগ উঠলেও গুগল ব্যবস্থা নেয়নি। শুধু তাই নয়, অ্যান্ডি রুবিনকে বহিষ্কার করলেও ক্ষতিপূরণ হিসেবে তাকে ৯ কোটি ডলার দিয়েছে গুগল।

এই খবর প্রকাশিত হওয়ার পর গুগলের সিইও সুন্দর পিচাই বলেছেন, ‘‌যৌন হেনস্থার প্রতিটি অভিযোগই যথেষ্ট গুরুত্ব দিয়ে দেখা হয়। অভিযোগ ধামাচাপা দেওয়ার কোনও প্রশ্নই নেই। তাছাড়া এধরণের গুরুতর অভিযোগ প্রমাণিত হলে কাউকে বহিষ্কার করার সময় ক্ষতিপূরণ দেওয়া হয় না। জনমানসের কাছে সংস্থার ভাবমূর্তি ধরে রাখতে সম্প্রতি আমরা এধরনের বিষয়গুলিকে যথেষ্ট গুরুত্ব দিয়ে দেখছি। কর্মস্থানে কর্মীদের নিরাপত্তা সুনিশ্চিত করতে আমরা বদ্ধপরিকর।’‌ কর্মীদের উদ্দেশ্যে পাঠানো মেলে পিচাই লিখেছেন, ‘‌আমরা আপনাদের আশ্বাস দিচ্ছি প্রতিটা যৌন হেনস্থার অভিযোগ আমরা খতিয়ে দেখব। তদন্তও হবে।’‌ বিডিটুডেস/আরএ/২৬ অক্টোবর, ২০১৮

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*

6 + 15 =