Logo
শিরোনাম

১৫ শতাংশ ট্যাক্স দিয়ে কালো টাকা সাদা করার সুযোগ

প্রকাশিত:বৃহস্পতিবার ০৬ জুন ২০২৪ | হালনাগাদ:শনিবার ১৩ জুলাই ২০২৪ |

Image

বিডি ডিজিটাল ডেস্ক:


১৫ শতাংশ ট্যাক্স দিয়ে কালো টাকা সাদা করার সুযোগ

আগামী অর্থবছরে কালো টাকা সাদা করার সুযোগ দিচ্ছে সরকার। 


এর ফলে নাগরিকরা তাদের আয়ের উৎস সম্পর্কে কোনো প্রশ্নের সম্মুখীন না হয়েই তাদের অঘোষিত সম্পদকে বৈধ করার সুযোগ পাচ্ছেন।


প্রস্তাবিত বাজেট অনুযায়ী, দেশের প্রচলিত আইন যা-ই থাকুক না কেন, কোনো করদাতা ফ্ল্যাট, জমির পাশাপাশি নগদ অর্থসহ স্থাবর সম্পত্তির জন্য ১৫ শতাংশ কর দিলে কোনো কর্তৃপক্ষ কোনো ধরনের প্রশ্ন তুলতে পারবে না।



অর্থমন্ত্রী আবুল হাসান মাহমুদ আলী বলেছেন, ডেটা ভেরিফিকেশন সিস্টেম চালু করায় বিভিন্ন কোম্পানির অপ্রদর্শিত আয় ও সম্পদের তথ্য প্রকাশ নিয়ে আইনি জটিলতা তৈরি হয়েছে। তাছাড়া রিটার্ন দাখিলের ক্ষেত্রে করদাতাদের অজ্ঞতাসহ অনিবার্য পরিস্থিতির কারণে অর্জিত সম্পদ প্রকাশে ত্রুটি থাকতে পারে।


মন্ত্রী বলেন, এ অবস্থায় করদাতাদের আয়কর রিটার্নের এই ভুল সংশোধনের সুযোগ করে দেয়া এবং অর্থনীতির মূল ধারায় অর্থের প্রবাহ বাড়ানোর লক্ষ্যে আয়কর আইনে কর প্রণোদনার ওপর একটি ধারা সংযোজনের প্রস্তাব করছি।


আরও খবর



গাজায় রেড ক্রিসেন্টের অফিসে ইসরায়েলি হামলায় নিহত ২২

প্রকাশিত:শনিবার ২২ জুন ২০২৪ | হালনাগাদ:বুধবার ১০ জুলাই ২০২৪ |

Image



বিডি টুডে রিপোর্ট:


অবরুদ্ধ ফিলিস্তিনি ভূখণ্ডে হামলার তীব্রতা আরও বাড়িয়েছে ইসরায়েল। এরই অংশ হিসেবে গাজা উপত্যকায় গতকাল শুক্রবার (২১ জুন) রেড ক্রিসেন্টের অফিস ধ্বংস করে দিয়েছে দেশটির সেনাবাহিনী। 


আন্তর্জাতিক রেড ক্রস কমিটি (আইসিআরসি) জানিয়েছে, ওই হামলায় ২২ জন প্রাণ হারিয়েছে। খবর এএফপির।



এদিকে, লেবানন-ইসরায়েল সীমান্তে ইসরায়েলি বাহিনী ও ইরান সমর্থিত শক্তিশালী সশস্ত্র সংগঠন হিজবুল্লাহর মধ্যে গোলা বিনিময় সাম্প্রতিক সপ্তাহে আরও বেড়েছে। আর এতে আরও বড় আকারে যুদ্ধ ছড়িয়ে পড়ার আশঙ্কা করা হচ্ছে।



অন্যদিকে, দুদেশের সীমান্তে সংঘাতপূর্ণ অবস্থার যে বিস্তৃতি ঘটছে, তা মহাদুর্বিপাকের সব চিন্তাকে ছাড়িয়ে যাবে বলে সতর্ক করেছেন জাতিসংঘের মহাসচিব অ্যান্টোনিও গুতেরেস। তিনি বলেছেন, লেবাননকে অবশ্যই আরেকটি গাজায় পরিণত হতে দেওয়া যাবে না।


গাজা উপত্যকার একটি হাসপাতালে ইসরায়েলি বাহিনীর নৃশংস হামলায় ৩০ জনের মৃত্যুর পরপরই গুতেরেস এমন হুঁশিয়ারি দিলেন।



আইসিআরসি জানিয়েছে, গাজার দক্ষিণাঞ্চলে তাদের অফিসে ইসরায়েলি বাহিনীর ভারী গোলাবর্ষণে ২২ জনের মৃতদেহ এবং আহত আরও ৪৫ জনকে সংস্থাটির ফিল্ড অফিসে নেওয়া হয়েছে। আইসিআরসির গাজা অফিসের আশপাশে বেশকিছু বাস্তুহারা ফিলিস্তিনি তাঁবু খাটিয়ে বসবাস করে আসছিল।



এ প্রসঙ্গে আইসিআরসি সামাজিক যোগাযোগমাধ্যম এক্সে এক পোস্টে জানায়, মানবিক অবকাঠামোর এত কাছে গোলাবর্ষণে বেসামরিক লোকসহ সাহয্যপ্রদানকারী কর্মীদের জীবন প্রচণ্ড ঝুঁকির মুখে পড়েছে।


ফিলিস্তিনি স্বাধীনতাকামী সশস্ত্র সংগঠন হামাস নিয়ন্ত্রিত গাজার স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয় জানিয়েছে, রাফার অদূরে আইসিআরসির অফিসের কাছে ইসরায়েলি গোলাবর্ষণে ২৫ জন নিহত হয়েছে আর আহত হয়েছে আরও ৫০ জন।


হামলার বিষয়ে ইসরায়েলি প্রতিরক্ষা বিভাগ কোনো স্বীকারোক্তি না দিয়ে বলেছে, বিষয়টি তাদের পর্যবেক্ষণে রয়েছে।



আরও খবর



আজ থেকে ব‌্যাংক লেনদেন ১০-৪টা, অফিস চলবে ৬টা পর্যন্ত

প্রকাশিত:বুধবার ১৯ জুন ২০২৪ | হালনাগাদ:শুক্রবার ১২ জুলাই ২০২৪ |

Image



বিডি টুডে ডিজিটাল ডেস্ক:



আজ থেকে নতুন সময়সূচি অনুযায়ী ব্যাংকের লেনদেন ও অফিস কার্যক্রম চলবে। 


নতুন নিয়মে বুধবার (১৯ জুন) থেকে ব্যাংকগুলোর লেনদেন শুরু হবে সকাল ১০টায়, যা চলবে বিকাল ৪টা পর্যন্ত। আর ব্যাংকগুলোর অফিস খোলা থাকবে সকাল ১০টা থেকে বিকাল ৬টা পর্যন্ত। শুক্রবার ও শনিবার সাপ্তাহিক ছুটি থাকবে।



এতদিন ব্যাংক লেনদেন হ‌য়ে‌ছিল সকাল ১০টা থেকে বিকাল সাড়ে ৩টা এবং ব্যাংকগুলোর অফিস চলত সকাল ১০টা থেকে বিকাল ৫টা পর্যন্ত। সেই হিসাবে ব্যাংক লেনদেন আধা ঘণ্টা ও অফিস এক ঘণ্টা বেশি সময় চলবে।



 গত ৯ জুন বাংলাদেশ ব্যাংকের ডিপার্টমেন্ট অব অফসাইট সুপারভিশন থেকে  এ সংক্রান্ত একটি সার্কুলার জারি ক‌রা হয়।


আরও খবর



২০ বছর পর ভারতের পার্লামেন্টে বিরোধী দলের আসনে গান্ধী পরিবার

প্রকাশিত:বৃহস্পতিবার ২৭ জুন ২০২৪ | হালনাগাদ:শুক্রবার ১২ জুলাই ২০২৪ |

Image




বিডি টুডেস  ডিজিটাল ডেস্ক:



ভারতের ১৮তম লোকসভায় বিরোধী দলনেতার আসনে বসলেন কংগ্রেসের এমপি রাহুল গান্ধী। এর মাধ্যমে ২০ বছর পর গান্ধী পরিবারের তৃতীয় সদস্য হিসেবে বিরোধী দলনেতা হলেন রাহুল। 



সর্বশেষ রাহুলের মা সোনিয়া গান্ধী বিরোধীদলীয় নেতা হয়েছিলেন লোকসভায়। তিনি ১৯৯৯ থেকে ২০০৪ সাল পর্যন্ত বিরোধী দলনেতা ছিলেন। আর রাহুলের বাবা রাজীব গান্ধী বিরোধীদলীয় নেতা ছিলেন ১৯৮৯ থেকে ১৯৯০ পর্যন্ত।



গত ৮ জুন দিল্লিতে কংগ্রেস ওয়ার্কিং কমিটির বর্ধিত বৈঠকে রাহুলকে লোকসভার বিরোধী দলনেতা করার প্রস্তাব গৃহীত হয়েছিল। এরপর বিষয়টি রাহুলের বিবেচনার ওপর ছেড়ে দেওয়া হয়। 



গত মঙ্গলবার রাতে দিল্লিতে বিজেপি-বিরোধী জোট ‘ইন্ডিয়া’র বৈঠকে এ বিষয়ে সর্বসম্মত সিদ্ধান্ত হয়। এআইসিসির সাধারণ সম্পাদক কে সি বেণুগোপাল বলেন, কংগ্রেস সংসদীয় দলের নেত্রী সোনিয়া গান্ধী লোকসভার প্রোটেম স্পিকারকে চিঠি লিখে জানিয়েছেন, রাহুল গান্ধীকে বিরোধী দলনেতা পদে মনোনীত করা হয়েছে।



২০১৪ সালে ৪৪ এবং ২০১৯-এ ৫২টি আসনে জেতা কংগ্রেস এবার লোকসভা নির্বাচনে ৯৯টি আসন জিতে প্রধান বিরোধী দলের মর্যাদা পুনরুদ্ধার করেছে। এর মাধ্যমে এক দশক পরে লোকসভায় ফিরেছে বিরোধী দলনেতার পদ।


এবারের লোকসভা নির্বাচনে কেরালার ওয়েনাড় এবং উত্তর প্রদেশের রায়বরেলি দুটি আসন থেকেই সাড়ে তিন লাখেরও বেশি ব্যবধানে জয়ী হয়েছেন রাহুল। এই পরিস্থিতিতে তাকে বিরোধী দলনেতা করার জন্য কংগ্রেসের অন্দরে জোরালো দাবি উঠেছিল।



বিরোধীদলীয় নেতা হিসেবে গতকালই নির্বাচিত স্পিকারকে শুভেচ্ছা জানান রাহুল গান্ধী। তিনি বলেন, ‘আপনার সফল নির্বাচনের জন্য আপনাকে অভিনন্দন জানাতে চাই। এই হাউজটি ভারতের জনগণের কণ্ঠস্বরকে প্রতিনিধিত্ব করে এবং আপনি সেই কণ্ঠের চূড়ান্ত বিচারক।



 সরকারের রাজনৈতিক ক্ষমতা আছে কিন্তু বিরোধী দলও ভারতের জনগণের কণ্ঠস্বরকে প্রতিনিধিত্ব করে। এবং এবার, বিরোধীদল গতবারের চেয়ে বেশি শক্তিশালী। বিরোধীরা আপনার কাজে সাহায্য করতে চাইবে। এই হাউজে বিরোধীদের কণ্ঠস্বরকে প্রতিনিধিত্ব করার অনুমতি দেওয়া খুবই গুরুত্বপূর্ণ। 



আমরা নিশ্চিত যে, বিরোধীদের কথা বলার অনুমতি দিয়ে, ভারতের জনগণের প্রতিনিধিত্ব করার অনুমতি দিয়ে, আপনি ভারতের সংবিধান রক্ষায় আপনার দায়িত্ব পালন করবেন।’


আরও খবর



প্রধানমন্ত্রীর ভারত সফর অত্যন্ত চমৎকার হয়েছে : পররাষ্ট্রমন্ত্রী

প্রকাশিত:রবিবার ২৩ জুন ২০২৪ | হালনাগাদ:শনিবার ১৩ জুলাই ২০২৪ |

Image



বিডি টুডেস রিপোর্ট:


পররাষ্ট্রমন্ত্রী ড. হাছান মাহমুদ বলেছেন, প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার ভারত সফর অত্যন্ত চমৎকার, ফলপ্রসূ ও আন্তরিকতাপূর্ণ হয়েছে। 


আজ রোববার (২৩ জুন) পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ে আয়োজিত এক সংবাদ সম্মেলনে এ কথা বলেন তিনি।



আওয়ামী লীগের ৭৫তম প্রতিষ্ঠাবার্ষিকী উপলক্ষে হাছান মাহমুদ বলেন, জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানকে রাষ্ট্রপতি করে গঠিত আওয়ামী লীগ সরকারের অধীনেই ১৯৭১ সালে মহান মুক্তিযুদ্ধ পরিচালিত হয়েছিল এবং সব সেক্টর কমান্ডাররা ও জিয়াউর রহমান ৪০০ টাকা বেতনের কর্মচারি ছিলেন।



 তিনি বলেন, বাংলাদেশ আজ নিম্ন আয় থেকে মধ্যম আয়ের দেশে উন্নীত হয়েছে। মিঠাপানির মাছ উৎপাদনে দ্বিতীয়, ধান ও শাক-সবজি উৎপাদনে তৃতীয় স্থানসহ ১৪টি কৃষিপণ্য উৎপাদনে দেশ আজ বিশ্বের শীর্ষ ১০ দেশের অন্যতম। 



পররাষ্ট্রমন্ত্রী আক্ষেপ করে বলেন, ‘স্বাধীনতার অর্ধশতাব্দী পরেও আওয়ামী লীগকে এখনও দেশবিরোধী, স্বাধীনতাবিরোধী, সাম্প্রদায়িক অপশক্তির মোকাবিলা করতে হয়।


 বিএনপি যদি এ সব অপশক্তির তোষণ না করত,  তাহলে দেশ আরও বহুদূর এগিয়ে যেত।


আরও খবর



ট্রেনে ঝুঁকি নিয়ে বাড়ি ফিরছে যাত্রীরা

প্রকাশিত:শনিবার ১৫ জুন ২০২৪ | হালনাগাদ:শনিবার ১৩ জুলাই ২০২৪ |

Image

শনিবার সকাল ১০টা ১৬ মিনিটে ঢাকার কমলাপুর রেলওয়ে স্টেশন থেকে ছেড়ে যায় পঞ্চগড়গামী একতা এক্সপ্রেস। ট্রেনটি ছেড়ে যাওয়ার সময় ছিল যাত্রীদের উপচে পড়া ভিড়। ট্রেনের দরজা দিয়ে প্রবেশ করাও যেন এক যুদ্ধ। এই যুদ্ধকে পাশ কাটিয়ে তাই অনেকে প্রবেশ করেন জানালা দিয়ে। শেষ পর্যন্ত দরজায় যাত্রী ঝুলিয়ে নিয়েই স্টেশন ত্যাগ করে একতা এক্সপ্রেস।

ঢাকা রেলওয়ে স্টেশনে দেখা যায় ঈদ যাত্রার এই চিত্র। নাড়ির টানে বাড়ি ফেরা মানুষেরা দরজায় ঝুলেই রওনা হয়েছেন নিজ গন্তব্যে।

এসময় কথা হয় একতা এক্সপ্রেসের যাত্রী আল আমিনের সঙ্গে। তিনি বলেন, ঈদ আসছে, বাড়ি তো যেতেই হবে। আমি সিটে বসেই যেতে পারছি, অনেকে দাঁড়িয়েই যাচ্ছে। আসলে সবাই নিজের বাড়ি যাওয়া জন্য অপেক্ষা করছিলেন। তাই দাঁড়িয়ে বা বসে যেভাবেই হোক বাড়ি যাওয়াটাই তাদের কাছে গুরুত্বপূর্ণ।

আরেক যাত্রী মো. আনোয়ার হোসেনের সঙ্গে কথা ট্রেন ছাড়ার কিছুক্ষণ আগেই। তিনি বলেন, আমি স্ট্যান্ডিং টিকিট কেটেছিলাম। তাই দাঁড়িয়েই যেতে হবে। কিন্তু কথা হচ্ছে যে পরিমাণ মানুষ তাতে দাঁড়ানোর জায়গা পেলেই হলো।

পঞ্চগড়গামী একতা এক্সপ্রেস (৭০৫) ট্রেনটি ঢাকা স্টেশন থেকে ছেড়ে যাওয়ার নির্ধারিত সময় ছিল ১০টা ১৫ মিনিটে। কোনও বিলম্ব ছাড়াই নির্ধারিত সময়েই ট্রেনটি ঢাকা ত্যাগ করে।

ঢাকা রেলওয়ে স্টেশনের স্টেশন ব্যবস্থাপক মোহাম্মদ মাসুদ সারওয়ার বলেন, সকাল থেকে ঢাকা স্টেশন থেকে সবগুলো ট্রেনই নির্ধারিত সময়ে ছেড়ে যায়। কোনও বিলম্ব ছাড়াই।

উল্লেখ্য, ঈদুল আজহা উপলক্ষে যাত্রীদের চাহিদা বিবেচনায় ট্রেনগুলোতে অতিরিক্ত ১৬২টি যাত্রীবাহী কোচ যুক্ত করার কথা জানায় বাংলাদেশ রেলওয়ে। ট্রেন ছাড়ার ১২ ঘণ্টা আগে এসব কোচের টিকিট অনলাইনে কেনা যাচ্ছে। এছাড়া অন্য ট্রেনগুলোতে মোট আসনের ২৫ শতাংশ স্ট্যান্ডিং টিকিট স্টেশন থেকে ছাড়া হচ্ছে ট্রেন যাত্রা শুরুর আগে আগে।এর বাইরে বুধবার (১২ জুন) থেকে ১০ জোড়া (২০টি) ঈদ স্পেশাল ট্রেন চলাচল শুরু করছে। ঈদযাত্রার ভিন্ন ভিন্ন দিনে চলাচল করবে এসব ট্রেন।


আরও খবর