Logo
শিরোনাম

বিধ্বস্ত লিথুনিয়া; তুরস্কের ৬ গোল

প্রকাশিত:বুধবার ০৮ জুন ২০২২ | হালনাগাদ:বুধবার ১০ আগস্ট ২০২২ |
Image

উয়েফা নেশনস লিগে মঙ্গলবার রাতে ‘সি’ লিগের গ্রুপ ওয়ানের ম্যাচে লিথুনিয়ার মাঠ জালগিরিস স্টেডিয়ামে ৬-০ গোলের বড় ব্যবধানে জিতেছে তুরস্ক। দুটি করে গোল করেন ডুগোকান সিনিক আর সের্দার দারসুন। 

এ নিয়ে টানা দ্বিতীয় ম্যাচে বড় জয় তুলে নিলো তুরস্ক। প্রথম ম্যাচে ফারো আইল্যান্ডকে ৪-০ গোলে হারিয়েছিল তারা।

একতরফা ম্যাচে মোট ২৪টি শট নেয় তুরস্ক, যার ১৪টি ছিল লক্ষ্যে। অন্যদিকে আধ ডজন গোল হজম করা লিথুনিয়া ৮ শট নিয়ে একটিও লক্ষ্যে রাখতে পারেনি।

ম্যাচ শুরু হতে না হতেই উৎসব তুর্কি শিবিরে। দ্বিতীয় মিনিটে দলকে এগিয়ে দেন সিনিক। ১৪ মিনিটের মাথায় তিনিই ব্যবধান দ্বিগুণ করেন। ২-০ গোলে এগিয়ে থেকে বিরতিতে যায় তুরস্ক। দ্বিতীয়ার্ধে আরও ভয়ংকর হয়ে উঠে তারা। ৫৬ মিনিটে পেনাল্টি থেকে গোল করেন দারসুন। ৮১ মিনিটে তিনি পান নিজের দ্বিতীয় গোল।

শেষ ৯ মিনিটে আরও তিন গোল করে তুরস্ক। ৮৯ মিনিটে ইউনুস আকগুন আর ৯০ মিনিটে হালিল দেরভিসুগলো গোল করলে ৬-০ ব্যবধানের জয় নিশ্চিত হয় তাদের।



আরও খবর

এশিয়া কাপের দল ঘোষণা ভারতের

মঙ্গলবার ০৯ আগস্ট ২০২২




মাকামে ইব্রাহিম

প্রকাশিত:শুক্রবার ০৫ আগস্ট ২০২২ | হালনাগাদ:বুধবার ১০ আগস্ট ২০২২ |
Image

ফেরদৌস ফয়সাল, কলাম লেখক ঃ

কাবা শরিফের পাশেই চারদিকে লোহার বেষ্টনীর ভেতর একটি ক্রিস্টালের বাক্সে আছে বর্গাকৃতির একটি পাথর। পাথরটির দৈর্ঘ্য, প্রস্থ ও উচ্চতা সমান, প্রায় এক হাত। এটিই মাকামে ইব্রাহিম। মাকাম শব্দের একটি অর্থ হচ্ছে দাঁড়ানোর স্থান। অর্থাৎ হজরত ইব্রাহিম (আ.)-এর দাঁড়ানোর স্থান। এই পাথরে দাঁড়িয়ে তিনি ঠিক কী কাজ করতেন, তা নিয়ে মতভেদ আছে। সবচেয়ে নির্ভরযোগ্য মত হলো, কাবা শরিফের দেয়ালের উঁচু অংশ নির্মাণের সময় তিনি এই পাথরে দাঁড়িয়ে কাজ করতেন। পাথরের মাঝখানে একজোড়া পায়ের ছাপ আছে। ধর্মপ্রাণ মুসলমানেরা বিশ্বাস করেন, হজরত ইব্রাহিম (আ.)-এর মুজেজার কারণে শক্ত পাথরটি ভিজে তাতে তাঁর পায়ের দাগ বসে যায়। চার হাজার বছরের বেশি সময় পরও মাকামে ইব্রাহিমে সেই পায়ের চিহ্ন অপরিবর্তিত রয়েছে।

হজরত উমর (রা.)-এর সময় পাথরটিকে সরিয়ে বর্তমান জায়গায় বসানো হয়। মাকামে ইব্রাহিমের কাছে বা ঘেঁষে অনেক মুসল্লি নামাজ পড়েন, অনবরত চলে তাওয়াফ।

পবিত্র কাবাঘরের তাওয়াফ শেষে মাকামে ইবরাহিমের পেছনে দাঁড়িয়ে দুই রাকাত নামাজ পড়তে হয়। তবে জায়গা না পেলে কাবা চত্বরের অন্য কোথাও আদায় করলে নামাজ হয়ে যায়।


আরও খবর

আজ পবিত্র আশুরা

মঙ্গলবার ০৯ আগস্ট ২০২২

নতুন শিক্ষাক্রম সম্ভাবনাময় !

শুক্রবার ০৫ আগস্ট ২০২২




রাজধানীর বনানীতে বাস উল্টে পথচারী নিহত

প্রকাশিত:বুধবার ১৩ জুলাই ২০২২ | হালনাগাদ:মঙ্গলবার ০৯ আগস্ট ২০২২ |
Image

রাজধানীর বনানী কবরস্থান সংলগ্ন ২৩ নম্বর রোডের উল্টোপাশে ঢাকা-ময়মনসিংহ সড়কে যাত্রীবাহী বাস উল্টে এক পথচারী নিহত হয়েছেন।

বুধবার (১৩ জুলাই) ভোর সাড়ে ৫টার দিকে এ ঘটনা ঘটে বলে জানিয়েছে ট্রাফিক পুলিশ।

প্রত্যক্ষদর্শীরা বলছেন, বাসটি খুবই বেপরোয়া গতিতে চলছিল।

নিহত পথচারীর নাম রঞ্জু শেখ (৩৫)। তিনি একটি ভবনের সিকিউরিটি গার্ড হিসেবে চাকরি করতেন। তার বাড়ি রাজবাড়ীতে।

ঘাতক বাসটি জব্দ করা হলেও পালিয়েছেন চালক। বাসটিতে কতজন যাত্রী ছিলেন তা জানা সম্ভব হয়নি।

গুলশান ট্রাফিক জোনের সহকারী পুলিশ কমিশনার মো. মোস্তাফিজুর রহমান জানান, ট্রাফিক বিভাগের সদস্যদের ডিউটি শুরু হয়েছিল সকাল ৬টায়। কিন্তু তার আগে ঘটনাটি ঘটেছে। আমরা প্রত্যক্ষদর্শীদের মাধ্যমে জানতে পেরেছি ঘটনাটি আনুমানিক ভোর সাড়ে ৫টার দিকে ঘটেছে।

বনানী থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) নূরে আজম মিয়া বলেন, নিহত রঞ্জু শেখের মরদেহ উদ্ধার করে সোহরাওয়ার্দী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের মর্গে পাঠানো হয়েছে।

ঘটনার পর চালক-হেলপার বা অন্য কোনো যাত্রীকে ঘটনাস্থলে দেখা যায়নি। এ ঘটনায় আইনানুগ পদক্ষেপ নেওয়া হচ্ছে।


আরও খবর

দল গোছানোর কাজে গতি আনছে আ.লীগ

বুধবার ০৩ আগস্ট ২০২২




পঞ্চগড়ের আটোয়ারীতে বাবার শরীরের চাপায় শিশু সন্তানের মৃত্যু

প্রকাশিত:সোমবার ১১ জুলাই ২০২২ | হালনাগাদ:মঙ্গলবার ০৯ আগস্ট ২০২২ |
Image

রফিকুল ইসলাম পঞ্চগড় ঃ

পঞ্চগড়ের আটোয়ারী উপজেলায় ঘুমানোর সময়ে বাবার শরীরের চাপায় সমাপ্তি হাজদা নামে (৩) মাস বয়সী এক শিশুর মৃত্যু হয়েছে। রোববার (১০ জুলাই) গভির রাতে জেলার আটোয়ারী উপজেলার বলরামপুর ইউনিয়নের দোহসুর আদিবাসী পল্লিতে এ দূর্ঘটনাটি ঘটে। জানা যায়, নিহত শিশু সমাপ্তি হাজদা একই এলাকার শনিরাম হাজদার মেয়ে। পুলিশ ও স্থানীয় সূত্রে জানা যায়, রোববার রাতে শিশুটিকে নিয়ে তার মা পাটি বিছিয়ে বিছানার নিচে ফ্লোরে ঘুমাচ্ছিলো। এক সময় শিশুটির বাবা শনিরাম বাড়িতে এসে বিছানায় ঘুমাতে গেলে ঘুমের ঘোরে নিচে থাকা শিশুটির উপর পড়ে যায়। এতে শনিরামের শরীরের চাপায় ঘটনাস্থলে শিশুটি মারা যায়। আজ সোমবার (১১ জুলাই) সকালে খবর পেয়ে ঘটনাস্থলে গিয়ে শিশুটির মরদেহের প্রাখমিক সুরতহাল শেষে পরিবারের কাছে হস্তান্তর করে পুলিশ। আটোয়ারী থানার এসআই শাহিন আল মামুন বলেন, পারিবারিক ও স্থানীয় ভাবে জানা যায় বাবা শনিরাম নেশাগ্রস্ত ছিলো। মাঝে মধ্যে নেশা করে বাড়িতে আসতো। আটোয়ারী থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) সোহেল রানা নিহতের বিষয়টি নিশ্চিত করে বলেন, সকালে খবর পেয়ে ঘটনাস্থলে পুলিশ পাঠানো হয়। ওই শিশুর পরিবারের পক্ষ থেকে কোন অভিযোগ না থাকায় এ ঘটনায় থানায় একটি ইউডি মামলা দায়ের করা হয়েছে।


আরও খবর



শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান সপ্তাহে ৩ দিন বন্ধের সিদ্ধান্ত আসছে

প্রকাশিত:বুধবার ২৭ জুলাই ২০২২ | হালনাগাদ:রবিবার ০৭ আগস্ট ২০২২ |
Image

মইনুল ইসলাম মিতুল : জ্বালানি সাশ্রয়ে নানা পদক্ষেপের অংশ হিসেবে শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান সপ্তাহে তিন দিন বন্ধ রাখার চিন্তা-ভাবনা করছে সরকার। সংশ্লিষ্টরা মনে করেন, শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান সপ্তাহে তিন দিন বন্ধ রাখলে গাড়িতে জ্বালানি তেলের ব্যবহারও কম হবে। অন্য দিকে শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান বন্ধের কারণে সুনির্দিষ্ট পরিমাণ বিদ্যুতের সাশ্রয় হবে। এছাড়া শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানে শিক্ষার্থীদের আসা-যাওয়ায় ব্যক্তিগত গাড়ির সর্বোচ্চ ব্যবহারও নিশ্চিত করতে চায় সরকার।

কোভিডের কারণে দীর্ঘ সময় শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান বন্ধ ছিল। এর মধ্যে আবার বন্ধ রাখলে শিক্ষার্থীদের পড়াশোনার ক্ষতি হতে পারে কি না- এমন প্রশ্নের জবাবে জ্বালানি বিভাগের এক কর্মকর্তা বলেন, ‘আমরা শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান সপ্তাহে তিন দিন বন্ধের এ সুপারিশ করব। বাকিটা শিক্ষা মন্ত্রণালয়ের সিদ্ধান্তের বিষয়। তারা চাইলে এটা করতে পারে। তিনি আরো বলেন, ‘সপ্তাহে তিন দিন বাসায় থেকেও শিক্ষার্থীরা পড়াশোনা করতে পারবে। শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান সপ্তাহে তিন দিন বন্ধ রাখলে অনেক বিদ্যুৎ সাশ্রয় হবে।

জ্বালানি সাশ্রয়ে আরো কিছু পদক্ষেপ নিতে যাচ্ছে সরকার। এতে ‘কার হলিডে’ করার মতো পদক্ষেপও আছে। বিদেশের আদলে কার হলিডে দেওয়া অর্থাৎ সপ্তাহে এক দিন গাড়ি বন্ধ রাখা।

এছাড়া রাজধানীসহ সারা দেশে বড় বড় শপিংমল পালাক্রমে (বেঁধে দেওয়া সময় অনুযায়ী) বন্ধ রাখার কথাও চিন্তা করছে সরকার। বর্তমানে রাত ৮টা পর্যন্ত মার্কেট খোলা রাখার অনুমতি দিয়েছে সরকার।

এদিকে অকটেন-পেট্রলের দাম আবার বাড়ানোর কথাও ভাবা হচ্ছে। আগামী সপ্তাহেই এ ব্যাপারে সরকারি ঘোষণা আসতে পারে। এর মাধ্যমে জ্বালানি সাশ্রয়ের পাশাপাশি ভর্তুকি কমিয়ে আনতে চায় সরকার।

জ্বালানি বিভাগ সূত্রে জানা যায়, তেলভিত্তিক বিদ্যুৎকেন্দ্রগুলো বন্ধ রাখার মাধ্যমে সরকারের প্রত্যাশিত সাশ্রয় হচ্ছে না। বিপিসি থেকে জ্বালানি বিভাগকে জানানো হয়েছে, তেলভিত্তিক বিদ্যুৎকেন্দ্রগুলো সাশ্রয়ের মাধ্যমে মোট জ্বালানি তেল ব্যবহারের মাত্র ৭-৮ শতাংশ জ্বালানি সাশ্রয় হয়। দেশে যে পরিমাণ জ্বালানি তেল ব্যবহার হয়, বিশেষ করে ডিজেল ব্যবহার হয়, তার ৯০ শতাংশই ব্যবহার হয় পরিবহন খাতে। ফলে সরকার পরিবহন খাতে ব্যবহৃত জ্বালানি তেল কমিয়ে আনার জন্য বেশ কিছু কঠিন পদক্ষেপ গ্রহণ করতে যাচ্ছে।

জ্বালানি বিভাগের এক কর্মকর্তা বলেন, সরকার আপাতত অকটেন এবং পেট্রলের দাম একটু বেশি পরিমাণে বাড়াতে চায়। অর্থাৎ বাংলাদেশ পেট্রোলিয়াম করপোরেশন (বিপিসি) বিদেশ থেকে যে দামে অকটেন আমদানি করে, দেশের বাজারে তার কাছাকাছি মূল্য নির্ধারণ করতে চায় সরকার। এতে ভর্তুকির পরিমাণ কমে আসবে।

তিনি বলেন, অকটেন মূলত ধনীরা ব্যবহার করে। ব্যক্তিগত গাড়ি, মোটরসাইকেলসহ দামি গাড়িতেও অকটেন ব্যবহার হয়। ফলে অকটেন এবং পেট্রলের দাম বাড়ানো হতে পারে আগামী এক সপ্তাহের মধ্যে। এছাড়া সরকারের বিভিন্ন মন্ত্রণালয় ও বিভাগের গাড়িতে ২০ শতাংশ জ্বালানির ব্যবহার কমানোর নির্দেশ দেওয়া হয়েছে। তিনি বলেন, ডিজেল যেহেতু কৃষি সেচ কাজ এবং সাধারণ মানুষ বেশি ব্যবহার করে, ফলে আপাতত ডিজেলের দাম নাও বাড়তে পারে। তবে ডিজেলের দামও বাড়বে আরো কিছুদিন আন্তর্জাতিক বাজার বিশ্লেষণের পর।

বিপিসি চেয়ারম্যান বলেন, ‘মোট কথা যেকোনোভাবেই হোক জ্বালানি সাশ্রয় করতে হবে। মানুষের কাছে আমার আহ্বান থাকবে নিজ থেকে যতটা পারেন সাশ্রয়ী হোন। এখন একটা সংকটকালীন সময়। সারা বিশ্বে সেটার প্রভাব পড়ছে। বাংলাদেশেও নেতিবাচক প্রভাব পড়েছে। ফলে আমরা সবাই যদি সাশ্রয়ী হই তবে লক্ষ্যমাত্রা অনুযায়ী জ্বালানি তেলের ব্যবহার কমিয়ে আনতে পারব।


আরও খবর



বিশ্বনাথে দুর্যোগ-দুঃসময়ে

মানবিক দায়বদ্ধতা ও উলামায়ে কেরামের অবদান শীর্ষক সেমিনার

প্রকাশিত:মঙ্গলবার ১৯ জুলাই ২০২২ | হালনাগাদ:মঙ্গলবার ০৯ আগস্ট ২০২২ |
Image

স্টাফ রিপোর্টার:

বিশ্বনাথে দুর্যোগ-দুঃসময়ে মানবিক দায়বদ্ধতা ও উলামায়ে কেরামের অবদান শীর্ষক সেমিনার

বিশ্বনাথ প্রেসক্লাব কার্যালয়ে সোমবার (১৮ জুলাই) মোহাদ্দিসে গাজীনগরী ফাউন্ডেশন বিশ্বনাথ উপজেলার উদ্যোগে” দুর্যোগ দু:সময়ে মানবিক দায়বদ্ধতা ও উলামায়ে কেরামের অবদান, প্রসঙ্গ ‘বন্যা’ ২০২২ উপলক্ষে সেমিনার অনুষ্ঠিত হয়েছে। সেমিনারে বক্তারা বলেছেন, মানুষ সৃষ্টির শ্রেষ্ট জীব। তাই জীবন ও জগৎতের কোন পরিস্থিতিকেই এড়িয়ে যেতে পারে না। সু-সময়য়ে যেমন পরস্পরের শান্তি ও সৌহার্দ বন্ঠন করেন তেমনি দু:সময়েও সকলেই সকলের হয়ে যায়। এটাই মানবিক ধর্ম। মানুষ এ ব্যাপারে দায়বদ্ধ।বিশ্বনবী হযরত মেহাম্মদ (সা.) বলেছেন, তেমারা জৎতবাসীর প্রতি সদয় হও। আসমানের মানিক আল্লাহ তায়াতা তোমাদের প্রতি সদয় হবেন।

২০২২ সালের বন্যায় একটি মানবিক বাংলাদেশের অন্যন্য দৃষ্টান্ত স্থাপন করেছেন এদেশের মানবিক ব্যক্তিবর্গ। বানভাসী মানুষের পাশে দলমত, ধর্ম, বর্ণ নির্বিশেষে সকল শ্রেণী পেশার মানুষ এগিয়ে এসেছেন। এক্ষেত্রে দেশের সর্বজন শ্রদ্ধেয় আলেম-উলামারা বিরল দৃষ্ঠান্ত স্থাপন করেছেন।

এ ভয়াবহ বন্যা শুধু প্রাকৃতিক দুর্যোগ নয়, মানবসৃষ্ঠ দুর্যোগ ও বলা যায়। নদী মাতৃক বাংলাদেশের চিরচেনা রুপ বদলে ফেলেছি আমরাই। খাল-বিল-নদী-নালা-জলাশয় ভরাট করে, দখল করে বাসা-বাড়ী বানিয়েছি। ফলে পানির প্রবাহ ও গতিধারা বাধাঁগ্রস্থ হয়েছে। নদ-নদীর তলদেশ পলি মাটিতে ভরে গেছে।

নদীর নাব্যতা নষ্ট হয়ে পানি ধারণ ক্ষমতা কমে গিয়ে বিপদসীমা অতিত্রম করছে। এমতাবস্থায় নদী মাতৃক বাংলাদেশে আসল চেহারায় ফিরে যেতে হলে নদ-নদী খনন অপরিহার্য হয়ে উঠেছে। বক্তারা সরকারকে এবিষয়ে তাৎক্ষনিকভাবে প্রদক্ষেপ না নিলে এভাবে প্রতি বছরই বন্যায় ডুবে যাওয়ার আশংকা করেছেন।

মোহাদ্দিসে গাজীনগরী ফাউন্ডেশন বাংলাদেশ বিশ্বনাথ উপজেলা সভাপতি মাওলানা জিয়াউল হকের সভাপতিত্বে ও সাধারণ সম্পাদক মাওলানা ইমরান আহমদের সঞ্চলনায় প্রধান অতিথির বক্তব্য রাখেন জামিয়া মাদানিয়া মাদ্রসার মুহতামিম ও মাসিক আল-ফারুক সম্পাদক মাওলানা শিব্বির আহমদ।

প্রধান আলোচক হিসেবে আলোচনা করেন শাহজালাল বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ের পদার্থ বিজ্ঞানের প্রফেসর ডা. মো. শাহ আলম। প্রবদ্ধ উপস্থাপনা করেন বিশ্বনাথ সরকারি কলেজের পদার্থ বিজ্ঞান বিভাগের প্রভাষক মো. রোকনুজ্জামান।


আরও খবর