Logo
শিরোনাম
কুমিল্লার মনোহরগঞ্জের বিপুলাসার ইউনিয়নের

চেয়ারম্যান ইকবালের বিরুদ্ধে প্রকল্প বাস্তবায়ন কর্মকর্তার জিডি

প্রকাশিত:বৃহস্পতিবার ২৩ জুন ২০২২ | হালনাগাদ:শনিবার ০২ জুলাই 2০২2 |
Image

কুমিল্লা জেলা  প্রতিনিধি ঃ

কুমিল্লার মনোহরগঞ্জের বিপুলাসার ইউনিয়নের চেয়ারম্যান ইকবাল মাহমুদের বিরুদ্ধে থানায় জিডি করেছেন উপজেলা প্রকল্প বাস্তবায়ন কর্মকর্তা (পিআইও) মোঃ ওয়াসিম। সরেজমিন পরিদর্শনকালে ইউনিয়নের সাইকচাইল এলাকায় রাস্তা তৈরিতে নিম্ন মানের সামগ্রী ব্যবহারে মিস্ত্রীকে নিষেধ করায় করায় এ কর্মকর্তাকে দুর্ব্যবহারসহ ঐ এলাকায় ভবিষ্যতে না যাওয়ার হুমকি দেন চেয়ারম্যান। এ ঘটনায় জিডি করেন পিআইও।

জিডি ও স্থানীয় সূত্রে জানা যায়, ইতিপূর্বে নিষেধ করার পরও রাস্তা নির্মানে নিম্ন মানের সামগ্রী ব্যবহার করা হচ্ছিল। গত ৮ জুন পিআইও মোঃ ওয়াসিম এবং উপ-সহকারী প্রকৌশলী সুলতান মাহমুদ 'সাইকচাইল দক্ষিণ পাড়া রাস্তা থেকে লোকমানের বাড়ি পর্যন্ত ৫০০ মিটার এইচবিবি করন' প্রকল্প পরিদর্শনে যান। এ সময় রাস্তায় নিম্নমানের সামগ্রী ব্যবহারের বিষয়ে মিস্ত্রীকে জিজ্ঞেস করলে মিস্ত্রী কোন সদুত্তর দিতে পারেনি। তখন সিডিউল অনুযায়ী গুনগত মানসম্পন্ন মালামাল ব্যবহারের নির্দেশ দেন পিআইও। কিছুক্ষণ পর ইউপি চেয়ারম্যান ইকবাল মাহমুদ ঘটনাস্থলে গিয়ে কর্মকর্তাদের সাথে দুর্ব্যবহার করেন এবং ভবিষ্যতে ঐ ইউনিয়নে না যাওয়ার হুমকি দেন। আর গেলে অপ্রীতিকর ঘটনারও হুমকি-ধমকি দেন। খারাপ আচরণের কারণ জানতে চাইলে চেয়ারম্যান তার লোকজন নিয়ে দুই কর্মকর্তাকে মারধর করার জন্য এগিয়ে আসে। অবস্থা বেগতিক দেখে কর্মকর্তারা ঘটনাস্থল ত্যাগ করেন।

এ ব্যাপারে বিপুলাসার ইউনিয়নের চেয়ারম্যান ইকবাল মাহমুদ জানান, এটা ভুল বোঝাবুঝি ছিল। কর্মকর্তাদেরকে চিনতে না পারায় সাইডের লোকজনের সাথে তাদের কথা কাটাকাটি হয়। পরে উপজেলা নেতৃবৃন্দের মধ্যস্থতায় ঘটনাটি মিমাংসা হয়েছে।

এ বিষয়ে মনোহরগঞ্জ থানার ওসি শফিউল ইসলাম জানান, নাথেরপেটুয়া তদন্ত কেন্দ্রের আইসি জিডি'টি তদন্ত করছেন।

নাথেরপেটুয়া তদন্ত কেন্দ্রের ইনচার্জ জাফর ইকবাল জানান, ঘটনাটি মিমাংসার জন্য ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তারা দায়িত্ব নিয়েছেন।

কুমিল্লার সিনিয়র সহকারী পুলিশ সুপার ( লাকসাম, মনোহরগঞ্জ সার্কেল) মোঃ মুহিতুল ইসলাম জানান, উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা ও উপজেলা ভাইস চেয়ারম্যান ঘটনাটি মিমাংসা করেছেন। এটি ভুল বোঝাবুঝি ছিল।


আরও খবর



শ্রীনগর উপজেলা মহিলা ভাইস চেয়ারম্যানকে হাত পা ভেঙ্গে দেওয়ার হুমকি

প্রকাশিত:শুক্রবার ১৭ জুন ২০২২ | হালনাগাদ:শনিবার ০২ জুলাই 2০২2 |
Image

শাহ আলম নিতুল ঃ

মুন্সীগঞ্জের শ্রীনগর উপজেলা মহিলা ভাইস চেয়ারম্যানের সাথে অশোভন আচরণ করাকে কেন্দ্র করে হট্টগোল তৈরি হয়েছে উপজেলা মহিলা আওয়ামীলীগের মত বিনিময় সভায়। এসময় উপজেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক হাজী তোফাজ্জল হোসেনের বিরুদ্ধে  উপজেলা মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান ও উপজেলা মহিলা আওয়ামী লীগের সহ-সভাপতি রেহানা বেগমের হাত পা ভেঙ্গে দেয়ার হুমকি দিয়েছে বলে অভিযোগ ওঠে।আজ(১৭জুন)শুক্রবার বিকেলে শ্রীনগর পাইলট উচ্চ বিদ্যালয় এন্ড কলেজের হল রুমে এ মতবিনিময় সভা অনুষ্ঠিত হয়।মহিলা আওয়ামীলীগ নেত্রী আফরোজা বেগম,রোকিয়া বেগম ও নুসরাত জাহান অভিযোগ করে বলেন,আজ উপজেলা মহিলা আওয়ামীলীগের মতবিনিময় সভায় গোপন বৈঠক করে কমিটি ঘোষণা দেওয়ার সিদ্ধান্ত নেয় বাংলাদেশ মহিলা আওয়ামীলীগের কেন্দ্রীয় কমিটির সদস্য ঢাকা বিভাগের দায়িত্বপ্রাপ্ত নেত্রী মেহেজাবিন আলী।এসময় আমাদের নেত্রী উপজেলা আওয়ামীলীগের সহ-সভাপতি রেহানা বেগম প্রতিবাদ করে ও আমরা সকলে উঠে চলে আসার পথে উপজেলা আওয়ামীলীগের সাধারণ সম্পাদক তোফাজ্জল হোসেন আমাদের সকলকে থামিয়ে ভীতরে যেতে বলে আমরা রুমে না যাওয়ায় সে আমাদের সাথে অশোভন আচরণ করে।এ সময় আমাদের নেত্রীর হাত-পা ভেঙ্গে  দিবে বলে হুমকি দেয়। আমরা তার এমন অশোভন আচরণের নিন্দা জানাই।উপজেলা পরিষদ ভাইস চেয়ারম্যান ও মহিলা আওয়ামীলীগের সহ-সভাপতি রেহেনা বেগম বলেন,মহিলা আওয়ামীলীগের সম্মেলন করার জন্য জেলা থেকে নেতৃবৃন্দ আসে তাদের সাথে এক নম্বর সহ-সভাপতি আছিয়া বেগম, সাধারণ সম্পাদিকা নুরজাহান বেগম আজি তোফাজ্জল হোসেন গোপন বৈঠক করে আহবায়ক কমিটি করার সিদ্ধান্ত নেয়।এ বিষয়ে আমি প্রতিবাদ করলে আমার সাথে অশোভন আচরণ করে।এ সময় আমি উঠে চলে আসলে আমার সাথে সকল নেত্রীরা চলে আসে।তখন আমাদের পথরোধ করে উপজেলা আওয়ামীলীগের সাধারণ সম্পাদক তোফাজ্জল হোসেন আমার হাত-পা ভেঙ্গে হত্যা করবে বলে হুমকি প্রদান করে।উপজেলা আওয়ামীলীগের সাধারণ সম্পাদক হাজী তোফাজ্জল হোসেন বলেন,হাত-পা ভেঙে দেয়ার কথা সত্য নয় আমি ওকে বলছি তুই আর কোনদিন মহিলা আওয়ামীলীগের কোন মিটিংএ আসবিনা। এছাড়া ওকে যারা সহযোগিতা করবে তারা পদ-পদবী থেকে বঞ্চিত হবে।


আরও খবর



রসুনের গুণেই মেদ ঝরবে

প্রকাশিত:শনিবার ১১ জুন ২০২২ | হালনাগাদ:শনিবার ০২ জুলাই 2০২2 |
Image

রসুনের অনেক গুণ। নিয়মিত রসুন খেলে শরীরের বহু উপকার হয় চোখ ভাল রাখা থেকে রক্তচাপ নিয়ন্ত্রণ কিংবা প্রদাহ কমানো থেকে হৃদ্‌যন্ত্র ভাল রাখা।

কিন্তু সবচেয়ে বেশি উপকার হয় সকালে খালি পেটে রসুন খেলে। অনেকেই তা হয়‌তো জানেন না, খালি পেটে রসুন খেলে ওজন কমানো সম্ভব।

রসুনে থাকে ভিটামিন বি ৬ এবং সি, ফাইবার, ম্যাগনেশিয়াম, ক্যালশিয়ামের মতো উপাদান ,যা মেদ ঝরানোর ক্ষেত্রে দারুণ উপকারী।

যেভাবে রসুন আপনার মেদ ঝরাতে সাহায্য করতে পারে :

১) রসুন খেলে শরীরের বিপাক ক্রিয়া বাড়ে। ফলে বেশি মাত্রায় ক্যালোরি ঝরে।

২) রসুন খেলে দীর্ঘক্ষণ আপনার কিছু খেতে ইচ্ছা করবে না। পেট ভরা মনে হবে। তাই আপনি অস্বাস্থ্যকর খাওয়াদাওয়া থেকে বিরত থাকবেন।

৩) বিভিন্ন গবেষণায় দেখা যায়, রসুনে এমন কিছু যৌগ আছে, যা মেদ গলানোর প্রক্রিয়াকে তরান্বিত করে।

৪) রসুন শরীর থেকে টক্সিক পদার্থগুলি বের করে দিতে সাহায্য করে। হজম প্রক্রিয়া ভাল করতে এর জুড়ি মেলা ভার।

রসুন খাবেন যেভাবে : সকালে খালি পেটে এক কোয়া কাঁচা রসুন খেতে পারেন। খাওয়ার সঙ্গে সঙ্গে এক গ্লাস পানি খেয়ে নিন। তাছাড়া, গরম পানিতে থেঁতো করা রসুন আর লেবুর রস মিশিয়েও রোজ সকালে খেতে পারেন। সূত্র : আনন্দবাজার


আরও খবর



নারী ক্রিকেটারকে হেনস্তা, পাকিস্তানে কোচ বরখাস্ত

প্রকাশিত:রবিবার ১৯ জুন ২০২২ | হালনাগাদ:শনিবার ০২ জুলাই 2০২2 |
Image

দলে সুযোগ পাইয়ে দেওয়ার প্রস্তাব দিয়ে এক নারী ক্রিকেটারকে যৌন হেনস্তা করেছেন কোচ পাকিস্তানের সাবেক পেসার ও জাতীয় পর্যায়ের কোচ নাদিম ইকবালের বিরুদ্ধে এমন অভিযোগ উঠেছে। 

তাকে বরখাস্ত করেছে পাকিস্তান ক্রিকেট বোর্ড (পিসিবি)। খবর ইএসপিএন ক্রিকইনফোর। পিসিবির এক কর্মকর্তা এ খবরের সত্যতা নিশ্চিত করে জানিয়েছেন, নাদিম ইকবালের বিরুদ্ধে ওঠা অভিযোগ এখনো প্রমাণিত হয়। তার অপরাধের তদন্ত করার দায়িত্ব নিয়েছে পুলিশ। দেশের আইনেই পরবর্তী ব্যবস্থা নেওয়া হবে নাদিমের বিরুদ্ধে। বিষয়টি এখন আর বোর্ডের হাতে নেই। কোনো অপরাধের তদন্ত করার এখতিয়ার পিসিবির নেই। তবে আমরা এখন দেখছি আমাদের সঙ্গে থাকা চুক্তির কোনো শর্ত নাদিম ভেঙেছেন কিনা।’

কোচ নাদিমের বিরুদ্ধে গুরুতর অভিযোগ আনেন সেই নারী ক্রিকেটার। এক ভিডিওবার্তায় তিনি বলেছেন, ‘জাতীয় দলে সুযোগ করে দেওয়া ও বোর্ডে চাকরি পাইয়ে দেওয়ার কথা বলে সে (নাদিম) আমার ঘনিষ্ঠ হয়। কিন্তু সময়ের সঙ্গে সঙ্গে সে তার বন্ধুদের নিয়ে আমাকে যৌন নির্যাতন করে। এর ভিডিও বানিয়ে রেখে আমাকে ব্ল্যাকমেইলও করেছে।’

ক্যারিয়ারের শুরুতে ঘরোয়া ক্রিকেটে দারুণ পারফর্ম করেন নাদিম। ওই সময় তাকে ওয়াকার ইউনিসের চেয়েও বেশি প্রতিভাবান ধরা হতো। নতুন বলে দারুণ সুইং পেতেন তিনি। ব্যাটারকে পরাস্ত করতে পারতেন। কিন্তু নিজের প্রতিভাকে আর বিকশিত করতে পারেননি এ পেসার। পাকিস্তানের জার্সি গায়ে কখনো খেলা হয়নি ৫০ বছর বয়সি এ কোচের। ঘরোয়া ক্রিকেটে ৮০টি প্রথম শ্রেণি ও ৪৯টি লিস্ট এ ম্যাচ খেলেছেন নাদিম।

২০০৪ সালে শেষ পেশাগত ক্রিকেট ম্যাচ খেলেন তিনি।নাদিম ইকবাল দক্ষিণ পাঞ্জাব অঞ্চলের কোচ ছিলেন।


আরও খবর



চাহিদা বেড়েছে পূজার

প্রকাশিত:রবিবার ১২ জুন ২০২২ | হালনাগাদ:শনিবার ০২ জুলাই 2০২2 |
Image

সায়মা সাদিয়া :  ভারতের দক্ষিণী সিনেমার ‘লেডি সুপারস্টার’ নয়নতারা। সম্প্রতি তার চাহিদা বেড়েছে দক্ষিণী সিনেমায়। পারিশ্রমিকের বেলায় নায়িকাদের মধ্যে সবচেয়ে বেশি ডিমান্ড তার। এই অভিনেত্রীর পরের অবস্থানেই রয়েছেন সামান্তা রুথ প্রভু। ওই তালিকায় এবার যুক্ত হলেন পূজা হেগড়ে।

টাইমস অব ইন্ডিয়া এক প্রতিবেদনে জানিয়েছে, নয়নতারা প্রতিটি সিনেমার জন্য পারিশ্রমিক নিয়ে থাকেন ৭ কোটি রুপি। আর সামান্থা ৬ কোটি রুপি পারিশ্রমিক নেন। এবার এই তালিকার তৃতীয় স্থান দখল করলেন পূজা হেগড়ে। এ অভিনেত্রী ‘জানা গানা মানা’ সিনেমার জন্য ৫ কোটি রুপি পারিশ্রমিক নিচ্ছেন।

পুরি জগন্নাথ পরিচালিত ‘জানা গানা মানা’ সিনেমায় বিজয় দেবরকোন্ডার বিপরীতে অভিনয় করছেন পূজা। তেলেগু ভাষার অ্যাকশন ঘরানার এ সিনেমা প্রযোজনা করছেন ভামসি পয়দিপল্লী ও চার্মি কৌর। ২০২৩ সালের ৩ আগস্ট সিনেমাটি মুক্তির পরিকল্পনা করেছেন নির্মাতারা।

তা ছাড়া হিন্দি ভাষার ‘সার্কাস’ সিনেমায় অভিনয় করছেন পূজা। এতে রণবীর সিংয়ের সঙ্গে জুটি বেঁধে হাজির হবেন তিনি। এটি পরিচালনা করছেন রোহিত শেঠি। সালমান খানের ‘কাভি ঈদ কাভি দিওয়ালি’ সিনেমায়ও অভিনয় করছেন পূজা। ফরহাদ সামজি পরিচালিত এ সিনেমা আগামী ৩০ ডিসেম্বর মুক্তি পাবে।


আরও খবর

শিশুদের সিনেমায় মিথিলা

শুক্রবার ০১ জুলাই ২০২২




প্রথম টি-টোয়েন্টিতে সম্ভাব্য বাংলাদেশ দল

প্রকাশিত:শনিবার ০২ জুলাই 2০২2 | হালনাগাদ:শনিবার ০২ জুলাই 2০২2 |
Image

আটলান্টিক পাড়ি দেওয়ার বিভীষিকা কাটিয়ে আজই টি-টোয়েন্টি সিরিজের মিশনে নেমে যেতে হচ্ছে মাহমুদউল্লাহর দলকে। ক্যারিবিয়ানে সাদা পোশাকের বিবর্ণ লড়াইয়ের পর রঙিন জার্সিতে ঘুরে দাঁড়ানোর পালা টাইগারদের। ডোমিনিকার  উইন্ডসর পার্কে আজ বাংলাদেশ সময়  রাত সাড়ে ১১টায়  শুরু হবে ম্যাচটি। একই ভেন্যুতে আগামীকাল সিরিজের দ্বিতীয় ম্যাচ অনুষ্ঠিত হবে।

দুই টেস্ট  সিরিজে হোয়াইটওয়াশ  হওয়ার পর  ঘুরে দাঁড়ানোর জন্য এটাই বাংলাদেশ দলের সেরা সময়। অবশ্য খুদে ফরম্যাটের নিকট অতীতও সুবিধার নয় টাইগারদের। শেষ ১০ ম্যাচে জয় মাত্র একটি। চলতি বছরের শুরুতে আফগানদের হারিয়েছিল বাংলাদেশ।

আজ একাদশের কম্বিনেশনেও স্পিনাররা প্রাধান্য পেতে পারেন। কারণ উইন্ডসর পার্কের উইকেট অতীতে স্পিনারদেরই সাহায্য করেছিল। সেক্ষেত্রে স্পিন আক্রমণে সাকিব, নাসুম, শেখ মেহেদী থাকতে পারেন। পেস বিভাগে তাসকিন, মুস্তাফিজ, শরীফুলের সুযোগ পাওয়ার কথা।

ওপেনিংয়ে লিটন দাসের সঙ্গী হতে পারেন বিজয়। অধিনায়ক মাহমুদউল্লাহর সঙ্গে একাদশের বাকি দুই সদস্য হতে পারেন আফিফ, সোহান।

বাংলাদেশ দল (সম্ভাব্য): মাহমুদুল্লাহ (অধিনায়ক), সাকিব আল হাসান, লিটন দাস, এনামুল হক বিজয়, মুনিম শাহরিয়ার, নুরুল হাসান (উইকেটরক্ষক), মোসাদ্দেক হোসেন, আফিফ হোসেন, মুস্তাফিজুর রহমান, শরিফুল ইসলাম ও নাসুম আহমেদ।


আরও খবর