Logo
শিরোনাম
বাউল ছালমা হলেন বরিশাল বিভাগের শ্রেষ্ঠ "জয়িতা" পাংশায় মাদক সহ ৯ মামলার আসামী গ্রেফতার ১৬৩ টাকায় তেল বিক্রির ব্যত্যয় ঘটলে ব্যবস্থা নেয়া হবে: ভোক্তার মহাপরিচালক দুর্গাপুরে বালুবাহী হ্যান্ডট্রলির চাপায় প্রাণ গেল শিক্ষার্থীর নওগাঁ জেলা প্রেস ক্লাবের সভাপতি আবু বক্কর, সাধারণ সম্পাদক বেলায়েত নওগাঁয় প্রাইভেটকার তল্লাসি, ৭২ কেজি গাঁজা সহ যুবক আটক রূপগঞ্জে প্রাইভেটকার চাপায় গৃহবধু নিহত রাঙ্গামাটির বড়ইছড়ি নির্মাণ শ্রমিক বোঝাই ট্রাক খাদে নিহত-২, আহত-২০ মুসলিমদেরকে সঠিক পথ থেকে বিচ্যুত করার জন্য বিভিন্ন ষড়যন্ত্র চলছে নওগাঁয় কম্পিউটার ব্যবসার অন্তরালে অশ্লিল ভিডিও বিক্রি করায় ৩ যুবক আটক

ধামরাইয়ে বংশী নদী ভরাট চলছে আঁটো রাইছ মিলের ছাই দিয়ে

প্রকাশিত:শনিবার ১০ ফেব্রুয়ারী ২০২৪ | হালনাগাদ:শুক্রবার ০১ মার্চ ২০২৪ |

Image

মাহবুবুল আলম রিপন (স্টাফ রিপোর্টার):

ধামরাই উপজেলার সোমভাগ ইউনিয়নের সোমভাগ কাটাখালী এলাকায় কেলিয়ার উত্তরপাশে বংশী নদী ভরাট চলছে ধানের চাতালের ছাই দিয়ে। নদী ভরাটের ফলে গতি পথে বাঁধা সৃষ্টি হচ্ছে। দূষিত হচ্ছে পরিবেশ। প্রশাসনের নাকের ডগায় চলছে ছাই দিয়ে ভরাটের কর্মযজ্ঞ।

সরেজমিনে গিয়ে দেখা যায়, উপজেলার কুল্লা ইউনিয়নের কেলিয়া এলাকায় কে এন্ড কে অটোরাইস মিল, কাদের আটো রাইস মিল, সৌদিয়া অটো রাইস মিল,সুষমা অটো রাইস মিল মালিকরা নদী ভরাট করে পানি চলাচলের প্রতিবন্ধকতা সৃষ্টি করছে।


আরও খবর

বাউল ছালমা হলেন বরিশাল বিভাগের শ্রেষ্ঠ "জয়িতা"

বৃহস্পতিবার ২৯ ফেব্রুয়ারী ২০২৪

পাংশায় মাদক সহ ৯ মামলার আসামী গ্রেফতার

বৃহস্পতিবার ২৯ ফেব্রুয়ারী ২০২৪




বইমেলায় পাঠক-দর্শনার্থীদের উপচেপড়া ভিড়

প্রকাশিত:শুক্রবার ০২ ফেব্রুয়ারী 2০২4 | হালনাগাদ:বুধবার ২৮ ফেব্রুয়ারী ২০২৪ |

Image

শুক্রবার অমর একুশে বইমেলার দ্বিতীয় দিন। বইমেলার পর্দা উঠার একদিন পরেই আর ছুটির দিন হওয়ায় বেলা গড়ানোর আগেই মেলা প্রাঙ্গণ ভরে গেছে ক্রেতা-দর্শনার্থী, লেখক, প্রকাশক, পাঠকদের উপচেপড়া ভিড়ে।

শীত কমে যাওয়ায় সন্ধ্যা হতে হতে এই ভিড় আরও বাড়তে পারে বলে জানিয়েছেন আয়োজকরা।

বাংলা একাডেমি প্রাঙ্গণ এবং ঐতিহাসিক সোহরাওয়ার্দী উদ্যানের প্রায় সাড়ে ১১ লাখ বর্গফুট জায়গা জুড়ে বইছে নতুন বইয়ের ঘ্রাণ। মায়ের ভাষার জন্য জীবন বিসর্জন দেওয়া ভাষা সৈনিকদের স্মরণ আর রক্তস্নাত সেই আত্মত্যাগের স্মৃতিকে জাগরূক করে রাখতেই ২৯ দিন ধরে চলবে এ মেলা।

এ বছরের বইমেলায় বিন্যাস গতবারের মতো অক্ষুণ্ণ রাখা হয়েছে। টিএসসি, দোয়েল চত্বর, এমআরটি বেসিং প্লান্ট এবং ইঞ্জিনিয়ারিং ইন্সটিটিউশন অংশের মোট ৮টি প্রবেশ ও বের হওয়ার পথ দিয়ে পাঠক-দর্শনার্থীরা আসা-যাওয়া করতে পারছেন।

দর্শনার্থীরা বলছেন, মানুষের সুবিধার্থে বইমেলা চলাকালীন সময়ে অন্তত শুক্রবার দিন মেট্রোরেল দুপুরের পর থেকে রাত পর্যন্ত চালু রাখা হোক। এতে করে যাতায়াতে সুবিধা পাবেন সবাই। দূর-দূরান্ত থেকে আসতে যথেষ্ট ভোগান্তি পোহাতে হয়। কিন্তু ছুটির দিনগুলোতে মেট্রোরেল চালু রাখলে সহজেই বইমেলায় আসা যাবে।

আফিয়া নামে এক ক্রেতা বলেন, বইমেলায় প্রতিবছরই আসা হয় তবে এবার পরিসর বেশ বড় মনে হচ্ছে। আর বেশ গোছানো লাগছে।

মেলায় আসা ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের এক শিক্ষার্থী বলেন, সবসময়ই মেলা শুরুর দিকেই আসা হয়। কেননা যত সময় যায় ততই বেশি ভিড় হয়। তাই আজই চলে এলাম।

আকিব নামে আরেক দর্শনার্থী জানান, উত্তরায় থাকি বলে আগে কখনো শুধু বইমেলাকে উদ্দেশ্য করে আসা হয়নি। এবার মেট্রোরেল থাকায় শুধু বইমেলাতেই আসা।

এদিকে বিক্রয়কর্মীরা জানায়, সাপ্তাহিক ছুটির দিন হিসেবে ক্রেতা-দর্শনার্থীদের উপস্থিতি বাড়লেও সে তুলনায় বেচাকেনা বাড়েনি। তাদের প্রত্যাশা দিন যত গড়াবে ক্রেতার সংখ্যা তত বাড়তে থাকবে।

নিরাপত্তা নিশ্চিত করতে পুলিশ, ডিবিসহ অন্যান্য আইনশৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনীর সদস্যদের সেখানে অবস্থান করতে দেখা গেছে।

 


আরও খবর

গ্যাস লিকেজ থেকে বিস্ফোরণ, দগ্ধ সাত

বুধবার ২৮ ফেব্রুয়ারী ২০২৪




গাজায় গণহত্যা বন্ধে বিশ্বজুড়ে বিক্ষোভ

প্রকাশিত:রবিবার ১৮ ফেব্রুয়ারী ২০২৪ | হালনাগাদ:বৃহস্পতিবার ২৯ ফেব্রুয়ারী ২০২৪ |

Image

গাজায় চলমান ইসরাইলি গণহত্যা বন্ধের আহ্বান জানিয়ে বিশ্বজুড়ে বিক্ষোভ করা হয়েছে। দ্বিতীয় আন্তর্জাতিক সংহতি দিবসে লন্ডন থেকে আহ্বানের পর ১২০টিরও বেশি শহরে লাখ লাখ বিক্ষোভকারী জড়ো হয়েছে।

প্যালেস্টাইন ফোরাম ইন ব্রিটেন (পিএফবি) এক বিবৃতিতে জানিয়েছে, এই বিক্ষোভের লক্ষ্য হচ্ছে ইসরাইলের গণহত্যা এবং জাতিগত নির্মূল প্রচেষ্টা বন্ধ করা।

শনিবার ইস্তাম্বুল, ওয়াশিংটন, সিডনি, ডাবলিন, বার্লিন, প্যারিস, ভিয়েনা, ব্রাসিলিয়া, কেপটাউন, রাবাত এবং বাগদাদে বিক্ষোভ অনুষ্ঠিত হয়।

পিএফবি-এর ভাইস প্রেসিডেন্ট এবং এই আয়োজনের প্রতিনিধি আদনান হামিদান বলেন, বিপুল ভোটদান গাজার জন্য টেকসই বৈশ্বিক সমর্থনের একটি প্রমাণ, যা অতিরিক্ত আগ্রহ হ্রাসে পাশ্চাত্যের প্রত্যাশা মোকাবেলা করে।

তিনি বলেন, লন্ডন, গ্লাসগো, ম্যানচেস্টার, কার্ডিফ এবং বিশ্বব্যাপী প্রধান শহরগুলোতে আমরা দখলদারিত্বের সঙ্ঘটিত গণহত্যামূলক অপরাধগুলো বন্ধ করার লক্ষ্যে একটি শক্তিশালী আন্দোলন লক্ষ্য করি। একটি ইউগভ জরিপ প্রকাশের মাত্র কয়েক দিন পর স্পষ্ট যে ব্রিটেনের ৬৬ শতাংশ গাজায় যুদ্ধবিরতির পক্ষে। ব্রিটেনে ফিলিস্তিনের প্রতি সমর্থন ইসরাইলের জন্য ১৬ শতাংশের তুলনায় ২২ শতাংশে বেড়েছে।

লন্ডনের বিক্ষোভে বক্তব্য দেয়া বিশিষ্ট ব্যক্তিদের মধ্যে ছিলেন লেবার পার্টির সাবেক নেতা জেরেমি করবিন, যুক্তরাজ্যে ফিলিস্তিনি রাষ্ট্রদূত হোসাম জোমলট এবং ফিলিস্তিন সলিডারিটি ক্যাম্পেইনের কামেল হাওয়াশ এবং বেন জামালসহ বিভিন্ন সংহতি গোষ্ঠীর প্রতিনিধিরা, ফিলিস্তিন ফোরামের ফারাহ সাবের। ব্রিটেন, স্টপ দ্য ওয়ার কোয়ালিশন থেকে লিন্ডসে জার্মান, ব্রিটেনের মুসলিম অ্যাসোসিয়েশন থেকে মুস্তাফা আল-দাবাঘ, ফ্রেন্ডস অফ আল-আকসা অর্গানাইজেশন থেকে ইসমাইল প্যাটেল এবং পারমাণবিক নিরস্ত্রীকরণ অভিযানের কেট হাডসন।

উল্লেখযোগ্য ছিল ইলফোর্ড নর্থের একজন তরুণ ফিলিস্তিনি-ব্রিটিশ নারী লিয়ান মোহাম্মদের অংশগ্রহণ। তিনি ২০২৪ সালের শেষের দিকে হওয়া আইনসভা নির্বাচনে হিজাব পরিধানকারী প্রথম ফিলিস্তিনি নারী প্রার্থী হওয়ার লক্ষ্য নিয়ে আসন্ন ব্রিটিশ নির্বাচনে তার প্রার্থিতা ঘোষণা করেছিলেন।

ফিলিস্তিন সলিডারিটির পরিচালক বেন জামাল বলেন, ইসরাইলি আগ্রাসন এবং গাজার জনগণের বিরুদ্ধে তার গণহত্যামূলক কর্মকাণ্ডের প্রতিটি পর্যায়ে আমরা এমন নৃশংসতা দেখেছি যা আমরা কখনো কল্পনাও করিনি। বোমাবর্ষণে রাফাহ এবং আহত শিশুদের ছবি বিশ্বের বিবেককে স্তম্ভিত করেছে।

বিশ্বজুড়ে বিক্ষোভকারীরা অবিলম্বে ইসরাইলি হামলা বন্ধ, যুদ্ধাপরাধের জন্য জবাবদিহিতা এবং নদী থেকে সমুদ্র পর্যন্ত ফিলিস্তিনের স্বাধীনতার দাবিতে স্লোগান দেয়।

তারা গণহত্যা বন্ধ, রাফাহর সাথে সংহতি এবং সাহায্যের সুবিধার্থে সীমান্ত খুলে দেয়ার আহ্বান জানিয়েছে।
সূত্র : মিডেল ইস্ট আই


আরও খবর



ফুল দেওয়াকে কেন্দ্র করে নোবিপ্রবিতে শহীদ দিবস পালনে বিশৃঙ্খলা

প্রকাশিত:বুধবার ২১ ফেব্রুয়ারী ২০২৪ | হালনাগাদ:বৃহস্পতিবার ২৯ ফেব্রুয়ারী ২০২৪ |

Image

মোঃ সিনান তালুকদার নোবিপ্রবি প্রতিনিধি,

ছাত্র পরামর্শ ও নির্দেশনা বিভাগের অব্যবস্থাপনায় নোয়াখালী বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ের (নোবিপ্রবি) জাতীয় শহীদ দিবস ও আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা দিবস উদযাপনে শৃঙ্খলা ভঙ্গ হয়েছে (বিশৃঙ্খল পরিস্থিতি তৈরি হয়েছে)। 

বুধবার (২১ ফেব্রুয়ারি) নোবিপ্রবির শহীদ মিনারে শ্রদ্ধা নিবেদনকে কেন্দ্র করে বিশ্ববিদ্যালয়ের বিভিন্ন সংগঠনের মধ্যে উত্তেজনামূলক পরিস্থিতি তৈরি হয়েছে। 

জানা যায়, দিবস উদযাপনের অংশ হিসেবে বিশ্ববিদ্যালয়ের বিভিন্ন দপ্তর, বিভাগসহ বিভিন্ন সামাজিক,  সাংস্কৃতিক ও ছাত্র সংগঠনের পক্ষ থেকে শহীদ মিনারে শ্রদ্ধা নিবেদন করার জন্য নাম ঘোষণা করে বিশ্ববিদ্যালয়ের ছাত্র পরামর্শ ও নির্দেশনা বিভাগ। ক্রমান্বয়ে নাম ঘোষণার কথা থাকলেও বিভাগটির অব্যবস্থাপনায় শহীদ মিনারেই বিশৃঙ্খল পরিস্থিতি তৈরি হয়েছে। 

শ্রদ্ধা নিবেদন করতে আগ্রহী সংগঠনসমূহকে পূর্ব নির্ধারিত কোন ক্রম জানানো হয়নি বলে অভিযোগ রয়েছে। এতে কোন নিয়মনীতি অনুসরণ না করেই শ্রদ্ধা নিবেদন করার আহবান জানায় ছাত্র পরামর্শ ও নির্দেশনা বিভাগ।

ঘটনাস্থল সূত্রে জানা যায়, দিবস উপলক্ষে শুরুতে শোক পদযাত্রা করা হয়। শোক পদযাত্রাটি বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রশাসনিক ভবন থেকে শুরু হয়ে ক্যাম্পাস প্রদক্ষিণ করে শহীদ মিনারে এসে শেষ হয়। পরবর্তীতে শহীদ মিনারে ফুল দেওয়াকে কেন্দ্র করে শহীদ মিনার চত্বরে এই হট্টগোলে সৃষ্টি হয়। 


সূত্র অনুসারে, বিশ্ববিদ্যালয় প্রশাসন ও শিক্ষক সমিতির পর নোবিপ্রবি ছাত্রলীগকে শ্রদ্ধা নিবেদন করার আহবান জানানো হয়। শিক্ষক সমিতির পরে নোবিপ্রবি অফিসার্স এসোসিয়েশনের নাম ঘোষণা না করায় তাৎক্ষণিক ক্ষুব্ধ প্রতিক্রিয়া প্রকাশ করেন অফিসার্স এসোসিয়েশনের নেতৃবৃন্দ। পরবর্তীতে ছাত্র পরামর্শ ও নির্দেশনা বিভাগের ঘোষণা না মেনে সকল বিভাগ, দপ্তর ও সংগঠনের ফুল দেওয়া শেষে শ্রদ্ধা নিবেদন করে বিশ্ববিদ্যালয় কর্মকর্তাদের এই সংগঠন।

নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক এক শিক্ষার্থী বলেন, নোবিপ্রবিতে সব সময়ই সাদামাটা ভাবে আয়োজন করা হয় দিবসসমূহ। যার ফলে শিক্ষার্থীদের অংশগ্রহণ এক শতাংশ ও হয়না।

দিবস পালনে কোন সমন্বয় নেই বলে অভিযোগ নোবিপ্রবি ছাত্রলীগেরও। এই বিষয় অভিযোগ করে বিশ্ববিদ্যালয় শাখা ছাত্রলীগ সভাপতি নাঈম রহমান ও সাধারণ সম্পাদক জাহিদ হাসান শুভ বলেন, আমাদেরকে যখনি সুযোগ দেওয়া হতো তখনি আমরা শ্রদ্ধা নিবেদন করতাম। দিবস উদযাপনে সব সময়ের মত এবারও সমন্বয়হীনতা দেখা গেছে। ভবিষ্যতে জাতীয় দিবস উদযাপনে বিশ্ববিদ্যালয় প্রশাসনকে আরো সতর্ক হয়ে পরিকল্পনা করার আহবান নোবিপ্রবি ছাত্রলীগের। 

এ বিষয়ে নোবিপ্রবি অফিসার্স এসোসিয়েশনের সভাপতি মেজবাহ উদ্দিন পলাশ ও সাধারণ সম্পাদক ইবনে ওয়াজেদ ইমন বলেন, এখানে একটি ভুল বুঝাবুঝি হয়েছে। আমরা আশা করি পরিবর্তীতে এরকম কোন অনাকাঙ্ক্ষিত ঘটনা ঘটবেনা।

এ বিষয়ে ছাত্র পরামর্শ ও নির্দেশনা বিভাগের পরিচালক অধ্যাপক ড. বিপ্লব মল্লিক বলেন, আমাদের দিবস উদযাপনের বিষয়ে সংশ্লিষ্টটা নেই, আমরা নির্দেশিত হয়ে দায়িত্ব পালন করেছি।

নোবিপ্রবি জাতীয় দিবস উদযাপন কমিটির আহ্বায়ক বিশ্ববিদ্যালয় উপ উপাচার্য অধ্যাপক ড. মোহাম্মদ আব্দুল বাকী বলেন, প্রশাসনিক কিছু বিষয়ে সমস্যা হলে তা পুরো নোবিপ্রবির নাম চলে আসে, তাই আমাদের সবাইকে এই বিষয়ে সতর্ক হতে হবে। আমরা সকলে পরবর্তীতে আরো সতর্কতার সাথে সকলের সহযোগিতায় স্বতঃস্বপূর্ত ভাবে সুন্দর আয়োজন করবো।


আরও খবর



মাভাবিপ্রবিতে নারায়ণগঞ্জ-মুন্সীগঞ্জ শিক্ষার্থী কল্যাণ পরিষদের নতুন কমিটি

প্রকাশিত:সোমবার ২৬ ফেব্রুয়ারী ২০২৪ | হালনাগাদ:বৃহস্পতিবার ২৯ ফেব্রুয়ারী ২০২৪ |

Image

মো হৃদয় হোসাইন মাভাবিপ্রবি প্রতিনিধি :

টাঙ্গাইলের মাওলানা বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ের(মাভাবিপ্রবি) নারায়ণগঞ্জ-মুন্সীগঞ্জ শিক্ষার্থী কল্যাণ পরিষদের নতুন কমিটি গঠন করা হয়েছে। এতে সভাপতি হিসেবে নির্বাচিত হয়েছেন মোঃ রিয়াজ হোসাইন' এবং সাধারণ সম্পাদক হিসেবে নির্বাচিত হয়েছেন হাসান আল মামুন।

রবিবার  (২৫ ফ্রেরয়ারি) নারায়ণগঞ্জ-মুন্সীগঞ্জ শিক্ষার্থী কল্যাণ পরিষদের সব উপদেষ্টা ও  শিক্ষার্থীর সম্মতিক্রমে নারায়ণগঞ্জ-মুন্সীগঞ্জ শিক্ষার্থী কল্যাণ পরিষদের নতুন কমিটি ঘোষণা করা হয়। এই কমিটি আগামী একবছর দায়িত্ব পালন করবে।

কমিটিতে নির্বাচিত অন্য সদস্যরা হলেন-  সহসভাপতি শহীদুল ইসলাম তানিম, নাজমুল হক, আবিদ হাসান ও আরমান অমি।যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক জুয়েল গাজী,ওমর ফারুক,  সিফাত তন্ময় ও মাশফিকুর রহমান ইফতি। সাংগঠনিক সম্পাদক শাহপরান শুভ ও সহ সাংগঠনিক সম্পাদক  ফয়সাল আহমেদ, মোঃ মাঈনুদ্দীন হোসাইন, মোঃ রিয়াজ ও আবদুল্লাহ যুবরাজ নির্বাচিত হয়েছেন।

এছাড়া মানব সম্পদ ব্যবস্থাপনা ও উন্নয়ন বিষয়ক সম্পাদকঃ রাজিন মাশরুর সিয়াম

অর্থ বিষয়ক সম্পাদকঃ সাবিকুন্নাহার নিউলি, 

উপ-অর্থ বিষয়ক সম্পাদকঃ সাইফুদ্দীন সিয়াম, নারী ও শিক্ষার্থী কল্যাণ বিষয়ক সম্পাদকঃ আমিনা সুলতানা মুনা উপ-নারী ও শিক্ষার্থী কল্যাণ বিষয়য়ক সম্পাদকঃ সানজিদা ইসলাম দীপ্তি দপ্তর সম্পাদকঃ তানভীর আহমেদ উপ-দপ্তর সম্পাদকঃ রাকিন পাটোয়ারী ইভেন্ট ম্যানেজমেন্ট সম্পাদকঃ মাসফিকুর রহমান জোনায়েদ ক্রীড়া সম্পাদকঃ তরিকুল ইসলাম শান্ত সাংস্কৃতিক বিষয়ক সম্পাদকঃ রুবায়েত জোনায়েদ প্রিয়ান শিক্ষা বিষয়ক সম্পাদকঃ আফরোজা আক্তার উপ-শিক্ষাবিষয়ক সম্পাদকঃ মোঃ মাসুম প্রচার ও প্রকাশনা বিষয়ক সম্পাদক হাকিমুল ইসলাম, উপ-প্রচার ও প্রকাশনা বিষয়ক সম্পাদক তানভীর আহমেদ, ধর্ম বিষয়ক সম্পাদক মোঃ তাশদীদ আহমেদ এবং  সদস্য হিসেবে রিয়ানা জাহান,  মোঃ সাহেদ, আল-আমীন,  নূরজাহান আক্তার ও আসরীম ইসলাম হামীম নির্বাচিত হয়েছেন।


আরও খবর



ওয়েবমেট্রিক্স র‍্যঙ্কিং: ৭৭ ধাপ পেছালো ঢাবি

প্রকাশিত:শুক্রবার ০৯ ফেব্রুয়ারী ২০২৪ | হালনাগাদ:শুক্রবার ০১ মার্চ ২০২৪ |

Image

স্পেনের মাদ্রিদভিত্তিক শিক্ষা ও গবেষণা প্রতিষ্ঠান ওয়েবমেট্রিক্স র‌্যাংকিংয়ে ৩১তম অবস্থানে রয়েছে বেগম রোকেয়া বিশ্ববিদ্যালয়ের (বেরোবি)। এতে তালিকায় ২ ধাপ এগিয়েছে প্রতিষ্ঠানটি। তবে গত বছরের তুলনায় ৭৭ ধাপ পিছিয়েছে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় (ঢাবি)।

দেশের ১৭০টি সরকারি ও বেসরকারি বিশ্ববিদ্যালয়গুলোর মধ্যে প্রকাশিত তালিকায় এগিয়েছে বেরোবি। বৈশ্বিকভাবে এর অবস্থান ৩ হাজার ৮৩৫তম। গত বুধবার প্রকাশিত বিশ্বের বিভিন্ন দেশের ৩১ হাজার উচ্চ শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান নিয়ে বিশ্ববিদ্যালয় র‌্যাংকিংয়ের (২০২৪) প্রথম সংস্করণের (জানুয়ারি) প্রতিবেদন থেকে এ তথ্য জানা গেছে। এর আগে ২০২৩ সালের দ্বিতীয় সংস্করণে (জুলাই) বেরোবির অবস্থান ছিল ৩৩তম।

ওয়েবমেট্রিক্সের প্রতিবেদন অনুসারে, দেশ সেরা হয়েছে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় (ঢাবি)। আন্তর্জাতিক র‌্যাংকিংয়ে ঢাবির অবস্থান ১ হাজার ১২৮তম। গত বছরে ঢাবির অবস্থান ছিল ১ হাজার ৫১তম। গত বছরের তুলনায় ৭৭ ধাপ পিছিয়েছে প্রতিষ্ঠানটি।

এদিকে দেশের মধ্যে গত বছরের তুলনায় ২ ধাপ এগিয়ে গেলেও বৈশ্বিক অবস্থানে অনড় রয়েছে বেরোবি।

প্রতিটি বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রাতিষ্ঠানিক ওয়েবসাইটের কন্টেন্ট ছাড়াও তাদের গবেষক ও প্রবন্ধ বিবেচনায় নিয়ে এই তালিকা তৈরি করা হয়। ২০০৪ সাল থেকে ওয়েবমেট্রিক্স নিয়মিত বিশ্ববিদ্যালয়ের এ র‌্যাংকিং প্রকাশ করে আসছে। প্রতি বছর জানুয়ারি ও জুলাই মাসে তারা এটি প্রকাশ করে থাকে।

র‌্যাংকিংয়ে অগ্রগতি সম্পর্কে বেরোবি উপাচার্য অধ্যাপক ড. মো. হাসিবুর রশীদ বলেন, এটি খুবই ভালো খবর। নানা সংকট ও প্রতিকুলতা থাকা সত্বেও আমরা ভালো করছি। আমরা এই ধারাবাহিকতা অব্যাহত রাখার চেষ্টা করব, যাতে করে আমরা সামনে আরো ভালো করতে পারি। ছাত্র-শিক্ষক, কর্মচারী-কর্মকর্তা সবার সহযোগিতায় এভাবে এগিয়ে যাক বেগম রোকেয়া বিশ্ববিদ্যালয়।

মাদ্রিদ ভিত্তিক ওয়েবমেট্রিক্স র‌্যাংকিং সম্পর্কে জানা গেছে, এই র‌্যাংকিং তৈরিতে প্রতিটি বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষণ পদ্ধতি, বৈজ্ঞানিক গবেষণার প্রভাব, নতুন প্রযুক্তি উদ্ভাবন ও সম্প্রসারণ, অর্থনৈতিক প্রাসঙ্গিকতাসহ সামাজিক, সাংস্কৃতিক ও পরিবেশগত ভূমিকা বিবেচনা করা হয়।


আরও খবর