Logo
শিরোনাম

শ্রীনগরে রাতের আধারে সৌদি প্রবাসীর নির্মাণাধীন মার্কেট দখলের চেষ্টা

প্রকাশিত:শুক্রবার ০২ সেপ্টেম্বর 2০২2 | হালনাগাদ:বৃহস্পতিবার ০৬ অক্টোবর ২০২২ |
Image

শ্রীনগর (মুন্সীগঞ্জ) প্রতিনিধি:

শ্রীনগরে রাতের আধারে এক সৌদি প্রবাসীর নির্মাণাধীন মার্কেট দখলের চেষ্টার অভিযোগ উঠেছে ইউনিয়ন পরিষদ সদস্য ও তার আত্মীয় স্বজনের বিরুদ্বে। বৃহস্পতিবার রাতে উপজেলার আল-আমিন বাজার বাস স্ট্যান্ড সংলগ্ন ওই জায়গায় অবৈধভাবে বালু ভরাট শুরু করে স্থানীয় ইউপি সদস্য নুরুল আমিন মোড়ল ও তার ভাড়াটিয়া লোকজন। খবর পেয়ে জায়গার মালিক সৌদি প্রবাসী মোঃ হাবিবুর রহমান মাসুদ ঘটনাস্থলে এসে বাঁধা প্রদান করে। এতে দখলকারীরা মারমুখী হয়ে উঠে। পরে ঘটনাস্থলে পুলিশের উপস্থিতি টের পেয়ে দখলবাজরা সটকে পরে। 

এ ঘটনায় হাবিবুর রহমান মাসুদ বাদী হয়ে ভাগ্যকুল ইউনিয়নের কামারগাঁও এলাকার ইউপি সদস্য নুরুল আমিন মোড়ল (৪০), ফরেস মোড়ল (৬০), হারুন মোড়ল (৩৫), সেলিম মোড়ল (২৩), রাফি মোড়ল (২৩), বিপুল মোড়ল (৩৫), রিফাত মোড়ল (৩০), বারেক মোড়ল (৬০), শুভ (২৩) বাবু (২৬) ও বাঘড়া এলাকার রাজা খাসহ বহিরাগত অজ্ঞাত ব্যক্তিদের বিরুদ্ধে শ্রীনগর থানায় অভিযোগ দায়ের করেন। 

অনুসন্ধানে জানা যায়, কামারগাঁও মৌজায় ৮৭৯ নং খতিয়ানের আরএস ১৫৩ নং দাগে মোট ৮০ শতাংশ সম্পত্তির মধ্যে ২৩ শতাংশ জমি ক্রয়সূত্রে মালিক হাবিবুর রহমান মাসুদ গং। দলিন নং-৩৫৮১।

নির্মাণাধীন ওই মার্কেটের স্বত্বাধিকারী মো. হাবিবুর রহমান মাসুদ বলেন, এলাকার চিহ্নিত দখলবাজ ইউপি সদস্য নুরুল আমিন মোল্লার নেতৃত্বে  বহিরাগত শতাধিক লোকজন আল-আমিন বাজার সংলগ্ন সড়কের দক্ষিণ পাশে নির্মাণাধীন হাজী মালেক ফকির প্লাজা নামক মার্কেটের পাইলিং করা জায়গাটি দখলের পায়তারা শুরু করে। রাতের আধারে ওই জায়গাটি হঠাৎ মাটি ভরাট শুরু করে। জায়গার মালিক পক্ষ এসে বাঁধা প্রদান করলে দখলকারীরা ক্ষিপ্ত হয়ে উঠে। এনিয়ে এলাকায় উত্তেজনার সৃষ্টি হয়। কিছুক্ষণ পর র‌্যাব-১০ ও শ্রীনগর থানা পুলিশ বাহিনীর সদস্যরা ঘটনাস্থলে আসলে দখলকারীরা পালিয়ে যায়। 

ভাগ্যকুল ইউনিয়ন পরিষদের ২নং ওয়ার্ড সদস্য নুরুল আমিন মোল্লার কাছে জানতে চাইলে তিনি বলেন, কাগজ যার আমি তার পক্ষে। দখলের সময় আমি ঘটনাস্থলে ছিলাম না। 

এ ব্যাপারে শ্রীনগর থানার অফিসার ইনচার্জ মো. আমিনুল ইসলাম জানান, আভিযোগ পেয়ে ঘটনাস্থলে পুলিশ পাঠিয়েছিলাম। তদন্ত সাপেক্ষে ব্যবস্থা নেওয়া হবে।


আরও খবর



দিনমজুর সেজে ক্লুলেস

৮ বছর বয়সী শিশু ধর্ষণ মামলার আসামি খালেকে গ্রেপ্তার

প্রকাশিত:বৃহস্পতিবার ১৫ সেপ্টেম্বর ২০২২ | হালনাগাদ:বৃহস্পতিবার ০৬ অক্টোবর ২০২২ |
Image

বুলবুল আহমেদ সোহেল ঃ

দিনমজুর সেজে ক্লুলেস ৮ বছর বয়সী শিশু ধর্ষণ মামলার আসামি আব্দুল খালেক (৩৫) কে গ্রেপ্তার করেছে নারায়ণগঞ্জ গোয়েন্দা পুলিশ (ডিবি)। বুধবার  বিকেলে রূপগঞ্জের ইসলামবাগ এলাকা থেকে তাকে গ্রেপ্তার করা হয়। আজ বৃহস্পতিবার নিজের দোষ স্বীকার করে বিজ্ঞ আদালতে জবানবন্দি দিয়েছে খালেক। এসময় আদালত তাকে কারাগারে পাঠানোর নির্দেশ দেন। আ. খালেক রূপগঞ্জ থানার ইসলামবাগ এলাকার মৃত আব্দুস সাত্তার বেপারীর ছেলে।

জেলা পুলিশের উপ—পুলিশ পরিদর্শক (ইনচার্জ, আইসিটি এন্ড মিডিয়া) হাফিজুর রহমান জানান, আসামি আ. খালেকের বিরুদ্ধে ইতোপূর্বেও ধর্ষণ এবং মাদকের একাধিক মামলা বিজ্ঞ আদালতে বিচারাধীন আছে। ঘটনাস্থলের পাশেই তার শশুর বাড়ি। শশুরবাড়িতে বেড়াতে এসে সে এ শিশু ধর্ষণের মত জঘণ্য অপরাধ করেছে।

পুলিশ সুত্রে জানা যায়, গত বছর ডিসেম্বর মাসে দ্বিতীয় শ্রেণীর বাৎসরিক পরীক্ষা শেষ হওয়ার পর ভুক্তভোগী ওই শিশু বেড়াতে এসেছিল মামার বাড়িতে । সন্ধ্যায় মামির অনুরোধে পাশের দোকান থেকে শুকনা মরিচ কিনতে সমবয়সী মামাত বোনের সাথে গিয়েছিল সে । ওই সময় সেখানে দেখা হয় এক অপরিচিত মধ্যবয়সী আব্দুল খালেকের সাথে। সে জিগ্যেস করে জনৈক ব্যাক্তির বাড়ি চিনে কিনা। সাথে থাকা মামাত বোন চিনে বলে জানালে তাদের দু’জনকে বলে বাড়িটি দেখিয়ে দিতে। তারা খালেককে সাথে নিয়ে ওই বাড়ির সামনে যায়। সেখানে গিয়ে ওই ব্যাক্তি নতুন কৌশলে মামাত বোনকে বলে তুমি আগে দ্বিতীয় তলায় গিয়ে দেখো পূর্ব পাশের ফ্লাটের দরজা খোলা আছে কিনা। সরল সহজ শিশুটি চলে যায় দ্বিতীয় তলায়। এ সুযোগে সে ভুক্তভোগী শিশুর মুখ চেপে জোর করে পাশের বাড়ির বসত ঘরের পিছনে নির্জন স্থানে নিয়ে ধর্ষণ করে রক্তাক্ত অবস্থায় ভয়ভীতি দেখিয়ে ফেলে চলে যায়। এসময় শিশুটি জ্ঞান হারিয়ে পড়ে থাকে সেখানে। অপরদিকে মামাত বোন এসে কার বোনকে এবং অপরিচিত সেই ব্যক্তিকে দেখতে না পেয়ে দৌঁড়ে বাড়িতে গিয়ে পরিবারের লোকজনদের জানায়। এরপর খোঁজাখুঁজির এক পর্যায়ে রক্তাক্ত অবস্থায় শিশুটিকে পাওয়া যায় অনেকটা জ্ঞানহীন অবস্থায়। দ্রুত নেয়া হয় ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের ভিকটিম সাপোর্ট সেন্টারের সিসিইউতে। তিন মাস ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের সিসিইউ, আইসিইউ এবং কেবিনে জীবন মৃত্যুর সন্ধিক্ষণে কেটেছে সময়। চার ব্যাগ রক্ত লেগেছিল রক্ত শুণ্যতা কাটাতে।

চিকিৎসাধীন অবস্থায় থানায় মামলা হয় অজ্ঞাতনামা আসামির বিরুদ্ধে। কিন্তু অনেক তথ্য প্রযুক্তির সহায়তা নিয়েও ঘটনার রহস্য এবং আসামি সনাক্ত করা সম্ভব হচ্ছিল না। শেষে মামলা চলে আসে নারায়ণগঞ্জ ডিবি পুলিশের কাছে। ডিবির চৌকস অফিসার এসআই মোহাম্মদ হাফিজুর রহমান তদন্তভার গ্রহণ করে বিভিন্ন সূত্র থেকে তথ্য সংগ্রহ এবং তথ্য প্রযুক্তির সহায়তা নিয়ে সনাক্ত করেন মূল আসামিকে। ছদ্দবেশে দিন মজুরের বেশে কৌশল অবলম্বন করে ১৪ সেপ্টেম্বর বিকেলে আসামি  আব্দুল খালেককে তার নিজ গ্রামের বাড়ি রূপগঞ্জের ইসলামবাগ এলাকার একটি মাঠ থেকে গ্রেপ্তার করা হয়। আজ ১৫ সেপ্টেম্বর তাকে আদালতে উঠালে দোষ স্বীকার করে ১৬৪ ধরায় জবানবন্দি দিয়েছে খালেক। পরে আদালত তাকে কারাগারে পাঠানোর নির্দেশ দেন।


আরও খবর



মোরেলগঞ্জে মহাষ্টমীতে মন্ডপে মন্ডপে উপচেপড়া ভীড়

প্রকাশিত:সোমবার ০৩ অক্টোবর ২০২২ | হালনাগাদ:বৃহস্পতিবার ০৬ অক্টোবর ২০২২ |
Image

এম.পলাশ শরীফ, বাগেরহাট:

শারদীয় দুর্গোৎসবের তৃতীয় দিনে আজ সোমবার মহাষ্টমী। সকাল থেকেই মন্দিরে মন্দিরে অনুষ্ঠিত হয় কুমারী পূঁজা। দেবীকে মহালক্ষী হিসেবে সম্পদ, স্থিতিশীলতা, সৌভাগ্য ও সমৃদ্ধির প্রতীক হিসেবে পূজা করছেন ভক্তরা। 

পুষ্পাঞ্জলির মধ্যে দিয়ে মহা মায়া দেবির  প্রতি আরাধনায় জাতির কল্যাণ কামনা ও করোনা মুক্তি কামনা করা হয়। বাগেরহাটের মোরেলগঞ্জে মহাষ্টমীতে ৭৫টি দূর্গা মন্ডপে উৎসবমুখর পরিবেশে নারী পুরুষ পূজারী ভক্তবৃন্দরা অঞ্জলী প্রদানের মাধ্যমে কুমারি পূঁজা সম্পন্ন করেছেন। সকাল থেকেই পৌর শহরে সার্বজনীন কেন্দ্রীয় হরিসভা মন্দির, সেরেস্তাদারবাড়ি নবারন সংঘ দূর্গা মন্দির, সাধক রামপ্রসাদ মন্দিরসহ প্রতিটি মন্দিরেই ভক্তদের উপচেপড়া ভীড়। অঞ্জলী প্রদানের অপেক্ষায়। 

এ উপলক্ষে মোরেলগঞ্জ ও শরণখোলায় বাগেরহাট-৪, আসনের সংসদ সদস্য অ্যাড. আমিরুল আলম মিলন, উপজেলা চেয়ারম্যান এ্যাড. শাহ-ই আলম বাচ্চু, পৌরসভার মেয়র এ্যাড. মনিরুল হক তালুকদার, কেন্দ্রীয় ছাত্রলীগের সাবেক সভাপতি এইচএম বদিউজ্জামান সোহাগ, জাতীয় পার্টির নেতা সাজন কুমার মিস্ত্রী, উপজেলা নির্বাহী অফিসার মো. জাহাঙ্গীর আলম, সহকারি কমিশনার (ভূমি) মো. আব্দুল মালেক, থানা অফিসার ইনচার্জ মো. সাইদুর রহমান, উপজেলা প্রকল্প বাস্তবায়ন কর্মকর্তা আব্দুল্লাহ আল জাবির সহ বিভিন্ন প্রশাসনিক কর্মকর্তা ও রাজনৈতিক নেতৃর্বৃন্দ প্রতিটি ইউনিয়নের চেয়ারম্যানবৃন্দ পৃথক পৃথক মন্দিরগুলো পরিদর্শন করেছেন। 

এদিকে শারদীয় দূর্গোৎসবকে ঘিরে পূর্জার প্রথম দিন থেকেই আইন শৃংখলা নিয়ন্ত্রনে কঠোর নিরাপত্তার জন্য প্রতিটি মন্ডপে পুলিশ, আনসার ভিডিপি, স্বেচ্ছাসেবক টিম সার্বক্ষনিক অবস্থান করছেন। মোবাইলটিম  ও সিসি ক্যামেরায় আওতায় রয়েছে প্রতিটি মন্ডপ। সন্ধ্যায় প্রতিটি মন্দিরেই সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান আয়োজন করা হয়। এবারে দূর্গোৎসবে প্রানবন্ত হয়ে উঠেছে সাম্প্রদায়িক বন্ধনে মিলন মেলায় পরিনত হয়েছে এখন গোটা উপজেলায়।  


আরও খবর



মোরেলগঞ্জে মোটরসাইকেলের ধাক্কায় নারী নিহত

প্রকাশিত:বৃহস্পতিবার ০৮ সেপ্টেম্বর ২০২২ | হালনাগাদ:বুধবার ০৫ অক্টোবর ২০২২ |
Image

এম.পলাশ শরীফ, নিজস্ব প্রতিবেদকঃ

 বাগেরহাটের মোরেলগঞ্জে মিনারা বেগম(৫২) নামে এক নারী সড়ক দুর্ঘটনায় নিহত হয়েছেন। মিনারা বেগম খাউলিয়া ইউনিয়নের বড়পরী গ্রামের মৃত আকরাম খলিফার স্ত্রী। তার তিন সন্তান রয়েছে। বৃহস্পতিবার বেলা ১০ টার দিকে সাইনবোর্ড-বগী আঞ্চলিক মহাসড়কের পল্লীমঙ্গল এলাকায় একটি মোটরসাইকেলের সাথে ধাক্কা লাগলে এ দুর্ঘটনা ঘটে।

নিহত মিনারা বেগম দীর্ঘদিন ধরে ভিক্ষাবৃত্তি করে জীবীকা নির্বাহ করতেন। এক সময় তার মানসিক বিকৃতি দেখা দেয় বলে তার ছেলে ফিরোজ খলিফ জানিয়েছেন।

ঘটনার সময় স্থানীয়রা মোটর সাইকেলটি আটক করলেও এর চালক পালিয়ে যায়। তার নাম ও পরিচয় এখন পর্যন্ত জানা যায়নি।

এ বিষয়ে থানার ওসি মো. সাইদুর রহমান বলেন, সড়ক দুর্ঘটনায় এক নারী নিহত হয়েছেন। ঘটনাস্থলে পুলিশ পাঠানো হয়েছে।


আরও খবর



পণ্য কিনতে জমানো টাকায় হাত

প্রকাশিত:শনিবার ০১ অক্টোবর ২০২২ | হালনাগাদ:বৃহস্পতিবার ০৬ অক্টোবর ২০২২ |
Image

সঙ্কটের শুরু হয়েছিল ২০২০ সালে করোনাভাইরাস মহামারির মধ্যে। তখন অনেকের আয় বন্ধ হয়ে গিয়েছিল। সবচেয়ে বেশি বিপদ হয়েছিল মধ্যবিত্তের। সেই ধাক্কা সামলে না উঠতেই রাশিয়া-ইউক্রেন যুদ্ধের প্রভাবে নিত্যপণ্যের বাড়তি দাম ভোগাচ্ছে মানুষকে। এখন অনেকেই জমানো টাকায় হাত দিতে বাধ্য হচ্ছেন। 

সপ্তাহের ব্যবধানে আটার দাম বেড়েছে প্রতি কেজি ১০ টাকা করে। এ ছাড়া আমদানির অনুমোদন দেওয়া হলেও তার প্রভাব নেই চালের বাজারে। ৫৩ টাকার নিচে মিলছে না মোটা চালও। বাড়তি ব্রয়লার মুরগী ও ডিমের দামও। প্রতিটি ফার্মের মুরগির ডিম কিনতে হচ্ছে ১২ টাকায়। আর ডজন বিক্রি হচ্ছে ১৩৫ থেকে ১৪০ টাকা দরে।

মুরগি চড়া দামেই : আগের বাড়তি দামেই বিক্রি হচ্ছে সব ধরনের মুরগি। ব্রয়লার প্রতি কেজি ১৭০ থেকে ১৭৫ টাকা, সোনালি মুরগি ৩০০ টাকা ও দেশি মুরগি ৪৬০ থেকে ৪৮০ টাকা। কারওয়ান বাজারের কিচেন মার্কেটের মেসার্স মা আয়েশা ব্রয়লার হাউসের ব্যবসায়ী মো. আমজাদ হোসেন বলেন, ‘সপ্তাহের ব্যবধানে মুরগির বাজারে কোনো পরিবর্তন আসেনি। মুরগির খাদ্যের বাড়তি দাম এবং পরিবহন খরচ বেড়ে যাওয়ায় বাজারে মুরগির দাম কমার সম্ভাবনা কম। 

চাল-আটায় স্বস্তি নেই : সপ্তাহের ব্যবধানে আবার বেড়েছে আটার দাম। প্রতি কেজি খোলা আটা কেজিতে পাঁচ টাকা বেড়ে ৫৫ টাকায় বিক্রি হচ্ছে। প্যাকেটজাত আটা আগের বাড়তি দামে বিক্রি হচ্ছে। দুই কেজি ওজনের আটার প্যাকেট ১২৫ টাকা। চাল আগের বাড়তি দামেই বিক্রি হচ্ছে। মোটা ব্রি ২৮ চাল প্রতি কেজি ৬০ টাকা, মিনিকেট বলে পরিচিত চিকন চাল প্রতি কেজি ৭৫ টাকা ও নাজিরশাইল ৮০ থেকে ৮৫ টাকা কেজি। 

বেড়েছে সবজির দাম : সপ্তাহের ব্যবধানে রাজধানীর বাজারগুলোতে কয়েকটি সবজির দাম পাঁচ থেকে ১০ টাকা বেড়ে বিক্রি হচ্ছে। গোল বেগুন ৮০ থেকে ১০০ টাকা, লম্বা বেগুন ৬০ থেকে ৭০ টাকা, দেশি শসা ৮০ টাকা, পটোল, ঢেঁড়স, চিচিঙ্গা প্রতি কেজি ৫০ থেকে ৬০ টাকা, বাঁধাকপি ৫০ টাকা, ছোট ফুলকপি ৫০ টাকা, শিম ১২০ থেকে ১৪০ টাকা, কাঁচামরিচ ৮০ টাকা, টমেটো ১২০ থেকে ১৩০ টাকা, গাজর ১৩০ থেকে ১৫০ টাকায় বিক্রি হচ্ছে।

এ অবস্থায় মানুষের সঞ্চয়ে টান পড়ছে মূলত মূল্যস্ফীতির চাপে। জীবন যাপনের খরচ বেড়ে যাওয়ায় নির্দিষ্ট আয়ের মানুষকে হিমশিম খেতে হচ্ছে।

আমানত এভাবে কমতে থাকলে ব্যাংক খাতের তারল্যে চাপে পড়বে বলে মনে করছেন ব্যাংকাররা। সেরকম হলে বেসরকারি খাতে ঋণ প্রবাহ কমে যাওয়ার শঙ্কা দেখা দিতে পারে। সুদহার নিয়ন্ত্রণ করা ব্যাংকের জন্য বড় চ্যালেঞ্জ হয়ে দেখা দেবে তখন।

বাংলাদেশ ব্যাংকের পরিসংখ্যান বলছে, ২০২১-২২ অর্থবছরে ব্যাংক খাতে ৯৭ হাজার ১৫০ কোটি টাকার মেয়াদী আমানত যোগ হয়েছে, যা আগের অর্থ বছরের চেয়ে ৩০ দশমিক ৪১ শতাংশ কম।

গত বছরের জুন শেষে দেশে ব্যাংক খাতে সঞ্চিত আমানত ছিল ১৩ লাখ ৫১ হাজার ৩৭৭ কোটি টাকা। এক বছরের মাথায় এ বছরের জুন শেষে তা বেড়ে ১৪ লাখ ৭১ হাজার কোটি টাকা হয়। কিন্তু জুলাই মাসে তা কমে ১৪ লাখ ৬৫ হাজার ২৬৮ কোটি টাকা হয়েছে। অর্থাৎ, এক মাসে ব্যাংকে আমানত হিসাবে জমা টাকার পরিমাণ কমেছে ৫ হাজার ৮০৮ কোটি টাকা।


আরও খবর

লিটারে ১৪ টাকা কমল সয়াবিন তেলের দাম

মঙ্গলবার ০৪ অক্টোবর ২০২২




সুনামগঞ্জের টাঙ্গুয়ার হাওরে ভ্রমণে সাহিত্যিকদের জলভোজন

প্রকাশিত:শুক্রবার ০৯ সেপ্টেম্বর ২০২২ | হালনাগাদ:বৃহস্পতিবার ০৬ অক্টোবর ২০২২ |
Image

শফিউল আলম, স্টাফ রিপোর্টার :

সুনামগঞ্জের বিভিন্ন উপজেলার কবি সাহিত্যিক সাংবাদিক লেখক কলামিস্ট গীতিকার শিল্পী সহ

জেলার তাহিরপুর উপজেলার টাঙ্গুয়ার হাওরে জলভোজনের আয়োজন করা হয়। ৯ সেপ্টেম্বর শুক্রবার শ্রীপুর উত্তর ইউনিয়নের চেয়ারম্যান আলী হায়দারের আমন্ত্রণে জলভোজন অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন। 

ইসলামগঞ্জ ডিগ্রি কলেজের বাংলা প্রভাষক সুরমার মোহনার সম্পাদক কবি ফজলুল হক দোলন,দিগেন্দ্র বর্মন সরকারি কলেজের ইংরেজি প্রভাষক কবি মোঃ মশিউর রহমান,

 জাগ্রত কন্ঠ সমাজকল্যাণ সাংস্কৃতিক পরিষদের সভাপতি কবি মোঃসহিদ মিয়া, কবি এস ডি সুব্রত,ডেল্টা লাইফ ইন্সুরেন্সের জেলা এজিএম মিসবাহ উদ্দিন রুমি, মইনুল হক কলেজের প্রভাষক কবি তৈয়ুবুর  রহমান, পল্লী চিকিৎসক কবি মো শফিক আহমদ, গীতিকার সামরান আহমদ মিলন,সাংবাদিক শফিউল আলম প্রমুখ। টাঙ্গুয়ার হাওর ভ্রমণের পরে শহীদ সিরাজ লেকে (নীলাদ্রি) 


বৈকালি আড্ডায় গান,কবিতা আবৃত্তি অনুষ্ঠিত। প্রভাষক কবি মোঃ মশিউর রহমান বলেন,

সকালে টাঙ্গুয়ার হাওরে বিশাল জলরাশির সৌন্দর্য উপভোগ করে, দুপুরে তাহিরপুর উপজেলার পাটলাই নদীর তীরে উত্তর শ্রীপুর বাজার ঘাটে নৌকায় স্থানীয় চেয়ারম্যান আলী হায়দার সাহেবের আমন্ত্রণে জল ভোজন শেষে বিকেলে তাহিরপুর উপজেলার টেকেরঘাটে শহিদ সিরাজ লেক ( নীলাদ্রি লেক) এ  গানে, আড্ডায় , কবিতা পাঠে চমৎকার সময় পার হলো।কবি ফজলুল হক দোলন বলেন,আজকের আয়োজন ছিল খুবই আনন্দদায়ক।এদিনটি কোন দিন ভুলা যাবে না।সময় পেলে যে কোন জন ভ্রমণে আসতে পারেন স্বপরিবারে! টাঙ্গুয়ার হাওর ভ্রমণের পরে শহীদ সিরাজ লেকে (নীলাদ্রি) 

প্রকাশ জনৈক কবি খালেদ বলেন,বনে ভ্রমণ করে খাওয়া দাওয়া করলে হয় বনভোজন। এভাবে জলে ভ্রমণ করে খাওয়া দাওয়া করলে হয় জলভোজন।


আরও খবর