Logo
শিরোনাম

যেসব কারণে রক্ত ওঠানামা করে

প্রকাশিত:সোমবার ২৯ আগস্ট ২০২২ | হালনাগাদ:বৃহস্পতিবার ০৬ অক্টোবর ২০২২ |
Image

রক্ত উঠানামা একটি জটিল স্বাস্থ্যগত সমস্যা। কারো কারো ক্ষেত্রে রক্তচাপ খুব অস্বাভাবিক বেড়ে যায়, আবার কখনও রক্তচাপ অস্বাভাবিক কমে যায়। এমনটি কোনো কোনো সময় বিপজ্জনক।

রক্তচাপ উঠানামা করার কারণ ও প্রতিকার নিয়ে বিস্তারিত জানিয়েছেন মেডিনোভা হাসপাতালের কার্ডিওলজি বিভাগের অধ্যাপক ও বিভাগীয় প্রধান অধ্যাপক ডা. মো. তৌফিকুর রহমান 

রক্তচাপ কেন ওঠানামা করে, রক্তচাপ অনেক কারণে ওঠানামা করতে পারে। কিছু রোগীর কারণে, কিছু খাবারের কারণে, কিছু রক্তচাপ মাপার মেশিনের কারণে, কিছু রক্তচাপ মাপার পদ্ধতিগত সমস্যার কারণে ও পরিবেশগত কারণে রক্তচাপ ওঠানামা করতে পারে।

রোগীর কী কী কারণে রক্তচাপ ওঠানামা করে

রোগী দুশ্চিন্তা করলে রক্তচাপ হঠাৎ খুব বেড়ে যেতে পারে আবার দুশ্চিন্তা কমে গেলে বা নিয়ন্ত্রণে এলে রক্তচাপ স্বাভাবিক হতে পারে। যদিও প্রাথমিকভাবে এই বাড়তি রক্তচাপ নিয়ন্ত্রণের জন্য সাময়িকভাবে কিছু উচ্চ রক্তচাপের ওষুধ ও দুশ্চিন্তা নিয়ন্ত্রণের ওষুধ লাগতে পারে, পরবর্তীকালে সাধারণত উচ্চ রক্তচাপের ওষুধের আর প্রয়োজন নাও হতে পারে। কোনো কোনো ক্ষেত্রে দুশ্চিন্তা বেশি করলে রক্তচাপ স্বাভাবিকের চেয়ে কমেও যেতে পারে। রোগী যদি দীর্ঘদিন ধরে শরীরের ব্যথা কমানোর ওষুধ বিশেষ করে এনএসএআইডি জাতীয় ওষুধ সেবন করে রোগীর রক্তচাপ বাড়তে পারে বা ওঠানামাও করতে পারে। রোগী যদি নিয়মিত ওষুধ না খায় বা মাঝেমাঝে ওষুধ বাদ দেয় তবে রক্তচাপ ওঠানামা করতে পারে। রোগী যদি দীর্ঘদিন জন্মনিয়ন্ত্রণের ওষুধ খান তবে রক্তচাপ বাড়তে পারে বা ওঠানামা করতে পারে। রোগীর যদি কিডনিতে সমস্যা থাকে তাহলেও রক্তচাপ ওঠানামা করতে পারে। রোগীর যদি কিছু হরমোনজনিত রোগ যেমন হাইপারথাইরয়েডিজম (থাইরয়েড গ্লান্ড থেকে বেশি বেশি থাইরয়েড হরমোন বের হওয়া রোগ) বা ফিওক্রোমোসাইটোমা (কিডনির উপরে অবস্থিত এড্রেনাল গ্লান্ডের টিউমার রোগ) জাতীয় রোগ হয় তবে রক্তচাপ ওঠানামা করতে পারে।

কী কী খাবারের কারণে রক্তচাপ ওঠানামা করে? অতিরিক্ত কফি পান, চা পান ও ধূমপান করলে রক্তচাপ বাড়তে পারে। রক্তচাপ মাপার মেশিনের তারতম্যের কারণে কি রক্তচাপ ওঠানামা করতে পারে হ্যাঁ, বিভিন্ন প্রকারের রক্তচাপ মাপার মেশিন বিভিন্ন সময়ে ব্যবহারের কারণে রক্তচাপের মান ভিন্ন ভিন্ন হতে পারে। আবার দেখা যায় অটোমেটিক মেশিনে রক্তচাপ মাপার কয়েক মিনিট পরে আবার রক্তচাপ মাপলে আগের মাপের থেকে ভিন্নতা পাওয়া যায়।

রক্তচাপ মাপার কী পদ্ধতিগত সমস্যার কারণে ও পরিবেশগত কী কী কারণে রক্তচাপ ওঠানামা করে

রক্তচাপ মাপার মেশিনের সঠিক সাইজ ব্যবহার না করলে, রক্তচাপ মাপার সময় কথা বললে, অনেক পরিশ্রম বা ব্যায়ামের পর রক্তচাপ মাপলে বা হোয়াইট কোট হাইপারটেনশনের কারণে রক্তচাপের মান বেশি আসতে পারে।

হোয়াইট কোট হাইপারটেনশন কী? অনেক রোগী চিকিৎসকের চেম্বারে আসার পর অতিরিক্ত ও অপ্রয়োজনীয় টেনশন বা দুশ্চিন্তায় ভোগেন, ফলে রক্তচাপ অনেক বেড়ে যায়, কিন্তু এসব রোগীর বাসায় বা অন্য সময় রক্তচাপ স্বাভাবিক বা কম থাকে, যেহেতু ডাক্তাররা সাদা এপ্রোন বা কোট পরিধান করে তাই এ সমস্যাকে হোয়াইট কোট হাইপারটেনশন বলে।


সুত্র:  যুগান্তর


আরও খবর

ভয়াবহ হচ্ছে ডেঙ্গু

মঙ্গলবার ০৪ অক্টোবর ২০২২

করোনা টিকার মেয়াদ বাড়ল তিন দিন

মঙ্গলবার ০৪ অক্টোবর ২০২২




লক্ষ্মীপুরে প্রবাসীর বাড়িতে ডাকাতি নগদ টাকাসহ স্বর্ণলঙ্কার লুট

প্রকাশিত:মঙ্গলবার ১৩ সেপ্টেম্বর ২০২২ | হালনাগাদ:বুধবার ০৫ অক্টোবর ২০২২ |
Image

লক্ষ্মীপুর প্রতিনিধি ঃ

লক্ষ্মীপুরে এক সৌদি প্রবাসীর বাড়িতে দুর্ধষ ডাকাতির ডাকাতির ঘটনা ঘটেছে। ডাকাতদল ৮ ভরি স্বর্ণসহ নগদ ১৮ হাজার টাকা লুটে নিয়ে যায়। সোমবার দিবাগত রাতে সদর উপজেলার ভবানীগঞ্জ ইউপির আব্দুল্লাহ্পুর গ্রামের প্রবাসী নাছির উদ্দিনের ঘরে ডাকাতির ঘটনা ঘটে। 

প্রবাসী শশুর আবু তাহের ও চাচা দলিল উদ্দিন দুলাল জানান,রাতে ডাকাত দল ঘরের ভেন্টিলেটর ভেঙে ঘরে ঢুুুকে অস্ত্রের মুখে জিম্মি করে একটি রুমে আটকিয়ে রাখে প্রবাসীর স্ত্রী রীনা বেগম ও ৬ বছরের সন্তান ফাবিহাকে। এসময় তারা ঘরে থাকা নগদ ১৮ হাজার টাকা, ৮ ভরি স্বর্ণালঙ্কারসহ ঘরের মালামাল নিয়ে যায়। এ ঘটনার পর থেকে তাদের মাঝে আতংক দেখা দিয়েছে। নিরাপ্তার জোরদার করতে টহল পুলিশের তৎপরতা বৃদ্ধির জোর দাবী জানিয়েছেন ভোক্তভোগীরা। 

সদর থানার ওসি মো :মোস্তফা কামাল জানান,ডাকাতি রোধে লক্ষ্মীপুর পৌর শহরসহ সদর উপজেলার বিভিন্ন এলাকায় পুলিশ কাজ করছে। তবে ভবানীগঞ্জ ইউপির আব্দুল্লাহ্পুর এলাকায় প্রবাসীর বাড়িতে ডাকাতির বিষয়ে তিনি শুনেছেন। ঘটনাস্থলে পুলিশ পাঠিয়েছেন। তবে মামলা হয়নি বলে জানান এ কর্মকর্তা। 


আরও খবর



মতিঝিল থানার ৮, ৯ ও ১০ নং ওয়ার্ড আওমীলীগের সম্মেলন অনুষ্ঠিত

প্রকাশিত:মঙ্গলবার ১৩ সেপ্টেম্বর ২০২২ | হালনাগাদ:বৃহস্পতিবার ০৬ অক্টোবর ২০২২ |
Image

 নিজস্ব প্রতিনিধি: সোমবার রাজধানীর মতিঝিল টিএনটি স্কুল মাঠে ৮, ৯ ও ১০ নং ওয়ার্ড আওমীলীগের ত্রিবার্ষীক সম্মেলন অনুষ্ঠিত হয়েছে।

অনুষ্ঠানের শুভ উদ্ভোধন করেন ঢাকা মহানগর দক্ষিণ আওয়ামী লীগের সভাপতি বীর মুক্তিযোদ্ধা আলহাজ¦ আবু আহমেদ মান্নাফী।

এসময় প্রধান অতিথি হিসিবে উপস্থিত ছিলেন ঢাকা দক্ষিণ সিটি কপোরেশনের মেয়র শেখ ফজলে নূর তাপস, প্রধান বক্তা হিসিবে উপস্থিত ছিলেন ঢাকা মহানগর দক্ষিণ আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক মোঃ হুমায়ুন কবির।

অতিথিবৃন্দ দেশের উন্নয়নের ধারা বজায় রাখতে ও মাননীয় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার হাত কে শক্তিশালী করার লক্ষ্যে সকল নেতাকর্মীকে একসাথে কাজ করার আহŸান জানান।

এসময় আরো উপস্থিত ছিলেন ঢাকা মহানগর দক্ষিণ আওয়ামী লীগের সহ-সভাপতি আব্দুস সাত্তার মাসুদ, ঢাকা মহানগর দক্ষিণ আওয়ামী লীগের ১নং যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক এ্যাডঃ কাজী মোরশেদ হেসেন কামাল, ঢাকা মহানগর দক্ষিণ আওয়ামী লীগের শিল্প ও বাণিজ্য বিষয়ক সম্পাদক মোঃ নাসির হোসেন, ঢাকা মহানগর দক্ষিণ আওয়ামী লীগের ৬৩নং ওয়ার্ড কাউন্সিলর শফিকুল ইসলাম খান দিলু, ০৯নং ওয়াড যুবলীগের সিনিয়র সহ-সভাপতি ও ০৯নং ওয়ার্ড আওমীলীগের সাধারণ সম্পাদক পদপ্রাথী নুরুল ইসলাম চৌধুরী নুরুসহ আয়োমীলীগের বিভিন্ন অঙ্গসংগঠনের নেত্রীবৃন্দ ও ইলেক্টিক ও পিন্ট মিডিয়ার সাংবাদিক বৃন্দ উপস্থিত ছিলেন।


এ সময় ৯ নং ওয়ার্ড আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক পদপ্রার্থী নুরুল ইসলাম চৌধুরী নুরু বলেন আমাকে যদি ৯ নং ওয়ার্ড আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক হিসেবে দায়িত্ব দেওয়া হয় তাহলে আমি এ এলাকার সন্ত্রাস মাদক নির্মূল সহ এলাকার উন্নয়নে কাজ করে যাবো।


আরও খবর

পুলিশের পক্ষে বললেন খামেনি

মঙ্গলবার ০৪ অক্টোবর ২০২২




পঞ্চগড়ে নৌকাডুবি, মৃত্যু বেড়ে ৪৭

প্রকাশিত:সোমবার ২৬ সেপ্টেম্বর ২০২২ | হালনাগাদ:সোমবার ০৩ অক্টোবর ২০২২ |
Image

পঞ্চগড়ের বোদা উপজেলায় করতোয়া নদীতে নৌকাডুবির ঘটনায় আরো সাত মরদেহ উদ্ধার হয়েছে। এ নিয়ে সোমবার বিকাল পর্যন্ত ৪৭ জনের মরদেহ উদ্ধার হয়েছে।

পঞ্চগড় ফায়ার সার্ভিসের উপসহকারী পরিচালক শেখ মো. মাহবুবুল ইসলাম বলেন, ঘটনাস্থল থেকে প্রায় ১৮ কিলোমিটার ভাটিতে দেবীগঞ্জ ফায়ার সার্ভিসের সদস্যরা দুটি এবং আরো ৩৫ কিলোমিটার ভাটিতে দিনাজপুরের খানসামা ফায়ার সার্ভিস দল করতোয়ার জিয়া ব্রিজের কাছে আরো এক নারীর মরদেহ উদ্ধার করেছে। এ ছাড়া ঘটনাস্থলের কাছাকাছি জালিয়াপাড়া এলাকা থেকে আরো একজনের মরদেহ উদ্ধার করেন স্থানীয়রা। পরে আরো তিনজনের মরদেহ উদ্ধার করা হয়। এখনো উদ্ধারকৃতদের পরিচয় নিশ্চিত হওয়া যায়নি।

ফায়ার সার্ভিস সূত্রে জানা গেছে, নৌকাডুবির ঘটনায় রবিবার ২৫ এবং সোমবার সকালে এক শিশুসহ আরো সাত মরদেহ উদ্ধার করা হয়। মৃতদের মধ্যে ৩১ জনকে শনাক্ত করা গেছে। তাদের মধ্যে নারী ১৬, শিশু ১০ ও পুরুষ ৫ জন। এখনো নিখোঁজ রয়েছেন কমপক্ষে ৪৫ জন। ঘটনাস্থলের আশপাশে দ্বিতীয় দিনের মতো উদ্ধার অভিযান চালাচ্ছে ফায়ার সার্ভিসের ডুবরি দলের তিনটি ইউনিট।


আরও খবর



নারায়ণনারায়ণগঞ্জে সাজা প্রাপ্ত আসামীর বদলে ভিন্নব্যাক্তির কারাভোগ ;

প্রকাশিত:বৃহস্পতিবার ২৯ সেপ্টেম্বর ২০২২ | হালনাগাদ:বৃহস্পতিবার ০৬ অক্টোবর ২০২২ |
Image

 বুলবুল আহমেদ সোহেল :

নারায়ণগঞ্জে মাদক কারবারি জাকিরের বদলে অন্য একজন সাজা খাটতে গিয়ে কারাগারে শনাক্ত হওয়ার মতো চাঞ্চল্যকর ঘটনা ঘটেছে।  বুধবার বিকেলে শুনানী শেষে আসামী জাকির ও ভূয়া আাসমী জুয়েলের বিরুদ্ধে প্রতারণার অভিযোগে মামলার নির্দেশ দিয়েছে আদালত । 

নারায়ণগঞ্জ আদালত পুলিশের পরিদর্শক আসাদুজ্জামান জানান, নারায়ণনারায়ণগঞ্জ বন্দর থানার ২০১৭ সালের একটি মাদক মামলায় ৬ মাসের সাজা হয় আসামী জাকিরের। ইয়াবাসহ গ্রেপ্তারের পর চলতি বছরের ১০ আগষ্ট তার বিরুদ্ধে আদালত ৬ মাসের কারাদণ্ডাদেশ দেন। রায় ঘোষণার আগে জামিনে মুক্ত হয়ে পলাতক থাকে জাকির। রায় ঘোষনার পর আদালত তার বিরুদ্ধে গ্রেপ্তারি পরোয়ানা জারি করে। এ প্রেক্ষিতে চলতি বছরের ১২ সেপ্টেম্বর জুয়েল নামের ব্যাক্তি নিজেকে জাকির দাবি করে  আদালতে আত্মসমর্পণ করে আইনজীবীর মাধ্যমে। আত্মসমর্পণের পর আসামীর পক্ষ জামিনের আবেদন করলে আদালত জামিন না মঞ্জুর করে তাকে কারাগারে পাঠানোর নির্দেশ দেয়। মূল আসামী জাকিরের পরিবর্তে জুয়েল কারাগারে রয়েছে জানতে পেরে কারা কর্তৃপক্ষ আদালতেকে ব্যাপারটি অবগত করেন। 

মাদক মামলার সাজাপ্রাপ্ত আসামী হলো, জাকির ওরফে সোহেল ওরফে গাজী । সে বন্দর উপজেলার নূরবাগ এলাকার সামেদ মিয়ার ছেলে। তার পরিবর্ততে আসামী হয়ে কারাভোগ করতে যায় জুয়েল। সে উপজেলার নবীগঞ্জের আলাউদ্দিনের ছেলে।স্থানীয়দের দাবি, জাকির ও জুয়েল পূর্ব পরিচিত। জুয়েল বিভিন্ন মামলায় এর আগে একাধিবার জেল খেটেছেন। অর্থের বিনিময়ে এমনটা করেছে সে।  

বুধবার বিকেলে সিনিয়র জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট মোহাম্মদ শামছুর রহমানের আদালত শুনানি শেষে, তাদের বিরুদ্ধে যোগসাজসে প্রতারণা ও মিথ্যে সাক্ষী দেয়ার অপরাধে দুইজনের বিরুদ্ধে ফতুল্লা থানায় মামলা করার নির্দেশ দেন সহকারী ব্যাঞ্চকে। তবে মাদক মামলায় জুয়েলকে অব্যহতি দেয়া হয়েছে।

অন্যের মাদক মামলায় আত্মসমর্পণ ও  জুয়েলের জামিন আবেদন করেছিলেন আইনজীবীর রোকেয়া সুলতানা। বুধবারের শুনানিতে স্বশরীরে হাজির হয়ে তিনি ব্যাখা প্রদান করেন ও যাচাই না করে আসামীর পক্ষ নেয়ায় আদালতে ক্ষমা প্রার্থনা করেন। আদালতে তাকে মামলার বিষয়ে শর্তক থাকার নির্দেশ দিয়েছে। তবে এ বিষয়ে ক্যামেরার সামনে কথা বলতে রাজী হননি তিনি।


আরও খবর



ইভিএম নিয়ে ইসিতে বৈঠক

প্রকাশিত:সোমবার ১৯ সেপ্টেম্বর ২০২২ | হালনাগাদ:মঙ্গলবার ০৪ অক্টোবর ২০২২ |
Image

জাতীয় সংসদ নির্বাচনের জন্য নতুন করে, আরো ২ লাখ ইলেকট্রনিক ভোটিং মেশিন কেনার বিষয়ে সিদ্ধান্ত নিতে আজ আবারো বৈঠকে বসেছে নির্বাচন কমিশন।

এর আগে, গত মঙ্গলবারের বৈঠকে, ইভিএমের দাম যাচাই করতে, বাজার দর যাচাই সংক্রান্ত কমিটিকে নির্দেশ দেয়া হয়। আজকের বৈঠকেই, প্রকল্পের ব্যয় ঠিক করা হবে। এরপরই কোন দেশ থেকে ইভিএম কেনা হবে সে বিষয়ে সিদ্ধান্ত নেয়া হবে। তবে মেশিন কেনা, রক্ষণাবেক্ষণ ও জনবল নিয়োগসহ পুরো প্রকল্পে, সম্ভাব্য ৮ হাজার কোটি টাকার বাজেট ধরা হয়েছে বলে জানিয়েছেন ইসির কর্মকর্তারা।


আরও খবর

শিগগিরই বাড়ছে বিদ্যুতের দাম

মঙ্গলবার ০৪ অক্টোবর ২০২২