Logo
শিরোনাম

স্বাধীনতা পুরস্কার পাচ্ছেন না আমির হামজা

প্রকাশিত:শনিবার ১৯ মার্চ ২০২২ | হালনাগাদ:সোমবার ১৬ মে ২০২২ | ২৬১জন দেখেছেন
Image

বিতর্ক ও সমালোচনার মুখে স্বাধীনতা পুরস্কারের তালিকা থেকে বাদ দেয়া হয়েছে আমির হামজার নাম। প্রকাশ করা হয়েছে নতুন তালিকা।

শুক্রবার (১৮ মার্চ) মন্ত্রিপরিষদ বিভাগের অতিরিক্ত সচিব মো: জিল্লুর রহমান স্বাক্ষরিত সংশোধিত প্রেস বিজ্ঞপ্তির মাধ্যমে ওয়েবসাইটে এ তালিকা প্রকাশ করা হয়।

এর আগে গত ১৫ মার্চ মন্ত্রিপরিষদ বিভাগের এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে ১০ ব্যক্তি ও এক প্রতিষ্ঠানকে চূড়ান্ত মনোনীত করে দেশের সর্বোচ্চ বেসামরিক এ পুরস্কারের তালিকা প্রকাশ করা হয়। মূলত এরপরই সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমসহ বোদ্ধা মহলে সাহিত্যে মরহুম আমির হামজাকে পুরস্কারের জন্য মনোনীত করা নিয়ে সমালোচনা ও বিতর্ক শুরু হয়।

সংশোধিত তালিকা অনুযায়ী ৯ ব্যক্তি ও এক প্রতিষ্ঠানকে এ পুরস্কারের জন্য মনোনীত করা হয়েছে।

এর মধ্যে স্বাধীনতা ও মুক্তিযুদ্ধ ক্যাটাগরিতে পদক পাচ্ছেন বীর মুক্তিযোদ্ধা ইলিয়াস আহমেদ চৌধুরী, শহীদ কর্নেল খন্দকার নাজমুল হুদা (বীর বিক্রম), আব্দুল জলিল, সিরাজ উদ্দীন আহমেদ, মরহুম মোহাম্মদ ছহিউদ্দিন বিশ্বাস, মরহুম সিরাজুল হক।

চিকিৎসাবিদ্যায় অধ্যাপক ডা: কনক কান্তি বড়ুয়া ও অধ্যাপক ডা: মো: কামরুল ইসলাম; স্থাপত্যে মরহুম স্থপতি সৈয়দ মাইনুল হোসেন পুরস্কার পাচ্ছেন। প্রতিষ্ঠান হিসেবে এবার গবেষণা ও প্রশিক্ষণ ক্যাটাগরিতে স্বাধীনতা পুরস্কার পাবে বাংলাদেশ গম ও ভুট্টা গবেষণা ইনস্টিটিউট (বিডব্লিউএমআরআই)।

২০১৯ সালের ২৩ জানুয়ারি ৮৭ বছর বয়সে আমির হামজা মারা যান। বলা হচ্ছে, আমির হামজা একজন মরমী গায়ক, গান লিখেছেন। তার তিনটি বই প্রকাশিত হওয়ার খবর পাওয়া গেছে। ২০১৮ সালে মাগুরার শ্রীপুরের সারথি ফাউন্ডেশন থেকে ‘বাঘের থাবা’ নামে একটি বই প্রকাশিত হয়। পরে ২০১৯ সালে এই বইয়েরই গান অংশ নিয়ে বের হয় আরেকটি বই, ‘পৃথিবীর মানচিত্রে একটি মুজিব তুমি’। এছাড়া ‘একুশের পাঁচালি’ নামেও তার একটি বই প্রকাশিত হয়েছে বলে জানা গেছে।

মূলত সরকারের উপসচিব মো: আসাদুজ্জামান তার সাহিত্যিক বাবার নাম স্বাধীনতা পুরস্কারের জন্য প্রস্তাব করেছেন। এতে সমর্থন দিয়েছেন বাণিজ্য মন্ত্রণালয়ের সিনিয়র সচিব তপন কান্তি ঘোষ।


আরও খবর

কবি গুরুর জন্মোৎসব

রবিবার ০৮ মে ২০২২




ধামরাইয়ে সড়কের মাটি লুটের অভিযোগ

প্রকাশিত:শুক্রবার ২২ এপ্রিল 20২২ | হালনাগাদ:শনিবার ১৪ মে ২০২২ | ৯৫জন দেখেছেন
Image

ইমরান খান, স্টাফ রিপোর্টার:

ঢাকার ধামরাইয়ে রাতের আঁধারে একটি আঞ্চলিক সড়কের মাটি কেটে লুট করেছে স্থানীয় একটি মাটি খেকো চক্র। এঘটনায় থানায় একটি লিখিত অভিযোগ করা হয়েছে।

শুক্রবার (২২ এপ্রিল) সকালে উপজেলার সোমভাগ ইউনিয়নের ডাউটিয়া এলাকার ভাইয়াডুবি ব্রিজ সংলগ্ন এলাকায় গিয়ে দেখা যায়, ডাউটিয়া-ভাইয়াডুবি আঞ্চলিক সড়কের প্রায় অর্ধেক অংশ এক্সেভেটর (ভেকু) দিয়ে কেটে নিয়েছে একটি প্রভাবশালী মহল। ফলে ভোগান্তিতে পড়েছে সড়কটি দিয়ে চলাচল করা প্রায় কয়েকশত মানুষ।

সড়কের মাটি কাটার দায়ে ডাউটিয়া গ্রামের জাকির হোসেন, জুয়েল রানা, সোহেল রানা ও ফরিদ হোসেনের বিরুদ্ধে এলাকাবাসীর পক্ষ থেকে থানায় লিখিত অভিযোগ দায়ের করেছেন শরিফুল ইসলাম নামের এক ব্যক্তি।

খোঁজ নিয়ে জানা যায়, ঢাকা-আরিচা মহাসড়কের  জনসাধারণের চলাচলের জন্য প্রায় ২০ বছর আগে স্থানীয় সরকারের পক্ষ থেকে ওই সড়কটি নির্মান করা হয়। তবে একটি প্রভাবশালী মহল সড়কটি মালিকানা দাবি করে এর মাটি কেটে নিচ্ছেন।

শরিফুল ইসলাম বলেন, সড়ক ও জনপথের সড়কের মাটি (এক্সেভেটর) ভেকু দিয়ে কেটেছে জাকির হোসেন, জুয়েল রানা, সোহেল রানা ও ফরিদ হোসেনসহ তাদের সহযোগিরা। ফলে মালামাল বহন করতে দুর্ভোগের শিকার হচ্ছে এলাকাবাসী। জাকির ও তার সহযোগীরা প্রভাবশালী হওয়ায় তাদের বিরুদ্ধে কেউ কথা বলতে সাহস করে না। তবে তারা সড়কের মাটি কেটে যে দুর্ভোগ সৃষ্টি করেছে তার বিচার চেয়েছেন স্থানীয়রা। তাদের পক্ষ থেকেই আমি অভিযোগ দায়ের করেছি।

অভিযুক্ত ফরিদ হোসেন বলেন, যাদের জমি তারাই মাটি কেটেছে। এটা সড়ক ও জনপথের জায়গা নয়, মালিকানা জায়গা। নিজের জমি না হলে এভাবে কি কেউ মাটি কেটে নেয়? যাদের জমি তারা মাটি কেটেছে এতে জনগণের কি!  

সোমভাগ ইউনিয়নের সাবেক চেয়ারম্যান আজাহার আলী বলেন, ইউনিয়ন পরিষদের অর্থায়নে ও স্থানীয়দের সহায়তায় কয়েক বছর আগে ওই সড়কটি পুণঃনির্মান করা হয়েছিল। সড়কটি কাটায় জনগণের দুর্ভোগ বেড়েছে। যারা এ ধরনের কাজ করেছে তাদের আইনের আওতায় আনা উচিত। 

সোমভাগ ইউনিয়ন পরিষদের বর্তমান চেয়ারম্যান প্রভাষক আওলাদ হোসেন বলেন, রাস্তার মাটি লুটের বিষয়টি শুনেছি। এব্যাপারে এলাবাসীর পক্ষ থেকে থানায় অভিযোগও করা হয়েছে। থানা যদি বিষয়টি আমাকে সমাধানের দায়িত্ব দেন তাহলে আমার আন্তরিকতার কমতি থাকবে না। যেহেতু থানায় অভিযোগ দায়ের হয়েছে, সেহেতু বিষয়টি থানা দেখবেন।

ধামরাই থানার অফিসার্স ইনচার্জ  আতিকুর রহমান বলেন, এবিষয়ে থানায় একটি লিখিত অভিযোগ দায়ের হয়েছে। তদন্ত সাপেক্ষে পরবর্তী আইনি ব্যবস্থা নেওয়া হবে। 

ধামরাই উপজেলা নির্বাহী কর্সকর্তা হোসাইন মোহাম্মদ হাই জকী বলেন, এব্যাপারে কেউ কোন অভিযোগ করেনি। অভিযোগ পেলে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

সড়কের মাটি লুটের বিষয়ে মানিকগঞ্জ সড়ক বিভাগের নির্বাহী প্রকৌশলী গাউস-উল-হাসান মারুফের সাথে কথা হলে তিনি বলেন, সড়ক ও জনপথের জমি কেউ দখল করতে চাইলে বা মাটি লুট করলে তাদের আইনের আওতায় আনা হবে। রাস্তার মাটি লুটের ব্যাপারে কাউকে কোন রকম ছাড় দেওয়া হবে না।


আরও খবর



দেশের মানুষ এখন সুরক্ষিত ঃ স্বাস্থ্য মন্ত্রী

প্রকাশিত:রবিবার ২৪ এপ্রিল ২০২২ | হালনাগাদ:সোমবার ১৬ মে ২০২২ | ৮১জন দেখেছেন
Image

মানকিগঞ্জ প্রতিনিধি

স্বাস্থ্য ও পরিবার কল্যাণ মন্ত্রী জাহিদ মালেক স্বপন বলেছেন, করোনার মধ্যেও দেশ ভাল আছে, অর্থণীতি ও সামাজিক ভাবে দেশে এগিয়ে যাচ্ছে। করোনার সফলতা আমরা পেয়েছি। করোনা নিয়ন্ত্রনে আছে, প্রধান মন্ত্রীর সব সময় সহযোগিতা ছিলো ও দিক নিদের্শনা ছিলো। আমাদের দেশের মানুষ এখন সুরক্ষিত, প্রায় তের কোটি লোক টিকা নিয়েছে। মৃত্যুর সংখ্যা শূন্যে নেমে এসেছে সংক্ষমন নাই বললেই চলে। কিন্ত  আমাদেরকে বেখায়ালি হলে চলবে না।  আপনার জানেন আমাদের আশে পাশের দেশে করোনা বৃদ্ধি পাচ্ছে । অনেক দেশেই বৃদ্ধি পাচ্ছে আমাদের সেই দিকে লক্ষ রাখা উচিত। সেই সাথে আমাদের স্বাস্থ্য বিধি মেনে চলতে হবে। 

শনিবার সন্ধ্যায় মানিকগঞ্জ জেলা প্রশাসকের বাসভবণে জেলা প্রশাসন আয়োজিত ইফতার মাহফিলে প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এসব কথা বলেন।

এসময় উপস্থিত ছিলেন জেলা প্রশাসক মুহাম্মদ আব্দুল লতিফ, পুলিশ সুপার মোহাম্মদ গোলাম আজাদ খান, অতিরিক্ত জেলা ্ও দায়রা জজ উৎপল ভট্টাচার্য, জেলা পরিষদের প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা দুর-রে শাহওয়াজ, জেলা আওয়ামীলীগের সভাপতি বীরমুক্তিযোদ্ধা গোলাম মহীউদ্দীন, সাধারণ সম্পাদক বীরমুক্তিযোদ্ধা অ্যাডভোকেট আব্দুস সালাম, পৌর মেয়র রমজান আলী, সিভিল সার্জন ডাক্তার মোয়াজ্জেম আলী খান চৌধুরীসহ বিভিন্ন সরকারি প্রতিষ্ঠানের প্রধান, রাজনৈতিক ব্যক্তিবর্গ, সাংবাদিক ও সুশীল সমাজের প্রতিনিধিরা। 


আরও খবর



ডেল্টা প্ল্যান বাস্তবায়নে এডিবি’র সহায়তা চাইলেন প্রধানমন্ত্রী

প্রকাশিত:সোমবার ০৯ মে ২০২২ | হালনাগাদ:রবিবার ১৫ মে ২০২২ | ৬২জন দেখেছেন
Image

প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা ডেল্টা প্ল্যান-২১০০ বাস্তবায়নে এশীয় উন্নয়ন ব্যাংকের (এডিবি) সহায়তা চেয়ে বলেছেন, এটি বাংলাদেশের জন্য অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ।

সোমবার (৯ মে) সকালে প্রধানমন্ত্রীর সরকারি বাসভবন গণভবনে এডিবি’র ভাইস প্রেসিডেন্ট (অপারেশনস-১) শিঝিন চেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার সঙ্গে সৌজন্য সাক্ষাতকালে তিনি এ অনুরোধ জানান।

বৈঠক শেষে প্রধানমন্ত্রীর প্রেসসচিব ইহসানুল করিম সাংবাদিকদের ব্রিফ করেন।

বৈঠকে প্রধানমন্ত্রী বিশেষ করে যোগাযোগ, বাণিজ্য ও জ্বালানির ক্ষেত্রে আঞ্চলিক সহযোগিতা বৃদ্ধির জন্য এডিবি’র সহায়তা কামনা করেন।

এডিবি’র ভাইস প্রেসিডেন্ট বাংলাদেশের উন্নয়ন প্রচেষ্টায় পাশে থাকার আশ্বাস দেন।

তিনি বলেন, বাংলাদেশের সাথে আমাদের দৃঢ় সম্পর্ক রয়েছে এবং এডিবি বাংলাদেশের পাশে থাকবে। এ দেশের গ্রামীণ ও নগর উন্নয়নের ক্ষেত্রে সহায়তা অব্যাহত রাখবে।

এডিবি’র ভাইস প্রেসিডেন্ট কোভিড-১৯ মহামারির মধ্যে ও বাংলাদেশের অর্থনীতির চাকা সচল রাখায় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার গতিশীল নেতৃত্বের প্রশংসা করেন।

তিনি বলেন, প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার দূরদর্শী নেতৃত্বের কারণে বাংলাদেশ কোভিড-১৯ মহামারির মধ্যে দেশের অর্থনীতির চাকা সচল রেখেছেন।

তিনি আরও বলেন, এডিবি আশা করছে বাংলাদেশ জিডিপিতে ৭ শতাংশ প্রবৃদ্ধি অর্জন করতে সক্ষম হবে।

শিঝিন চেন বাংলাদেশের সামগ্রিক উন্নয়নের প্রশংসা করে বলেন, বাংলাদেশ এখন একটি ক্রান্তিকাল অতিক্রম করছে (উন্নয়নশীল দেশ হিসেবে স্নাতক হওয়ার কারণে) যা সাধারণত একটু জটিল। কিন্তু বাংলাদেশ ভালো করছে।

শেখ হাসিনা বলেন, বাংলাদেশে কোভিড-১৯ পরিস্থিতি এখন সম্পূর্ণ নিয়ন্ত্রণে রয়েছে এবং দেশবাসী দুই বছর পর এবার অবাধে পবিত্র ঈদুল ফিতর উদযাপন করেছে।

প্রধানমন্ত্রী মহামারির সময়ে এডিবি’র সহযোগিতার ভূয়সী প্রশংসা করেন। উন্নয়নশীল দেশ হিসেবে বাংলাদেশের স্নাতক হওয়ার কারণে ক্রান্তিকাল সম্পর্কে তিনি বলেন, পরিস্থিতি মোকাবিলায় সরকার বিভিন্ন কর্মসূচি হাতে নিয়েছে। তার সরকারের বিভিন্ন উন্নয়ন কর্মসূচির কথা তুলে ধরে তিনি বলেন, দেশের শতভাগ মানুষকে বিদ্যুৎ সুবিধার আওতায় আনা হয়েছে।

শেখ হাসিনা বলেন, সরকার এখন দেশের গৃহহীন ও ভূমিহীন মানুষকে উন্নত ও সুন্দর উন্নত জীবন দেয়ার লক্ষে জমিসহ বাড়ি দিচ্ছে। রাশিয়া-ইউক্রেন যুদ্ধের কারণে বিশ্ব খাদ্য ঘাটতির সম্মুখীন হতে পারে বলে এডিবি’র ভাইস প্রেসিডেন্টের অনুমানের জবাবে প্রধানমন্ত্রী বলেন, তার সরকার আরও বেশি খাদ্য উৎপাদনের কর্মসূচি গ্রহণ করেছে।

শেখ হাসিনা বলেন, দেশের আইসিটি খাতের উন্নয়ন হচ্ছে। উন্নয়নের জন্য আঞ্চলিক যোগাযোগ প্রসঙ্গে তিনি বলেন, বাংলাদেশ যোগাযোগ ব্যবস্থার উন্নয়নে দরজা খুলে দিয়েছে। এ প্রসঙ্গে তিনি বলেন, ১৯৬৫ সালের যুদ্ধের পর যে সব রুট বন্ধ হয়ে গিয়েছিল সেগুলো আবার চালু করা হচ্ছে।

প্রধানমন্ত্রী উন্নয়নে আঞ্চলিক ভারসাম্য রক্ষার জন্য এডিবি’র শীর্ষ ব্যবস্থাপনা ও প্রশাসনে বাংলাদেশের ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তাদের নিয়োগ প্রত্যাশা করেন।

এডিবি’র ভাইস প্রেসিডেন্ট বলেন, কোভিড-১৯ মহামারি পরিস্থিতি মোকাবেলায় বাংলাদেশ অন্যতম সেরা উদাহরণ স্থাপন করেছে। তিনি আরও বলেন, বাংলাদেশ কৃষিখাতেও ব্যাপক উন্নয়ন করেছে।

শিঝিন চেন আশা প্রকাশ করেন, বাংলাদেশে যে সব বিশেষ অর্থনৈতিক অঞ্চল স্থাপিত হচ্ছে, তা দেশীয় ও আন্তর্জাতিক বাজারের চাহিদা পূরণ করবে। তিনি সামাজিক সুরক্ষা কর্মসূচিতে বাংলাদেশকে সাহায্য করতে এডিবি’র আগ্রহ প্রকাশ করেন।

এ সময় অন্যান্যের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন অ্যাম্পাসেডর অ্যাট লার্জ মোহাম্মদ জিয়াউদ্দিন, প্রধানমন্ত্রীর মূখ্য সচিব ড. আহমদ কায়কাউস, অর্থনৈতিক সম্পর্ক বিভাগের (ইআরডি) সচিব ফাতিমা ইয়াসমিন।

এছাড়া এডিবি ডেপুটি ডিরেক্টর জেনারেল (সাউথ এশিয়ান ডিপার্টমেন্ট) মনমোহন পরকাশ এবং বাংলাদেশে এডিবি’র কান্ট্রি ডিরেক্টর এডিমন গিনটিং উপস্থিত ছিলেন।


আরও খবর



শ্রীনগরে প্রস্তুতি কালে ৪ ডাকাত গ্রেফতার

প্রকাশিত:বুধবার ২৭ এপ্রিল ২০২২ | হালনাগাদ:রবিবার ১৫ মে ২০২২ | ৪৯৩জন দেখেছেন
Image

শ্রীনগর সংবাদদাতাঃ

মুন্সীগঞ্জের শ্রীনগরে প্রস্তুতি কালে ৪ ডাকাতকে গ্রেফতার করেছে থানা পুলিশ। বুধবার ভোর ৪ টার দিকে উপজেলার তন্তর ইউনিয়ন থেকে তাদের গ্রেফতার করা হয়। গ্রেপ্তারকৃতরা হলেন, ব্রাহ্মনবাড়ীয়া জেলার নাসিরনগর থানার চিটাচুনী গ্রামের নায়েব আলীর ছেলে মোশারফ হোসেন (৩৮), কসবা থানার মাহফুজ মিয়ার ছেলে ফারুক (৩৪), নারায়ণগঞ্জ জেলার আড়াইহাজার থানার রোশন আলীর ছেলে এরদোয়েন (৩১), দক্ষিণ কেরাণীগঞ্জ থানার আব্দুর রশিদের ছেলে দুলাল (৩২)।

পুলিশ সূত্রে জানাযায়, রাত দেড়টার দিকে উপজেলার  কল্লিগাঁও ব্রীজের উপর শ্রীনগড় থানা পুলিশ ডিউটিরত অবস্থা গোপন সূত্রে সংবাদ পায়  তন্তুর ইউনিয়নের  কুমারবাড়ী ব্রীজের পশ্চিম পাশে টাওয়ারের সামনে কতিপয় ডাকাতদল সিএনজি যোগে দেশীয় তৈরী অস্ত্রশস্ত্র নিয়া ডাকাতি করার প্রস্তুতি নিচ্ছে। সেই খবর পেয়ে রাত  ২টার দিকে  ঘটনাস্থলে  পুলিশের গাড়ি নিয়ে উপস্থিত হলে

ডাকাতরা রাস্তার উপর থাকা তাদের ঢাকা মেট্রোর খ-১১-৮১০৯ সবুজ রংয়ের সিএনজি যোগে পালানোর চেষ্টা করে। তখন পুলিশের গাড়ী দিয়া সিএনজিটিকে রাস্তায় বেরিকেট সৃষ্টি করলে ডাকাতরা সিএনজি থেকে নেমে পালানোর চেষ্টাকালে ৪জনকে গ্রেফতার করা হয়। এসময় তাদের সঙ্গে থাকা ৮টি দেশীয় অস্ত্র  উদ্ধার করা হয়। 

 শ্রীনগর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা আমিনুল ইসলাম বলেন, রাতেই ৪জন ডাকাতে গ্রেফতার  করা হয়। আজ সকালে তাদের বিজ্ঞ আদালতে প্রেরণ করা হয়েছে। এছাড়া তাদের ব্যবহৃত সিএনজি, চাপাতি, গ্রিল কাটারসহ তাদের সাথে থাকা সকল দেশীয় অস্ত্র জব্দ করা হয়েছে।


আরও খবর



আম নামানোর সময় বেঁধে দিলো প্রশাসন

প্রকাশিত:শুক্রবার ১৩ মে ২০২২ | হালনাগাদ:সোমবার ১৬ মে ২০২২ | ৩৭জন দেখেছেন
Image

রাজশাহীতে গাছ থেকে আম নামানোর সময় নির্ধারণ করে দিয়েছে জেলা প্রশাসন। নিরাপদ ও পরিপক্ব আম বাজারজাতকরণ নিশ্চিত করতে বৃহস্পতিবার বিকেলে জেলা প্রশাসকের সম্মেলন কক্ষে অনুষ্ঠিত সভায় আম নামোনোর সময়সীমা নির্ধারণ করা হয়।

এতে অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক মো: শরিফুল হক জানান, ১৩ মে থেকে রাজশাহীতে আম বাগানের গুটি জাতের সবধরনের আম নামাতে পারবেন চাষিরা। তবে সুমিষ্ট জাতের গোপালভোগ, ক্ষিরসাপাত, ল্যাংড়া ও আমরুপালির জন্য অপেক্ষা করতে হবে আরো সপ্তাখানেক।

সভায় জানানো হয়, ২০ মে থেকে গোপালভোগ, ২৫ মে থেকে লক্ষণভোগ (লখনা) ও রাণীপছন্দ, ২৮ মে থেকে ক্ষিরসাপাত (হিমসাগর), ৬ জুন থেকে ল্যাংড়া, ১৫ জুন থেকে আমরুপালি ও ফজলি, ১০ জুলাই থেকে আশ্বিনা ও বারি আম-৪, ১৫ জুলাই থেকে গৌরমতি ও ২০ আগস্ট থেকে ইলামতি আম নামানো যাবে।

সভায় আম বিপণন ও বাজারজাত করণের বিভিন্ন বিষয় নিয়ে আলোচনা করা হয়।

চলতি মৌসুমে আম পাঠানো নিয়ে কুরিয়ার সার্ভিসের প্রতিষ্ঠানগুলোতে মানুষ যাতে কোনো প্রকার হয়রানির শিকার না হন সেদিকেও খেয়াল রাখবে প্রশাসন।

এ সময় রাজশাহী জেলা কৃষি সম্প্রসারণ অধিদফতরের উপ-পরিচালক মোজদার হোসেন, অতিরিক্ত উপ-পরিচালক তৌফিকুর রহমান, কৃষি সম্প্রসারণ তথ্য কেন্দ্রের অতিরিক্ত উপ-পরিচালক আব্দুল্লাহ হিল কাফি, বাংলাদেশ ফ্রন্টস অ্যান্ড ভেজিটেবল এক্সপোর্ট অ্যালায়েন্সের সদস্য ও কুরিয়ার সার্ভিসের লোকজন উপস্থিত ছিলেন।



আরও খবর