Logo
শিরোনাম
রাজধানীর সেতু ভবনে আগুন কমপ্লিট শাটডাউন : ঢাকাসহ সারা দেশে বিজিবি মোতায়েন জয়পুরহাটের পাঁচবিবিতে নিয়ন্ত্রণ হারিয়ে ইট বোঝায় ট্রাক খাদে কুষ্টিয়ায় আন্দোলনকারী ও ছাত্রলীগের মধ্যে সংঘর্ষ -কয়েকটি মোটর সাইকেলে আগুন পুঠিয়ায় আ’লীগের বিক্ষোভ মিছিল ও প্রতিবাদ সভা লালমনিরহাটে অনুষ্ঠিত হয়েছে তিস্তা সমাবেশ বেনাপোল স্থল বন্দর দিয়ে মিথ্যা ঘোষণায় আমদানি করা হয়েছে ১৮ কোটি টাকার সালফিউরিক এসিড কুমারখালীতে মহাসড়ক অবরোধ করে শিক্ষার্থীদের বিক্ষোভ, আহত-২ শরণখোলায় নার্সের চিকিৎসার অবহেলায় এক রোগীর মৃত্যুর অভিযোগ শেরপুরে কোটাবিরোধী শিক্ষার্থী-ছাত্রলীগের সংঘর্ষ, সাংবাদিকসহ আহত-২০

মহামারির আকার ধারণ করছে ডেঙ্গু !

প্রকাশিত:বুধবার ১৯ জুলাই ২০২৩ | হালনাগাদ:রবিবার ২১ জুলাই ২০২৪ |

Image

রোকসানা মনোয়ার : আশঙ্কাজনক হারে বাড়ছে ডেঙ্গুতে আক্রান্ত ও মৃত্যু। যা নিয়ে উদ্বেগের অন্ত নেই স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের। বিশেষজ্ঞরাও বলছেন, এ বছর মহামারি আকার ধারণ করতে পারে ডেঙ্গুজ্বর।

স্বাস্থ্য অধিদপ্তর থেকে পাওয়া তথ্য উপাত্ত বিশ্লেষণে দেখা গেছে, বুধবার সকাল ৮টা পর্যন্ত চলতি বছর ডেঙ্গু আক্রান্ত হয়ে হাসপাতালে ভর্তি হয়েছেন ৩ হাজার ৯৩২ জন। এর মধ্যে ৭৭ শতাংশ রোগী ঢাকা শহরের। বাকি ২৩ শতাংশ ঢাকা জেলা এবং দেশের বাকি বিভাগ, জেলা ও উপজেলার।

গত ২৮ মে স্বাস্থ্য অধিদপ্তর সংবাদ সম্মেলন করে চলতি বছর ডেঙ্গুর ভয়াবহতার বিষয়ে জানান দেয়। ডেঙ্গু আশঙ্কাজনক হারে বৃদ্ধি পাওয়ার আশঙ্কা প্রকাশ করে অধিদপ্তরের পক্ষ থেকে ১১ দফা নির্দেশনা দেওয়া হয়। আর ডেঙ্গু চিকিৎসায় প্রস্তুত করা হয় হাসপাতালগুলোকে।

এ বিষয়ে স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের মহাপরিচালক ডা. আবুল বাসার মোহাম্মদ খুরশীদ আলম বলেন, এ বছর ডেঙ্গুতে আক্রান্ত রোগীদের বেশি মৃত্যু হচ্ছে শক সিনড্রোমে

শক সিনড্রোম মানে হচ্ছে- ডেঙ্গু রোগীর রক্তচাপ অতিদ্রুত কমে যায়, রক্তে অণুচক্রিকার পরিমাণ কমে যায় এবং রোগীর পরিস্থিতি দ্রুত খারাপ হয়ে পড়ে, রোগী অচেতন হয়ে পড়েন।

এছাড়া স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের মহাপরিচালক ডেঙ্গুবাহী এডিস মশা নিয়ন্ত্রণে বাসা-বাড়ির বারান্দা, ছাদসহ বিভিন্ন স্থানে থাকা ফুলের টব বা পানি জমে মশা বংশ বিস্তার করতে পারে- এমন পাত্র পরিস্কার রাখা, মশারি টানানোসহ সার্বিক সচেতনতা অবলম্বন করতে নাগরিকদের প্রতি অনুরোধ জানান।

এদিকে এ বছর রাজধানীতে ভয়াবহ আকার নিচ্ছে ডেঙ্গু পরিস্থিতি। এ মাসের ১৯ দিনেই মারা গেছে ৮৭ জন। অন্য বছরের চেয়ে এবার রোগীদের শারীরিক জটিলতা বেশি বলে জানিয়েছেন চিকিৎসকেরা। পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে কার্যকর পদক্ষেপের আশ্বাস দিয়েছেন ঢাকার দুই মেয়র।

শনির আখরার বাসিন্দা ইমরান হোসেন। ডেঙ্গু আক্রান্ত ছেলেকে ভর্তি করিয়েছেন মুগদা হাসপাতালে। শয্যা না থাকায় তাদের ঠাঁই হয়েছে মেঝেতে। এ হাসপাতালের বেশিরভাগ রোগীই মুগদা, যাত্রাবাড়ী, মানিকনগর বা দনিয়া শনির আখরার বাসিন্দা। হাতেগোনা কয়েকজন ঢাকার বাইরের। শুধু মুগদা হাসপাতালেই গত ১৫ দিনে ভর্তি হয়েছেন হাজার রোগী।

মুগদা হাসপাতাল পরিচালক ডা. নিয়াতুজ্জামান বলেন, গতবছরের চেয়ে এবার রোগীদের অবস্থা বেশি খারাপ।

বর্ষা শুরুর আগেই ডেঙ্গুর ভয়াবহতার জন্য দুই সিটি করপোরেশনকে দুষছেন নগরবাসী।

এদিকে ঢাকা দক্ষিণ সিটি করপোরেশন (ডিএসসিসি) এডিস মশা নিয়ন্ত্রণে গত ১৫ জুন থেকে ৪ মাসব্যাপী ভ্রাম্যমাণ আদালত পরিচালনার কার্যক্রম শুরু করেছে। আর ১৫ জুলাই থেকে তিনমাসব্যাপী কেন্দ্রীয় নিয়ন্ত্রণ কক্ষ প্রতিষ্ঠা করার পরিকল্পনা রয়েছে। এডিসের লার্ভা পেলে জরিমানা করাসহ নগরবাসীর মধ্যে সচেতনতা সৃষ্টিতে কাজ করবে বলে জানিয়েছেন দক্ষিণ সিটির মেয়র শেখ ফজলে নূর তাপস। তবে এসব ব্যবস্থা আগের বছরগুলোর মতোই।

ঢাকা উত্তর সিটি করপোরেশনও (ডিএনসিসি) এডিস মশা দমনে জনসচেতনতা বৃদ্ধির সঙ্গে সঙ্গে লার্ভিসাইডে জোর দিচ্ছে। বর্ষা মৌসুমে এডিসের বংশবিস্তার নিয়ন্ত্রণে, মশক নিধন কার্যক্রমে উত্তর সিটির সঙ্গে বাংলাদেশ ন্যাশনাল ক্যাডেট কোর (বিএনসিসি) ও জাতীয় স্কাউট দল যুক্ত করেছে। তারা বাড়ি বাড়ি গিয়ে মশক নিধন কার্যক্রম-জনসচেতনতা সৃষ্টিতে কাজ করবে।

তবে নতুন কোনো পদক্ষেপ নিতে দেখা যায়নি দুই সিটি করপোরেশনকেই।

ঢাকা উত্তর সিটির প্রধান স্বাস্থ্য কর্মকর্তা ব্রিগেডিয়ার জেনারেল মো, জোবায়দুর রহমান দাবি করেন, আমরা আগে ফগিং ও লার্ভিসাইড এ সমান গুরুত্ব দিতাম কিন্তু এখন লার্ভিসাইড এ বেশি গুরুত্ব দেওয়া হচ্ছে। সকালে লার্ভিসাইড প্রয়োগের সময় দুই ঘণ্টা এগিয়ে ভোর ৬টায় নিয়ে আসা হয়েছে।

তিনি বলেন, আমরা কীটতত্ত্ববিদদের এবং বিভিন্ন দেশের অভিজ্ঞতার আলোকে এডিস মশা দমনে পদ্ধতিগত অনেক পরিবর্তন এনেছি। আমরা উত্তর সিটির এলাকার জন্য ১০ জনের পিআর টিম তৈরি করেছি এবং রোভার স্কাউট ও বিএনসিসির সদস্যদের প্রশিক্ষণ প্রদান করছি। পাঠ্যসূচিতে ডেঙ্গুর বিষয় অন্তর্ভুক্ত করতে শিক্ষা মন্ত্রণালয়ে চিঠি দিয়েছি এবং স্কুলে শিশুদের মাঝে ড্রয়িং বই বিতরণ করা হবে বিনামূল্যে।

স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের সাবেক পরিচালক (সংক্রামক রোগ নিয়ন্ত্রণ বিভাগ) অধ্যাপক ডা. বেনজির আহমেদ বলেন, আবহাওয়ার যে ধরন সে অনুযায়ী এখন ডেঙ্গুর সংক্রমণ দ্রুত হারে বেড়ে যাবে। সঠিকভাবে এডিস মশা দমন করতে না পারলে ডেঙ্গুতে সংক্রমণ ও মৃত্যু কোথায় গিয়ে দাঁড়াবে তা এখনই বলা যাচ্ছে না। তবে বিগত বছরগুলোর সব রেকর্ড ছাড়িয়ে যেতে পারে।

এ বিশেষজ্ঞ আরও বলেন, গত ২৩ বছরে ডেঙ্গু নির্মুল তো দূরের কথা, নিয়ন্ত্রণই করতে পারিনি। এজন্য আমাদের পর্যাপ্ত কীটতত্ত্ববিদ দরকার এবং এর ওপর গবেষণা দরকার। এজন্য স্থানীয় সরকারকে এগিয়ে আসতে হবে।

স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের তথ্য বলছে, দেশে গত বছর ডেঙ্গুতে আক্রান্ত হয়ে ২৮১ জন মারা যায়। যা দেশে এক বছরে ডেঙ্গুতে সবচেয়ে বেশি রোগী মৃত্যুর রেকর্ড। এ ছাড়া ২০১৯ সালে ১৭৯ জনের মৃত্যু হয়।


আরও খবর



অবসর নিয়ে মুখ খুললেন সাকিব

প্রকাশিত:রবিবার ২৩ জুন ২০২৪ | হালনাগাদ:শুক্রবার ১৯ জুলাই ২০২৪ |

Image



বিডি টুডেস রিপোর্ট:


ক্রিকেটের সীমিত ওভারের ফরম্যাট থেকে কবে অবসর নিচ্ছেন সাকিব আল হাসান? বিশ্বকাপ শুরুর আগে সবচেয়ে উচ্চারিত হয়েছে এই প্রশ্ন! 


টুর্নামেন্টেও সাকিবের পারফর্ম চূড়ান্ত হতাশাজনক। ব্যাটে রান নেই, বলেও নির্বিষ। সেই সঙ্গে বাংলাদেশ দলের ব্যর্থতা তো আছেই। পরিস্থিতি যখন এই তখন ঘুরেফিরে আবারও প্রশ্ন, কখন থামছেন সাকিব? 



ভারতের বিপক্ষে গতকাল শনিবার বাজেভাবে হেরেছে বাংলাদেশ। ম্যাচটির পর ৩৭ বছর বয়সী অলরাউন্ডারের কাছে জানতে চাওয়া হয় তার অবসর ভাবনা নিয়ে। 



সংবাদ সম্মেলনে সাকিব বলেছেন, 'এটি শেষ (টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপ)কি না, জানি না। পৃথিবীতে যে কোনো সময় যে কোনো কিছু হওয়া সম্ভব। এটা তো সিদ্ধান্ত নেবে আসলে ক্রিকেট বোর্ড। আমার নিজেরও ব্যক্তিগত কিছু সিদ্ধান্ত থাকতে পারে।


 তবে এগুলো আসলে এখনই এখানে আলোচনা করার বিষয় নয়। এগুলো সময়ের সঙ্গে হয়তো আলোচনা হতে পারে।' 


২০২৩ সালের ওয়ানডে বিশ্বকাপের আগে এক সাক্ষাৎকারে সাকিব অবশ্য চলমান বিশ্বকাপ ও ২০২৫ চ্যাম্পিয়ন্স ট্রফি দিয়ে আন্তর্জাতিক ক্রিকেটকে বিদায় জানানোর কথা জানিয়েছিলেন। তবে, এবার জানালেন এই ভাবনা থেকে নাকি সরে এসেছেন তিনি। 


সাবেক এই অধিনায়ক বলছেন,'বলেছিলাম যে, তখনও পর্যন্ত চিন্তা এরকম… চিন্তা তো বদলাতেই পারে। এগুলা নিয়ে আসলে আমি অনেক বেশি চিন্তিত নই। অনেক বড় বিরতি আছে সামনে। 



নিজের ওপর রিফ্লেক্ট করা যাবে, দলের প্রয়োজনীয়তা ভেবে দেখা যাবে, যদি দল মনে করে যে, আমাকে দরকার আছে, যদি আমি মনে করি যে দলে আমার দরকার আছে ও আমি ওভাবে তাড়না অনুভব করছি, সবকিছু যদি ঠিকঠাক তাহলে, তাহলে এটা খেলার বিষয় দেখা যাবে।'



আরও খবর



হত্যাচেষ্টার পর ট্রাম্পের কণ্ঠে ঐক্যের ধ্বনি

প্রকাশিত:সোমবার ১৫ জুলাই ২০২৪ | হালনাগাদ:রবিবার ২১ জুলাই ২০২৪ |

Image

চলতি সপ্তাহের শেষের দিকে রিপাবলিকান প্রেসিডেন্ট মনোনয়নের চূড়ান্ত প্রস্তুতি নিতে সোমবার মিলওয়াকিতে ছিলেন ডোনাল্ড ট্রাম্প। আগের সপ্তাহেই তাকে হত্যার চেষ্টা চালানো হয়। তিনি বলছেন, এ ঘটনা গোটা দেশকে একত্রিত করার সুযোগ দিয়েছে।

৭৮ বছর বয়সী ট্রাম্প শনিবার পেনসিলভানিয়ার বাটলারে নির্বাচনী প্রচারণায় ছিলেন। অঙ্গরাজ্যটি আসন্ন ৫ নভেম্বরের নির্বাচনে গুরুত্বপূর্ণ। প্রচারণায় মঞ্চে থাকাকালে তার ওপর এআর-১৫ রাইফেলে গুলি চালান ২০ বছর বয়সী এক তরুণ। গুলিটি তার ডান কান ছুঁয়ে যায়। এতে তার কানে ও মুখে রক্ত লেগে যায়। তবে তিনি গুরুতর আহত হননি।

রবিবার ওয়াশিংটন এক্সামিনারকে ট্রাম্প বলেন, বাস্তবতা এখন বোঝা যাচ্ছে।

ট্রাম্পের নির্বাচনী প্রচারণায় হামলায় একজন নিহত এবং দুজন আহত হয়েছেন। সিক্রেট সার্ভিসের এজেন্টরা সন্দেহভাজন হামলাকারীকে গুলি করে হত্যা করেছেন।

রোববার ট্রাম্প ও প্রেসিডেন্ট জো বাইডেন দুজনই দেশে শান্তি ও ঐক্যের ডাক দিয়েছেন। ট্রাম্প বলেন, আমেরিকায় এ ধরনের, কোনো ধরনের সহিংসতার স্থান নেই। রাজনৈতিক বাগযুদ্ধ উত্তপ্ত পরিস্থিতি তৈরি করেছে। এখন এটি শীতল করার সময়। ওভাল অফিস থেকে এক টিভি ভাষণে তিনি এসব বলেন।

ট্রাম্পের ওপর হামলায় নিন্দা জানিয়েছেন বিশ্বনেতারা। যুক্তরাজ্যের প্রধানমন্ত্রী কিয়ার স্টারমার বলছেন, তিনি এ ঘটনায় মর্মাহত হয়েছেন। ফ্রান্সের প্রেসিডেন্ট এমানুয়েল ম্যাক্রোঁ হত্যাচেষ্টাকে গণতন্ত্রের জন্য ট্র্যাজেডি বলে উল্লেখ করেছেন।

ওয়াশিংটন এক্সামিনারকে ট্রাম্প বলেন, এটি পুরো দেশ, এমনকি সমগ্র বিশ্বকে একত্রিত করার সুযোগ। একই সাক্ষাৎকারে ট্রাম্প বলেন, দেশকে ঐক্যবদ্ধ করার চেষ্টা করতে চাই। প্রতিবেদনে এমনটি জানিয়েছে নিউইয়র্ক পোস্ট। তিনি বলেন, আমি জানি না, এটি সম্ভব কি না। লোকজন অতি বিভাজিত।


আরও খবর



তুফানের ‘মুণ্ডু কাটা’ দৃশ্য সংশোধন

প্রকাশিত:মঙ্গলবার ২৫ জুন ২০২৪ | হালনাগাদ:মঙ্গলবার ১৬ জুলাই ২০২৪ |

Image

পবিত্র ঈদুল আজহায় প্রেক্ষাগৃহে মুক্তি পেয়েছে শাকিব খান অভিনীত সিনেমা তুফান। এরই মধ্যে সিনেমাটির বিরুদ্ধে বেশ কিছু অভিযোগ উঠেছে। সর্বশেষ সিনেমাটির মুণ্ডু কাটা দৃশ্য নিয়ে তৈরি হয় আলোচনা। এবার ভয়ঙ্কর সেই দৃশ্য অস্পষ্ট করা হলো।

সংবাদমাধ্যমে মুণ্ডু কাটা দৃশ্য নিয়ে সংবাদ প্রকাশের পরই সমালোচনা করেন চলচ্চিত্রসংশ্লিষ্ট অনেকেই। স্পর্শকাতর দৃশ্যগুলো অস্পষ্ট করে সিনেমা প্রদর্শনের নিয়ম। ব্লার না করে প্রদর্শন না করায় কেউ কেউ আঙুল তুলেন চলচ্চিত্র সেন্সর বোর্ডের দিকেও।

বিশ্বস্ত সূত্রে জানা যায়, সেন্সর বোর্ডের পক্ষ থেকে দৃশ্যটি ব্লার করার কথা মৌখিকভাবে বলা হয়েছিল। কিন্তু নিয়মনীতির তোয়াক্কা না করেই ভয়ঙ্কর দৃশ্যটি প্রচার করা হয়। এতে করে অনেক শিশু ও নারী ভয়ে আতঙ্কগ্রস্ত হয়ে পড়েন।

রবিবার কয়েকটি প্রেক্ষাগৃহে খবর নিয়ে জানা যায়, সিনেমার সেই মুণ্ডু কাটা দৃশ্য ব্লার করে তুফান সিনেমা প্রদর্শন করা হচ্ছে।

প্রসঙ্গত, রায়হান রাফি পরিচালিত ৮ কোটি টাকা ব্যয়ে নির্মিত তুফান সিনেমা এখন প্রেক্ষাগৃহে হাউজফুল চলছে। ঈদে মুক্তি পাওয়া ৫টি সিনেমার মধ্যে দর্শক আগ্রহের শীর্ষে রয়েছে সিনেমাটি।


আরও খবর



দাবি আদায় না হওয়া পর্যন্ত আন্দোলন চলবে: পবিপ্রবি শিক্ষার্থীরা

প্রকাশিত:মঙ্গলবার ১৬ জুলাই ২০২৪ | হালনাগাদ:শনিবার ২০ জুলাই ২০24 |

Image
পবিপ্রবি প্রতিনিধি :


কোটা বৈষম্য নিরসনে এক দফা দাবিতে সারা বাংলাদেশের বিভিন্ন বিশ্ববিদ্যালয়ে শিক্ষার্থীদের উপর ছাত্রলীগ ও পুলিশ দ্বারা হামলার  প্রতিবাদ ও বিচারের দাবিতে বিক্ষোভ সমাবেশ করে  পটুয়াখালী বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয় (পবিপ্রবি) শিক্ষার্থীরা ।

মঙ্গলবার  (১৬ জুলাই) বিকাল ৩:৩০ টায় বৈষম্য বিরোধী ছাত্র আন্দোলন,  পবিপ্রবির উদ্যোগে গতকাল ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়, জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয়, চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয় সহ বিভিন্ন বিশ্ববিদ্যালয়ে ছাত্রলীগ ও পুলিশ দ্বারা হামলার প্রতিবাদে এক বিক্ষোভ মিছিল ও প্রতিবাদ সমাবেশ এর ডাক দেয় সাধারণ শিক্ষার্থীরা । বিক্ষোভকারীরা ছাত্র-শিক্ষক কেন্দ্রের সামনে থেকে শুরু হয়ে বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রধান ফটকের সামনে দিয়ে একটি মিছিল বের করে। এরপর তারা বিশ্ববিদ্যালয়ের "জয় বাংলা "  চত্বরে সমবেত হন। এসময় কোটা পদ্ধতির সংস্কারের দাবিতে  "কোটা না মেধা? -মেধা  মেধা " , "ছাত্রদের আন্দোলন বন্ধ করা যাবে না ", "ছাত্র সমাজ জেগেছে রে জেগেছে" এরকম নানা স্লোগান দিতে থাকেন। 
এ সময় আন্দোলনকারী শিক্ষার্থী হাসিবুল এলাহী  বলেন , " আজকে আমাদের এই আন্দোলন আমার বোন ও আমার ভাইয়ের রক্তের ঋণ আদায়ের জন্য। বৈষম্যের বিরুদ্ধে ছাত্র সমাজ সব সময় প্রস্তুত। ছাত্রদের আন্দোলনে তৃতীয় কোনো পক্ষ উস্কানি দিলে ছাড় দেওয়া হবে না।  আর আমরা আমাদের অধিকার আদায়ে রাজপথে রক্ত দিয়েছি, অধিকার আদায় না হওয়া পর্যন্ত আন্দোলন চলতেই থাকবে। "
 অন্য এক শিক্ষার্থী খালিদ হাসান মিলু বলেন , " কোন ছাত্র তার বোনের গায়ে হাত তুলতে পারে না, তারা আমাদের বোনের গায়ে হাত তুলেছে, আমরা এর তীব্র নিন্দা ও প্রতিবাদ জানাই। " 

আরও খবর



রাণীনগরে ১০হাজার মিটার নিষিদ্ধ কারেন্টজাল জব্দ করে ভস্মিভূত

প্রকাশিত:বৃহস্পতিবার ০৪ জুলাই ২০২৪ | হালনাগাদ:শনিবার ২০ জুলাই ২০24 |

Image

কাজী আনিছুর রহমান,রাণীনগর (নওগাঁ)  :

নওগাঁর রাণীনগরের আবাদপুকুর হাটে অভিযান চালিয়ে ১০হাজার মিটার নিষিদ্ধ কারেন্টজাল জব্দ করে আগুনে ভস্মিভূত করা হয়েছে। বুধবার দুপুরে উপজেলা সিনিয়র মৎস্য কর্মকর্তা শিল্পী রায় এই অভিযান পরিচালনা করেন। 

কর্মকর্তা জানান,ওই হাটে নিষিদ্ধ কারেন্টজাল বিক্রি হচ্ছে,এমন গোপন সংবাদের ভিত্তিতে বুধবার দুপুর ১টা নাগাদ থানাপুলিশকে সাথে নিয়ে অভিযান পরিচালনা করা হয়। এসময় পুলিশের উপস্থিতি টের পেয়ে নিষিদ্ধ কারেন্টজাল ক্রেতা-বিক্রেতারা জাল ফেলে রেখে পালিয়ে যায়। পরে প্রায় একলক্ষ ২০হাজার টাকার ১০হাজার মিটার কারেন্টজাল জব্দ করা হয়। এর পর জনসম্মুখে আগুনে পুরে ভস্মিভূত করা হয়। এর আগে গত ২৬জুন একই হাটে অভিযান চালিয়ে ১২হাজার মিটার নিষিদ্ধ কারেন্টজাল জব্দ করে আগুনে ভস্মিভূত করা হয়েছে। এই কর্মকর্তা আরো জানান,দেশীয় প্রজাতির মাছের সুরক্ষায় এমন অভিযান অব্যাহত থাকবে।


আরও খবর